বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের অধীনে “ভোক্তা অধিকার বিভাগ” চায় ক্যাব

newsgarden24.com    ০৫:৪৫ পিএম, ২০২২-০৫-২৩    77


বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের অধীনে “ভোক্তা অধিকার বিভাগ” চায় ক্যাব

নিউজগার্ডেন ডেস্ক: ভোক্তাদের অধিকার সংরক্ষণের জন্য ভোক্তা অধিদপ্তর যথেষ্ট নয়, ভোক্তার অধিকার সংরক্ষণের জন্য বানিজ্য মন্ত্রণালয়ের অধীনে ‘ভোক্তা অধিকার বিভাগ’ চায় কনজুমারস এসোসিয়েশন অব বাংলাদেশ (ক্যাব)।

সোমবার দুপুর ১২টায় ‘অতিমুনাফা ও প্রতারণার শিকার ভোক্তারা: আইন মানার তোয়াক্কাই নেই’ শীর্ষক এক অনলাইন ওয়েবিনারে এ দাবি করা হয়।

ক্যাবের পক্ষ থেকে বলা হয়, বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের কাঠামো অনুযায়ী ভোক্তাদের অধিকার নিশ্চিত করা সম্ভব নয়। ভোক্তা অধিদপ্তরও যথেষ্ট নয়। এর জন্য আলাদা মন্ত্রণালয় প্রয়োজন। তবে আপাতত ভোক্তাদের অধিকার সংরক্ষণে বানিজ্য মন্ত্রণালয়ের অধীনে ‘ভোক্তা অধিকার বিভাগ’ জরুরি। দাবি না মানলে আন্দোলনে যাবারও

হুশিয়ারি দেয়া হয়।

ওয়েবিনারটি পরিচালনা করেন ক্যাব এর সাংগঠনিক সম্পাদক সৈয়দ মিজানুর রহমান রাজু।

ক্যাব এর সিনিয়র ভাইস প্রেসিডেন্ট অধ্যাপক ড. এম সামসুল আলম বলেন, আমরা দীর্ঘদিন থেকে দাবি করে আসছি, হয়তো আমাদের আন্দোলনের পর্যায়ে যেতে হবে। আমরা ভোক্তা অধিকার মন্ত্রণালয় চাচ্ছিলাম। ভোক্তা অধিদপ্তর ভোক্তাদের অধিকার সংরক্ষণে যথেষ্ট নয়, অন্তত ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণে আপাতত ‘ভোক্তা অধিকার বিভাগ’ চাই। নিশ্চিতভাবে ভোক্তাদের অধিকার সংরক্ষণের জন্য সরকারের পলিসি বিভাগ উদ্যোগ নিবে এবং সরকারের যথাযথ প্রশাসন, তার জায়গা থেকে দায়িত্ব পালন করবেন।

তিনি বলেন, এখন ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ অধিদপ্তর ছাড়া আর কোথাও ভোক্তাদের যাবার জায়গা নেই। আমরাও কোন জায়গায় কোন কিছু বলে সুবিধা করতে পারছি না। আজকের এই সেমিনারের মাধ্যমে সরকারের উদ্দেশ্যে বলতে চাই, ভোক্তা অধিকার সংরক্ষনের জন্য কেবলমাত্র ভোক্তা অধিদপ্তরই যথেষ্ট নয়, ভোক্তাদের অধিকার রক্ষায় বিভাগ চাই।

সেমিনারে মূল প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন ক্যাব এর ভাইস প্রেসিডেন্ট এস এম নাজের হোসাইন।

তিনি বলেন, ব্যবসায়ীদের অসাধু তৎপরতা অপতৎপরতা ঠেকাতে ভোক্তা সংরক্ষন অধিদপ্তর, নিরাপদ খাদ্য কর্তৃপক্ষ, সিটি করপোরেশনের বাজার অভিযান পরিচালনা করছে। অপরাধের জন্য আদায় করা হচ্ছে জরিমানা, করা হচ্ছে সতর্ক। কিন্তু তারপরও অসাধু ব্যবসায়ীদের অপতৎপরতা বন্ধ হচ্ছে না।

