ত্যাগের মহিমায় পবিত্র কুরবানী

newsgarden24.com    ০৬:০৪ পিএম, ২০২২-০৭-০৩    195


ত্যাগের মহিমায় পবিত্র কুরবানী

মোহাম্মদ খোরশেদ আলম: আর মাত্র কয়েক দিন পরেই মাহে জিলহজ্বের ১০ তারিখ উদযাপিত হবে পবিত্র ঈদুল আযহা বা কুরবানীর ঈদ। এই ঈদকে বকরা ঈদও বলা হয়। এ দিনে বিত্তবান মুসলমানগণ গরু, মহিষ, উট, দোম্বা ও বকরি যবেহর মাধ্যমে মহিমান্বিত পবিত্র কুরবানী সম্পন্ন করে থাকেন। আত্বীয়-স্বজন, বন্ধুবান্ধব নিয়ে কোলাহল মূখর পরিবেশে তারা আনন্দ উল্লাসের মাঝে যবেহকৃত পশুর গোশত আহার করে ঈদ উদ্যাপন সম্পন্ন করে থাকেন। বস্তুত মুসলিম জাতির পিতা হযরত ইব্রাহীম (আ.) এর কৃত পবিত্র কুরবানীর মাসে আমাদের কুরবানী ফরজ হয়েছে। আল্লাহ তায়ালা সৈয়্যিদুনা ইব্রাহিম (আ.)

