গৌরবের পদ্মা সেতু: বাংলাদেশের আরেকটি বিজয়

newsgarden24.com    ০৪:২৫ পিএম, ২০২০-১২-১১    231


গৌরবের পদ্মা সেতু: বাংলাদেশের আরেকটি বিজয়

মো. এনামুল হক লিটন ও সাহেনা আক্তার হেনা: অবশেষে বাস্তবে রুপ পেল গৌরবের ও স্বপ্নের সেই পদ্মা সেতু। এ যেন মহান বিজয়ের মাসে বাংলাদেশের জন্য আরেকটি বিজয়ের সংবাদ। বঙ্গবন্ধুকন্যা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা স্বপ্ন দেখে, স্বপ্ন দেখায় এবং তা বাস্তবায়ন করেন, স্বপ্নের পদ্মা সেতু তারই জলন্ত প্রমান। প্রধানমন্ত্রীর এই কৃতিত্বের জন্য সারাবিশে^ বাংলাদেশের মাথা উঁচু হয়েছে। তাঁর ঐকান্তিক প্রচেষ্টা, দৃঢ় মনোবল আর আতœবিশ^াসের কারণেই বাংলাদেশ নিজেদের প্রচেষ্টায় পদ্মা সেতুর মতো একটি ব্যয়বহুল নির্মাণের স্বপ্নকে বাস্তবে রুপ দিতে পেরেছে। গত ১০ ডিসেম্বর ৪১তম স্প্যান স্থাপনের মাধ্যমে পদ্মার এপার-ওপারের মধ্যে সংযোগের পথ সুগম হলো এবং ২০২১ সালের মধ্যেই পদ্মা সেতু সবার জন্য উন্মুক্ত হবে এটা নিশ্চিতভাবে বিশ^াসযোগ্য। যে কথা না বললে নয়, অতীতে  দেশের উন্নয়ণ অগ্রযাত্রাকে বাধাগ্রস্থ করতে বারবার প্রচেষ্টার পর প্রচেষ্টা চালিয়েছে একটি গোষ্ঠি। এখনো চালাচ্ছে। কিন্তু সফল হতে পারে নি। সকল ষড়যন্ত্রই ধুলিস্যাৎ হয়েছে। পদ্মা সেতু নিয়েও কম ষড়যন্ত্র হয় নি। দেশে-বিদেশে অনেক চক্রান্ত হয়েছে। বিশ^ ব্যাংকও কম করেন নি। কিন্তু সফল রাষ্ট্র নায়ক বঙ্গবন্ধুকন্যা শেখ হাসিনা শুরুতে যে চ্যালেঞ্জ ছুঁড়েছিলেন, তা সফলভাবে বাস্তবায়িত করেছেন। শুধুমাত্র ষড়যন্ত্রের কারনেই স্বপ্নের পদ্মা সেতুর নির্মাণ কাজ এতোদিন পিছিয়ে ছিল। তা না হলে, সেতুর উপর দিয়ে এখন যানবাহন চলাচল করতো। সেতুটির জন্য ২৯০ কোটি ডলারের প্রথম বাজেটের মধ্যে বিশ্বব্যাংক ১২০ কোটি ডলার দিতে প্রস্তুত ছিল, কিন্তু ২০১২ সালে আচমকা দুর্নীতির অভিযোগসহ নানা ষড়যন্ত্রের অভিযোগ তুলে বৃহৎ এই প্রকল্প থেকে সরে যায় বিশ্বব্যাংক। শুধু তাই নয়, বিশ্বব্যাংক ও তাদের স্থানীয় অনুসারীরা গণমাধ্যমে বিভ্রান্তিমূলক বিবৃতি দিয়ে এক বড় ধূ¤্রজালের সৃষ্টি করেছিল। তাদের অভিযোগ ছিল, পরামর্শক প্রতিষ্ঠান হিসেবে নিয়োগ পেতে কানাডার একটি কোম্পানি ঘুষ দিতে চেয়েছিল। এই অভিযোগে একজন মন্ত্রীকে সরিয়ে দিয়েও ক্ষান্ত হয়নি, একজন সচিব ও একজন তত্ত্বাবধায়ক প্রকৌশলীকে জেলেও যেতে