সরকারের বিভিন্ন সংস্থার কার্যক্রমের তথ্য তুলে ধরে তিনি বলেন, এ অসাধু ব্যবসায়ীদের ভিত এতই শক্তিশালী যে সরকারী প্রশাসন যন্ত্র মনে হয় তাদের কাছে অসহায়, এরা টাকার জোরে সরকারি আমলা, আইন প্রয়োগকারী সংস্থা ও বিভিন্ন মিডিয়াকে নিজেদের স্বার্থে ব্যবহার করেন। বরং এরকম জলজ্যান্ত মানুষ মেরে কোটিপতি হবার লোকের সংখ্যা প্রতিনিয়তই বাড়ছে। ইতিপুর্বে একই কায়দায় গুড়োদুধে ময়দা মিশ্রিত করার হোতাসহ চিনি, সয়াবিন, চাল, পেয়াঁজ কেলেংকারী হোতাদের কোন শাস্তি হয়নি। তারা পর্দার আডালে আবার রেহাই পেয়ে যায়। আর সাধারন ভোক্তা হিসাবে জনগন অসচেতন ও অসংগঠিত, ভোক্তার অধিকার সম্পর্কে অজ্ঞতা, ভোক্তা সংগঠনগুলিকে সরকারি উপেক্ষার কারনে প্রকারান্তরে বাংলাদেশকে ভেজাল ও নিন্মমানের খাদ্যের বাজার ও পরীক্ষাগারে পরিণত করে কোটি কোটি টাকা হাতিয়ে নিচ্ছেন। ফলে মানুষ যা আয় রোজগার করছে তার সিংহভাগই ঔষধ ও চিকিৎসার খরচ যোগাতে চলে যাচ্ছে। সরকার ও বহু জাতিক দাতা সংস্থা গুলি ব্যবসায়ী ও চেম্বারগুলিকে নানা সুবিধা দিলেও ভোক্তাদের সচেতন করার জন্য কোন কার্যকরী পদক্ষেপ নিচ্ছে না। ফলে দেশে ব্যবসায়ী ও ভোক্তাদের মধ্যে ব্যবধান বাড়ছে ও ভারসাম্যহীন পরিস্থিতি বিরাজ করছে। যা ব্যবসায় সুস্থ ধারা বিকাশে বিশাল প্রতিবন্ধক।

তিনি আরও বলেন, ব্যবসা শুধুমাত্র একটি অর্থ উপার্জনের উপায় নয়, এটা একটি সেবাও বটে। যার মাধ্যমে একজন ব্যবসায়ী ভোক্তাকে খাদ্য-পণ্য ও সেবা সার্ভিস দিয়ে সেবাও করছেন। পণ্যের মূল্য ঘষামাজা করে অতিমুনাফা আদায়ে সচেষ্ঠ হওয়াকে ব্যবসা বলা যাবে না। এটা প্রতারনা আর এই প্রতারনা ফৌজদারী অপরাধও বটে। তবে আইন দিয়ে অপরাধ নিয়ন্ত্রণ সব সময় সম্ভব না ও হতে পারে। এজন্য প্রয়োজন অতিমুনাফালোভী, প্রতারক, মজুতকারী ও অসাধু ব্যবসায়ীদের সামাজিক ভাবে বয়কট করা। তাহলেই হয়তো ব্যবসা-বানিজ্যে জবাবদিহিতা ও সুশাসন নিশ্চিত হবে।


দেশে এমন কোন খাত নেই যেখানে অসাধু ব্যবসায়ীরা মাথা চারা দেয়নি বলে আক্ষেপ প্রকাশ করে ড. এম সামসুল আলম আরও বলেন, আমরা ভোক্তারা অনেকটা বন্দী হয়ে গেছি। এই বন্দি দশা থেকে মুক্তি দেবার জন্য দেশের আইন, সরকারি প্রতিষ্ঠান কেউ-ই সফল নন।