এর কাছ থেকে তাঁর সর্বাধিক প্রিয় বস্তুটির কুরবানী চেয়েছিলেন। মানবিক সরলতায় তিনি পশু যবেহতেই কুরবানী মনে করেছিলেন। তাই তিনি প্রথমতঃ একশত উট যবেহ করেন। ওহি এল পশু যবেহ হয়েছে বটে কিন্তু কুরবানী হয়নি। দ্বিতীয়বার আবার একশত উট যবেহ করলেন। এবারও একই অবস্থা কুরবানী হয়নি এরপর তিনি গভীর চিন্তায় পড়ে গেলেন। ভাবতে লাগলেন আমার মাওলা আমার কাছে কি চান?  কি তাঁর মনশা? এসব ভাবতে ভাবতে ঘুমিয়ে পড়লেন। একসময় তিনি স্বপ্নযোগে প্রকৃত কুরবানীর রূপরেখা পেয়ে গেলেন। দেখতে পেলেন তিনি তাঁর ঔরসজাত সন্তান হযরত ইসমাইল (আ.) কে কুরবান করছেন। তিনি বুঝে গেলেন যে আল্লাহ তায়ালা আমার কাছ থেকে আমার সর্বাধিক প্রিয় পুত্র বালক ইসমাইল  (আ.) কে কুরবানী চান। হযরত ইব্রাহীম (আ.) ছিলেন মাওলার প্রেমে বিভুর। আপন মাওলার সন্তুষ্টির অর্জনেই হল তাঁর জীবনের পরম চাওয়া ও পাওয়া। এজন্য তিনি যেকোন কুরবানী ও ত্যাগ করতে প্রস্তুত হন। মাবুদের প্রতি এ নিরঙ্কুশ মুহাব্বত ও নিবেদিত প্রাণ হওয়ার কারণেন তিনি “খলিলুল্লাহ” উপাধি পেয়েছেন। হে নবী! খিতাবীগণকে আদমের দুই পুত্র হাবিল ও কাবিলের ঘটনা ভাল করে বর্ণনা করে তারা যখন কুরবানী করেছিল তখন একজনের কুরবানী কবুল হল কিন্তু অন্যজনের কুরবানী কবুল হল না। ক্ষিপ্ত হয়ে সে বলল আমি তোমাকে খুন করব অপরজন  বলল প্রভু তো শুধু আল্লাহ সচেতনদের কুরবানী কবুল করেন। লোক দেখানোর জন্য যারা লক্ষ লক্ষ টাকা দিয়ে বড় বড় পশু কিনে কুরবানী দেয় তাঁদের সে কুরবানী কতটুকু কবুল হবে। আদৌ কবুল হবে কি? অতএব, হে মানুষ! আল্লাহ সচেতন হও, আল্লাহর ধর্ম বিধান লঙ্ঘন হতে দূরে থাক। যেনে রাখো আল্লাহ মন্দ কাজের শাস্তি দানে কঠোর। (সূরা: বারাকা আয়াত ১৯৬)
ইসলামের শাশ্বত বিধান হচ্ছে পবিত্র কুরবানী। এই মহিমান্বিত ইবাদত ইসলামের অন্যতম ঐতিহ্য। মুসলিম উম্মাহর মাঝে তাকওয়ার অনুভূতি জাগ্রত করে। আর ঈমানী স্পৃহাকে করে অধিক শানিত। তাই কুরবানীর তাৎপর্য, শিক্ষা ও মাসলা-মাসায়েল জেনে তদানুযায়ী আমল করা মুমিন মুসলমানদের জন্য অবশ্যই করণীয়। কুরবানী আরবী শব্দ। আরবী “কুরবানুন” কুরবান শব্দ থেকে নির্গত যার অর্থ নৈকট্য, উৎসর্গ, বিসর্জন ও ত্যাগ। শরীয়তের পরিভাষায় কুরবানীর অর্থ আল্লাহ তায়ালার সন্তুষ্টি তথা নৈকট্য লাভের মহান উদ্দেশ্যে জিলহজ্ব মাসের ১০, ১১ ও ১২ তারিখ এ তিনটি দিনের যে কোন দিন আল্লাহর নামে নির্দিষ্ট নিয়মে হালাল পশু যবেহ করাই হলো শরীয়তের পরিভাষায় কুরবানী। প্রতিবছর ১০ই জিলহজ্ব ত্যাগ ও আনন্দের বার্তা নিয়ে মুসলমানদের দ্বারে হাজির হয় পবিত্র ঈদুল আযহা। এ দ্বিন সকলের মসজিদের গিয়ে দুই রাকাত নামাজ আদায়ের পর মহান আল্লাহ তায়ালার সন্তুষ্টি লাভের উদ্দেশ্যে সামর্থবান মুসলমানদের শরিয়ত অনুযায়ী পশু কুরবানী করেন।
প্রাপ্ত বয়স্ক সুস্থ মস্তিষ্ক সম্পন্ন স্বাধীন মুকিম (মুসাফির নয় এমন ব্যক্তি) মুসলিম নরনারী যে জিলহজ্ব মাসের সুবেহ সাদিক থেকে ১২ তারিখ সূর্যাস্ত পর্যন্ত সময়ের মধ্যে প্রয়োজীয়তিরিক্ত নিসাব (সাড়ে সাত তোলা স্বর্ণ বা সাড়ে বায়ান্ন তোলা রূপা কিংবা সে পরিমান স্বর্ণ বা রূপার মূল্য) পরিমান সম্পদের মালিক হবে তার উপর কুরবানী ওয়াজিব। পবিত্র কোরআনে আল্লাহ তায়ালা এরশাদ করেন- সুতরাং আপনার প্রতি পালকের উদ্দেশ্যে নামায পড়েন এবং কুরবানী করুন।