হয়েছিল। কিন্তু বাংলাদেশের দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক) বিষয়টি দূ-দফা তদন্ত করে কোনো সত্যতা পাননি। যতদূর জানা যায়, বিষয়টি কানাডার বিজ্ঞ আদালত পর্যন্ত গড়িয়েছিল। অবশেষে কানাডার বিজ্ঞ আদালত অনেক পর্যালোচনার পর বিশ্বব্যাংকের অভিযোগকে অনুমান নির্ভর ও গুজব হিসেবে আখ্যায়িত করেছেন। ফলশ্রুতিতে অপেক্ষার প্রহর গুনতে হয় দীর্ঘ দুই বছর। এরপর কারো অর্থে নয়, সম্পূর্ণ নিজস্ব অর্থায়নেই আমরা পদ্মা সেতু করব এমন সাহসী ঘোষনা দেন বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। কিন্তু এতেও থেমে থাকেন নি ওই সকল অর্থনীতিবীদরা। এবার তারা নতুন করে বলেন, নিজস্ব অর্থায়নে পদ্মা সেতু বানাতে গেলে বাংলাদেশের বৈদেশিক মুদ্রার রিজার্ভ শেষ হয়ে যাবে। আমদানি বন্ধ হয়ে যাবে। দেশ মহাসংকটে পড়বে। অবশেষে এর কিছুই হয়নি। বরং বৈদেশিক মুদ্রার রিজার্ভ কয়েক গুণ বেড়ে ৪০ বিলিয়ন ডলার ছাড়িয়েছে। ২০২১ সালে মধ্যে সেতুটি উন্মুক্ত হলে, দক্ষিণ পশ্চিমাঞ্চলের ২৯টি জেলার মানুষের চলাচলের জন্যে বিশাল সুবিধা হবে। এখন প্রমত্তা পদ্মার বুকে নিরবচ্ছিন্নভাবে দৃশ্যমান হচ্ছে, প্রায় সোয়া ছয় কিলোমিটার দীর্ঘ এই সেতুটি। সেতুর স্টিলের অবকাঠামো পদ্মার দুই পাড়ের মানুষের মনে স্বপ্নের মেলবন্ধন ঘটিয়েছে। শুধু পদ্মা সেতু নয়, বর্তমান সরকারের গৃহীত আরো কিছু পদক্ষেপ দক্ষিণাঞ্চলের উন্নয়নকে ত্বরান্বিত করবে। তার মধ্যে রয়েছে, পায়রা সমুদ্রবন্দর, পটুয়াখালীতে বিদ্যুৎ হাব, রামপাল বিদ্যুৎ কেন্দ্রসহ আরো কিছু উন্নয়ন পরিকল্পনা। পায়রা বন্দর পর্যন্ত রেললাইন স্থাপনেরও পরিকল্পনা হচ্ছে। এতকিছুর পরও প্রধানমন্ত্রী দক্ষিণাঞ্চলের দ্রুত উন্নয়নে মাস্টারপ্লান তৈরির নির্দেশ দিয়েছেন। আমরা বিশ্বাস করি, দক্ষিণাঞ্চলের উন্নয়ন অবশ্যই দ্রুততর হবে এবং তা দেশের উন্নয়নকেই ত্বরান্বিত করবে। দেশের দক্ষিণ-পশ্চিমাঞ্চলের ২৯ জেলার সঙ্গে সারাদেশের সরাসরি সংযোগ স্থাপিত হওয়ার পথও এখন উন্মুক্ত হওয়ার পথে। আগামী বছরে মধ্যেই এই সেতু যান চলাচলের জন্য উন্মুক্ত করে দেয়া হবে বলে সম্প্রতি সাংবাদিকদের জানিয়েছেন, আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহণ ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের। এর আগে বাংলাদেশ ও চীনের পতাকায় সজ্জিত স্প্যানটি কুমারভোগ কনস্ট্রাকশন