ভোক্তাদের প্রতি অনুরোধ রেখে তিনি বলেন, আপনারা জেলায় জেলায় অন্তত একটা করে ঘটনা চিহ্নিত করুন। যাতে এসব ঘটনাকে ভোক্তা অধিকার সুরক্ষা আইনের আওতায় এনে আদালতে ফৌজদারি আইনে মামলা করা যায়। ভোক্তা অধিদপ্তরের হয়তো এখনও মামলা করার অধিকার নেই। তবে এই আইন করা হচ্ছে। কিন্ত একমাত্র সংগঠন ক্যাব, যাকে মামলা করার অধিকার দেয়া হয়েছে।  আমরা প্রয়োজনে প্রমাণ সহ এসব ভোক্তা স্বার্থ বিরোধী ঘটনায় আদালতে যাব।

সেমিনারে ভোক্তাকণ্ঠের সম্পাদক কাজী আব্দুল হান্নান বলেন, আমাদের দেশে দুটি সময়কে অসাধু ব্যবসায়ীরা কারসাজির মহা উৎসব হিসেবে নেয়। এর মধ্যে রমজানের ঈদ এবং বাজেটকে সামনে রেখে দাম বৃদ্ধির কারসাজি শুরু করে ব্যবসায়ীরা। এবছর ঈদ এবং বাজেট কাছাকাছি সময়ে হওয়ায় নিত্যপ্রয়োজনীয় পণ্যের দাম আগে থেকেই বাড়িয়ে দিয়েছে। বাজেটকে সামনে রেখে আরেক দফা বাড়ানোর পায়তারা করছে। সেমিনারে স্বাগত বক্তব্য রাখেন ক্যাব এর সাধারণ সম্পাদক এডভোকেট হুমায়ূন কবির ভূঁইয়া।

 

সাবস্ক্রাইব ইউটিউব চ্যানেল


রিটেলেড নিউজ

 ৪ লাখ পরিবারের মাঝে টিসিবির পণ্য সরবরাহ কার্যক্রমের উদ্বোধন

৪ লাখ পরিবারের মাঝে টিসিবির পণ্য সরবরাহ কার্যক্রমের উদ্বোধন

newsgarden24.com

নিউজগার্ডেন ডেস্ক: প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনা ঘোষিত এককোটি স্বল্প আয়ের মানুষের মাঝে ভর্ত... বিস্তারিত

আদালতের আইন মানছে না চট্টগ্রাম বন্দর কর্তৃপক্ষ

আদালতের আইন মানছে না চট্টগ্রাম বন্দর কর্তৃপক্ষ

newsgarden24.com

নিউজগার্ডেন ডেস্ক: চট্টগ্রাম বন্দর কর্তৃপক্ষ আদালতের আইন মানছে না বলে সংবাদ সম্মেলনে অভিযোগ করেছ... বিস্তারিত

জাতিকে সুস্থ রাখতে ২০৪০ সালের মধ্যে তামাকমুক্ত দেশ গড়তে হবে: সাবিনা ইয়াসমিন

জাতিকে সুস্থ রাখতে ২০৪০ সালের মধ্যে তামাকমুক্ত দেশ গড়তে হবে: সাবিনা ইয়াসমিন

newsgarden24.com

নিউজগার্ডেন ডেস্ক: স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রনালয়ের স্বাস্থ্য সেবা বিভাগের অতিরিক্ত সচিব (... বিস্তারিত

বন্যা উপদ্রুত এলাকায় সামাজিক দায়বদ্ধতার পরিবর্তে পকেট কাটার উৎসব বন্ধের আহবান ক্যাব চট্টগ্রাম’র