হযরত আয়েশা (রা.) সূত্রে বর্ণিত, তিনি বলেন রাসুল (সা.) এরশাদ করেছেন কুরবানির চেয়ে উত্তম ও প্রিয় কোন আমল নেই। কিয়ামতের দিন কুরবানীর পশুর শিং, পশম,  খুর সহ উপস্থিত হবে এবং কুরবানির পশুর রক্ত মাটিতে পতিত হওয়ার পূর্বেই আল্লাহ তায়ালার কাছে কবুল হবে।  তাই তোমরা আনন্দচিত্তে কুরবানি কর (তিরমিজি ১৪১৩)।
সাহাবায়ে কেরাম (র.) নবী করিম (সা.) এর কাছে জানতে চাইলেন কুরবানী কি? উত্তরে তিনি এরশাদ করেন কুরবানী হলো তোমাদের পিতা ইব্রাহিম (আ.) এর সুন্নাত। সাহাবায়ে কেরাম আবারো  জিজ্ঞেস করলেন এতে আমাদের জন্য কি বিনিময় রয়েছে? নবী করীম (সা.) বললেন কুরবানীর পশুর প্রতিটি পশমের বিনিময়ে একটি করে নেকি রয়েছে। তাহলে ভেড়ার হুকুম কী? নবী করীম (সা.) বললেন ভেড়ার প্রতিটি পশমের বদলায়ও একটি করে সাওয়াব রয়েছে। রাসূল (সা.) বলেন সামর্থবান হওয়া স্বর্থেও কুরবানী না করলে সে যেন আমাদের ঈদগাহে না আসে। সামর্থবান লোকের কুরবানীর মত মহিমান্বিত  ইবাদত থেকে বিরত থাকার কোন সুযোগ নেই। সর্বোচ্চ ইখলাস ও তাকওয়ার অনুভূতি নিয়ে কুরবানীরমত তাৎপর্যপূর্ণ আমল পালন করা সামর্থবান মুসলমানদের ঈমানী কর্তব্য। তবে এ ক্ষেত্রে কোন ধরনের লৌকিকতার আশ্রয় নেওয়া জায়েয নেই। যেমন আজকাল আমাদের সমাজে দেখা যায় কুরবানীর পশুকে পুষ্পমাল্য লাল কাপড় ইত্যাদিতে সজ্জিত করে লোক দেখানোর উদ্দেশ্যে ঘুরাঘুরি করান। এটি শরিয়তের দৃষ্টিতে অত্যন্ত গর্হিত কাজ।
আরাফাতের দিন অর্থাৎ ৯ই জিলহজ্ব থেকে ১৩ তারিখ সময়কে আইয্যানে তাশরীক বলা হয়। এ দিনগুলোতে তথা ৯ জিলহজ্ব এর ফজর থেকে ১০ জিলহজ্বের আসর পর্যন্ত প্রত্যেক ফরয নামাজান্তে একবার করে তাকবীর বলা সব প্রাপ্ত বয়স্ক মুসলিম নরনারীর ওপর ওয়াজিব। এ তাকবীরের নাম তাকবীরে ‘‘তাশরীক’’ তাকবীর পুরুষদের উচ্চস্বরে আর নারীদের নি¤œস্বরে বলতে হয়।
শরীয়ত মোতাবেক গরু, মহিষ ও উট ছাগল, ভেড়া, দোম্বা দ্বারাই কুরবানী করতে হয়। অন্য কোন পশু দিয়ে কুরবানী করা বৈধ নয় সুতরাং হরিণ বা বন্য পশু দ্বারা কুরবানী করা বৈধ হবে  না। ছাগল ভেড়া দুম্বা এক ব্যক্তির পক্ষে কুরবানী করতে হয়। গরু মহিষ উটে সাত ব্যক্তি অংশীদার হতে পারে। তবে সকলের সাওয়াবের নিয়ত হতে হবে। একজনেরও কেবল গোশত খাওয়ার নিয়ত হলে কুরবানী জায়েয হবে না। অংশীদার কোরবানীর গোশত ওজন করে বন্টন করা ওয়াজিব। অনুমান করে বন্টন করলে জায়েয হবে না। কুরবানীর গোশত তিন ভাগে ভাগ করতে হবে  এক ভাগ নিজ পরিবারের জন্য রাখা, এক ভাগ বন্ধুবান্ধব ও আত্মীয় স্বজনকে দেওয়া আরেক ভাগ ফকির মিসকিনদের জন্য দান করা। কোরবানীর পশু নিজ হাতে যবেহ করা মুস্তাহাব। হযরত আনাস (রা.) থেকে বর্ণিত রাসুল (সা.)  দুইটি দৃষ্টিনন্দন শিং ওয়ালা ভেড়ার দিকে এগিয়ে গেলেন এবং নিজ হাতে সে দুটিকে যবেহ করলেন। কুরবানীর পশুর চামড়া কোন কাজ বা খিদমতের বিনিময়ে জায়েয নেই এ চামড়া দ্বিনি প্রতিষ্ঠান (মাদ্রাসা) এতিম দুঃস্থ ছাত্রদেরকে দান করা উত্তম কারণ তাতে দুই দিকের সাওয়াব অর্জন করা হয়। এক. গরীবকে দান করার সাওয়াব,  দুই. দ্বিন ইসলামের প্রচার ও প্রসারের সাওয়াব।
আসুন পবিত্র কুরবানীর ফযীলত অর্জনে সচেষ্ট হই। সহি মাসায়েল জেনে তদানুযায়ী কুরবানী করার দৃঢ় প্রত্যেয়রে মধ্যে দিয়ে মহান আল্লাহাতায়ালার রাহে পূর্ণ আত্মসমর্পনের দৃপ্ত শপথ নেই। মহান আল্লাহ তায়ালা আমাদের সে তৌফিক এনায়েত করুন। আমিন। লেখক: শ্রম বিষয়ক সম্পাদক, চট্টগ্রাম দক্ষিণ জেলা আওয়ামী লীগ।