ইয়ার্ডের স্টক জেটি থেকে ক্রেনবাহী জাহাজ 'তিয়ান-ই'তে করে নেয়া হয় দুই পিলারের কাছে। ২০০১ সালের ৪ জুলাই পদ্মা সেতুর ভিত্তিপ্রস্থর স্থাপন করেছিলেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। এরপর প্রায় সাত বছর কাজ এগোয়নি। স্থান নির্ধারণের পর অর্থায়ন জটিলতায় যায় আরো পাঁচ বছর। কথিত দুর্নীতির অভিযোগে বিশ্বব্যাংক সরে যাওয়ার পর নিজস্ব অর্থায়নে ২০১৫ সালের ১২ ডিসেম্বর সেতু অবকাঠামো নির্মাণ শুরু হয়। ঠিক পাঁচ বছর পর সবকটি স্প্যান বসানোর মাধ্যমে ছয় দশমিক ১৫ কিলোমিটার দীর্ঘ স্বপ্নের পদ্মা সেতু পুরোপুরি দৃশ্যমান হলো। এই মাহেন্দ্রক্ষণ ঘিরে পদ্মা পাড়ে ছিল উৎসবের আমেজ। কেবল পদ্মার দুই তীরের বাসিন্দারা নন, ঢাকা থেকেও অনেকে আসেন সেতুর শেষ স্প্যানটি বসানোর কাজ নিজে চোখে দেখতে। নৌকা,  ট্রলার ও স্পিডবোট ভাড়া করে তারা নদীতে কাছাকাছি জায়গায় অবস্থান নেন। শেষ স্প্যানটি বসানো হয়ে গেলে সবাই একসাথে উল্লাস প্রকাশ করেন। পদ্মা সেতুকে ঘিরে আনন্দের হিল্লোল বইছে দেশের প্রতিটি মানুষের মনে। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার দক্ষ ও বিচক্ষণ নেতৃত্বে শত বাধা অতিক্রম করে স্বপ্নের সেই পদ্মা সেতু অবশেষে দৃশ্যমান হলো। বঙ্গবন্ধুকন্যা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সাহসী নেতৃত্বই এই অসম্ভবকে সম্ভব করে বিশ্বকে দেখিয়ে দিয়েছে- আমরাও পারি। বিশ্বকে অবাক করে দিয়ে নিজস্ব অর্থায়নে ৬.১৫ কিলোমিটার দীর্ঘ স্বপ্নের পদ্মা সেতুর সর্বশেষ স্প্যানটি বসিয়ে। শুধু তাই নয়, একই সঙ্গে রচিত হতে যাচ্ছে এক থেকে দেড় শতাংশ প্রবৃদ্ধি বাড়ার এবং দারিদ্র্যের হার দশমিক ৮৪ শতাংশ কমিয়ে আনার সুন্দরতম স্বপ্ন। এর মাধ্যমে দেশের উন্নয়নের পালে যে হাওয়া লাগবে, তাতে কোনো সন্দেহ নেই। বিশ্ব দেখলো বিজয়ের মাসে বাস্তবে রুপ পেল গৌরবের ও স্বপ্নের সেই পদ্মা সেতু। এ যেন মহান বিজয়ের মাসে আরেকটি বিজয়। বাংলাদেশের উন্নয়ণ ও অগ্রগতির পথে বঙ্গবন্ধুকন্যা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার যে যাত্রা তা আরো গতিময় করতে সবাইকে এগিয়ে আসতে হবে এবং এটাই হোক মহান বিজয়ের মাসের অঙ্গিকার। লেখকদ্বয়: প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি, সাধরণ সম্পাদক, প্রগতিশীল সংবাদপত্র পাঠক লেখক ফোরাম, কেন্দ্রিয় কমিটি।