বন্যা উপদ্রুত এলাকায় সামাজিক দায়বদ্ধতার পরিবর্তে পকেট কাটার উৎসব বন্ধের আহবান ক্যাব চট্টগ্রাম’র

newsgarden24.com

নিউজগার্ডেন ডেস্ক: সিলেট, সুনামগঞ্জসহ উত্তরবঙ্গের দেশের প্রায় ১১টি জেলায় বন্যায় লাখ লাখ মানুষ পা... বিস্তারিত

 আন্তঃজিলা মালামাল পরিবহন সংস্থা ট্রাক ও কাভার্ডভ্যান মালিক সমিতির সংবাদ সম্মেলন

আন্তঃজিলা মালামাল পরিবহন সংস্থা ট্রাক ও কাভার্ডভ্যান মালিক সমিতির সংবাদ সম্মেলন

newsgarden24.com

নিউজগার্ডেন ডেস্ক: সীতাকুণ্ডের বিএম ডিপোতে অগ্নিকাণ্ডের ঘটনায় পণ্য পরিবহনে নিয়োজিত গাড়ি মালিকদ... বিস্তারিত

অছাত্ররা চালাচ্ছে চুয়েট ছাত্রলীগ!

অছাত্ররা চালাচ্ছে চুয়েট ছাত্রলীগ!

newsgarden24.com

স্টাফ রিপোর্টার: চুয়েট ছাত্রলীগের কমিটিতে অছাত্র, বিবাহিত, মাদক ব্যবসায়ী অন্তর্ভুক্ত এবং জামায়াত... বিস্তারিত

সর্বশেষ

চট্টগ্রামে রোটারী বর্ষ উপলক্ষে সংবাদ সম্মেলন

চট্টগ্রামে রোটারী বর্ষ উপলক্ষে সংবাদ সম্মেলন

newsgarden24.com

নিউজগার্ডেন ডেস্ক: ছাত্র/ ছাত্রীদের জন্য গ্র্যাজুয়েশন পর্যন্ত শিক্ষা সহায়তা, সুবিধাবঞ্চিত প্র... বিস্তারিত

জীবাশ্ম জ্বালানিতে খুব দ্রুত সব ধরনের বিনিয়োগ বন্ধ করতে চট্টগ্রামে ক্লিন ও সংশপ্তকের র‌্যালি

জীবাশ্ম জ্বালানিতে খুব দ্রুত সব ধরনের বিনিয়োগ বন্ধ করতে চট্টগ্রামে ক্লিন ও সংশপ্তকের র‌্যালি

newsgarden24.com

নিউজগার্ডেন ডেস্ক: জীবাশ্ম জ্বালানিতে বিনিয়োগ বন্ধ করতে এশিয়ার কোম্পানিগুলোর উপর চাপ বাড়িয়ে দিল ... বিস্তারিত

সাতকানিয়ায় এক পুলিশ সদস্যের বিদায় অনুষ্ঠান

সাতকানিয়ায় এক পুলিশ সদস্যের বিদায় অনুষ্ঠান

newsgarden24.com

সাতকানিয়া প্রতিনিধি: সাতকানিয়া থানা পুলিশের উদ্যোগে গতকাল বুধবার থানার মাঠ প্রাঙ্গণে এক পুলিশ সদ... বিস্তারিত

সীতাকুণ্ডে বেসরকারী প্রতিষ্ঠানের গাড়ীর কারণে মহাসড়কে যানজট, প্রতিবাদে মানববন্ধন

সীতাকুণ্ডে বেসরকারী প্রতিষ্ঠানের গাড়ীর কারণে মহাসড়কে যানজট, প্রতিবাদে মানববন্ধন

newsgarden24.com

নিউজগার্ডেন ডেস্ক: ঢাকা চট্টগ্রাম মহাড়কের সীতাকুণ্ড অংশের বিভিন্নস্থানে সড়কের পাশে গড়ে উঠা বেসর... বিস্তারিত