 

সাবস্ক্রাইব ইউটিউব চ্যানেল


রিটেলেড নিউজ

‘জনস্বাস্থ্য সুরক্ষায় শক্তিশালী তামাক নিয়ন্ত্রণ আইনের বিকল্প নেই’

‘জনস্বাস্থ্য সুরক্ষায় শক্তিশালী তামাক নিয়ন্ত্রণ আইনের বিকল্প নেই’

newsgarden24.com

নিউজগার্ডেন ডেস্ক: তামাকমুক্ত বাংলাদেশ অর্জনে আইন সংশোধনের উদ্যোগ নিয়েছে স্বাস্থ্য ও পরিবার কল... বিস্তারিত

‘তারুণ্য হোক উচ্চ রক্তচাপ ও হৃদরোগ ঝুঁকিমুক্ত’

‘তারুণ্য হোক উচ্চ রক্তচাপ ও হৃদরোগ ঝুঁকিমুক্ত’

newsgarden24.com

নিউজগার্ডেন ডেস্ক: বাংলাদেশে তরুণদের মধ্যে উচ্চ রক্তচাপ ও হৃদরোগে আক্রান্ত হওয়ার প্রবণতা আশঙ্ক... বিস্তারিত

ধূমপানমুক্ত করার দাবিতে কক্সবাজার সমুদ্র সৈকতে র‌্যালি

ধূমপানমুক্ত করার দাবিতে কক্সবাজার সমুদ্র সৈকতে র‌্যালি

newsgarden24.com

নিউজগার্ডেন ডেস্ক: সকল পাবলিক প্লেস এবং পাবলিক পরিবহনে শতভাগ ধূমপানমুক্ত পরিবেশ নিশ্চিত করার দাব... বিস্তারিত

৩ মাসে শেষ হল নালার দু’পাশের কাজ

৩ মাসে শেষ হল নালার দু’পাশের কাজ

newsgarden24.com

কাজী ইব্রাহিম সেলিম: নালার দু’পাশেই একসাথে দেয়াল দিয়ে কাজে হাত দেয়ার ৩ মাসের মধ্যেই কাজ সম্পন্ন ... বিস্তারিত

ক্ষণজন্মা পুরুষ অধ্যাপক মোহাম্মদ খালেদ

ক্ষণজন্মা পুরুষ অধ্যাপক মোহাম্মদ খালেদ

newsgarden24.com

মোহাম্মদ খোরশেদ আলম: ১৯২২ সালের ৬ জুলাই তৎকালীন ব্রিটিশ ভারতের বিহার রাজ্যের রাজধানী পাঠনায় পিতা ... বিস্তারিত

গৌরব ও ঐতিহ্যের ৭৩ বছরে আওয়ামী লীগ

গৌরব ও ঐতিহ্যের ৭৩ বছরে আওয়ামী লীগ

newsgarden24.com

মোঃ খোরশেদ আলম: আওয়ামী মুসলিম লীগ একটি রাজনৈতিক দল যা বৃটিশ-ভারত বিভক্তিক্রমে পাকিস্তান জন্মের ২ ব... বিস্তারিত

সর্বশেষ

গণসমাবেশ যুবদলের গণসমাবেশে রূপান্তর করতে যুবদল প্রতিজ্ঞাবদ্ধ: টুকু

গণসমাবেশ যুবদলের গণসমাবেশে রূপান্তর করতে যুবদল প্রতিজ্ঞাবদ্ধ: টুকু

newsgarden24.com

নিউজগার্ডেন ডেস্ক: যুবদল কেন্দ্রীয় কমিটির সভাপতি সুলতান সালাহ উদ্দিন টুকু বলেছেন, ফ্যাসিষ্ট আওয়া... বিস্তারিত

মানুষের মৌলিক ও ভোটের অধিকারের জন্য কাজ করছে ববি হাজ্জাজ: এমরান চৌধুরী

মানুষের মৌলিক ও ভোটের অধিকারের জন্য কাজ করছে ববি হাজ্জাজ: এমরান চৌধুরী

newsgarden24.com

নিউজগার্ডেন ডেস্ক: এনডিএম চট্টগ্রাম মহানগর সভাপতি এমরান চৌধুরী বলেছেন, মানুষের মৌলিক ও ভোটের অধি... বিস্তারিত

নাগরিক সেবা প্রদান-গ্রহণের জন্য জন্ম ও মৃত্যু নিবন্ধন আবশ্যক: বিভাগীয় কমিশনার

নাগরিক সেবা প্রদান-গ্রহণের জন্য জন্ম ও মৃত্যু নিবন্ধন আবশ্যক: বিভাগীয় কমিশনার

newsgarden24.com

নিউজগার্ডেন ডেস্ক: চট্টগ্রাম বিভাগীয় কমিশনার মোঃ আশরাফ উদ্দিন বলেছেন, নাগরিক সেবা প্রদান ও গ্রহণ... বিস্তারিত

ধর্ষণ মামলা দিয়ে কায়সার ও জালালকে ফাঁসানোর অভিযোগ পরিবারের

ধর্ষণ মামলা দিয়ে কায়সার ও জালালকে ফাঁসানোর অভিযোগ পরিবারের

newsgarden24.com

নিউজগার্ডেন ডেস্ক: চট্টগ্রামের লোহাগাড়ায় মো. কায়সার ও জালাল উদ্দিন নামের দুই যুবকের বিরুদ্ধে ধর্... বিস্তারিত