 

সাবস্ক্রাইব ইউটিউব চ্যানেল


রিটেলেড নিউজ

চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশন নিয়ে সাবেক মেয়র মাহমুদুল ইসলাম চৌধুরীর সংবাদ সম্মেলন

চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশন নিয়ে সাবেক মেয়র মাহমুদুল ইসলাম চৌধুরীর সংবাদ সম্মেলন

newsgarden24.com

নিউজগার্ডেন ডেস্ক: চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশন নির্বাচন নিয়ে সাবেক মেয়র মাহমুদুল ইসলাম চৌধুরীর এক ... বিস্তারিত

মাওলানা শামছুদ্দীন (র:)’র মৃত্যুবার্ষিকী মঙ্গলবার

মাওলানা শামছুদ্দীন (র:)’র মৃত্যুবার্ষিকী মঙ্গলবার

newsgarden24.com

নিউজগার্ডেন ডেস্ক: কিংবদন্তি রাজনৈতিক নেতা মাওলানা মাওলানা শামছুদ্দীন (র:)’র ১১ তম মৃত্যুবার্ষি... বিস্তারিত

ভাষাসৈনিক  মরহুম বদিউল আলম চৌধুরী

ভাষাসৈনিক মরহুম বদিউল আলম চৌধুরী

newsgarden24.com

কানিজ কাউসার চৌধুরী: যাকে ক্ষমতা,মোহ,লোভ গ্রাস করতে পারেনি। নিজের অর্থ,সামর্থ্য দিয়ে দেশ, ও মানবতা... বিস্তারিত

কিং অফ জ্বালান গ্রুপ ওমান’র শীতবস্ত্র বিতরণ

কিং অফ জ্বালান গ্রুপ ওমান’র শীতবস্ত্র বিতরণ

newsgarden24.com

নিউজগার্ডেন ডেস্ক: চট্টগ্রাম জেলার সাতকানিয়া থানার খাগরিয়ায় এতিম ও হেফজ শিক্ষার্থীদের মাঝে শীতব... বিস্তারিত

জাফর আলম এমপির সাথে শিলখালী ইউনিয়ন কৃষক লীগ নেতৃবৃন্দের সৌজন্য সাক্ষাৎ

জাফর আলম এমপির সাথে শিলখালী ইউনিয়ন কৃষক লীগ নেতৃবৃন্দের সৌজন্য সাক্ষাৎ

newsgarden24.com

নিউজগার্ডেন ডেস্ক: কক্সবাজার-১ আসনের সংসদ সদস্য আলহাজ্ব জাফর আলম বিএ অনার্স এম এ এর সাথে শিলখালী ই... বিস্তারিত

মেয়র হলে অগ্রাধিকার ভিত্তিতে জলাবদ্ধতা নিরসন করবো: ডা: শাহাদাত হোসেন

মেয়র হলে অগ্রাধিকার ভিত্তিতে জলাবদ্ধতা নিরসন করবো: ডা: শাহাদাত হোসেন

newsgarden24.com

নিউজগার্ডেন ডেস্ক: চসিক নির্বাচনে বিএনপি মনোনীত মেয়র প্রার্থী ও নগর বিএনপির আহবায়ক ডাঃ শাহাদাত হ... বিস্তারিত

সর্বশেষ

৬৩২ কোটি ১৪ লাখ টাকা মওকুফ চান প্রশাসক সুজন

৬৩২ কোটি ১৪ লাখ টাকা মওকুফ চান প্রশাসক সুজন

newsgarden24.com

নিউজগার্ডেন ডেস্ক: চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশনের প্রশাসক আলহাজ্ব মোহাম্মদ খোরশেদ আলম সুজন সিটি কর... বিস্তারিত

‘পাঠকের ভালবাসায় সিক্ত দৈনিক সকালের সময় চট্টগ্রাম ব্যুরো’

‘পাঠকের ভালবাসায় সিক্ত দৈনিক সকালের সময় চট্টগ্রাম ব্যুরো’

newsgarden24.com

নিউজগার্ডেন ডেস্ক: দৈনিক সকালের সময় ৪র্থ বর্ষপূর্তি ৫ম বর্ষে পর্দাপন উপলক্ষে চট্টগ্রাম প্রেস ক্ল... বিস্তারিত

মডেল টাউন ও বিশেষ অর্থনৈতিক অঞ্চল হবে পতেঙ্গা-হালিশহর: রেজাউল করিম চৌধুরী

মডেল টাউন ও বিশেষ অর্থনৈতিক অঞ্চল হবে পতেঙ্গা-হালিশহর: রেজাউল করিম চৌধুরী

newsgarden24.com

নিউজগার্ডেন ডেস্ক: নগরীর উত্তর ও দক্ষিন পতেঙ্গাসহ দক্ষিন হালিশহর ওয়ার্ডের জনসাধারনকে সালাম ও শুভ... বিস্তারিত

চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশন নিয়ে সাবেক মেয়র মাহমুদুল ইসলাম চৌধুরীর সংবাদ সম্মেলন

চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশন নিয়ে সাবেক মেয়র মাহমুদুল ইসলাম চৌধুরীর সংবাদ সম্মেলন

newsgarden24.com

নিউজগার্ডেন ডেস্ক: চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশন নির্বাচন নিয়ে সাবেক মেয়র মাহমুদুল ইসলাম চৌধুরীর এক ... বিস্তারিত