চসিক শিক্ষকের বিরুদ্ধে ছাত্রী নির্যাতনের অভিযোগ, তদন্ত কমিটি গঠন

newsgarden24.com    ০৮:৩২ পিএম, ২০২০-১১-১৯    167


চসিক শিক্ষকের বিরুদ্ধে ছাত্রী নির্যাতনের অভিযোগ, তদন্ত কমিটি গঠন

নিউজগার্ডেন ডেস্ক: নবম দশম শ্রেণির ছাত্রীদের শারীরিক, মানসিক নির্যাতন, ক্লাসে উপস্থিত না থাকা, সহকর্মীদের সাথে খারাপ আচরণ সর্বশেষ স্কুলের দফতরীকে মেরে আহত করাসহ ১২ অভিযোগ জমা হয়েছে চসিক প্রধান শিক্ষা কর্মকর্তার কার্যালয়ে।
গত দুই বছর ধরে অভিযোগের পর অভিযোগ জমা হওয়ায় চলতি মাসে শাস্তি স্বরূপ তাকে অন্য বালিকা বিদ্যালয়ে বদলী করা হয়েছে। চসিকের উদ্যোগে গঠন করা  হয়েছে তিন সদস্যের তদন্ত কমিটি। কাপাসগোলা সিটি কর্পোরেশন কলেজের অধ্যক্ষ মনোয়ারা জাহান বেগমকে প্রধান করে গঠিত তদন্ত কমিটির অন্য দুই সদস্য হচ্ছেন পোস্তারপাড় আসমা খাতুন সিটি কর্পোরেশন কলেজের সহকারী অধ্যাপক রুপনা দাশ, সরাইপাড়া সিটি কর্পোরেশন কলেজের সহকারী অধ্যাপক এবিএম মাহাবুবুল হক।
এইসব অনিয়মের বিষয়ে চসিক প্রশাসক খোরশেদুল আলম সুজন বলেন, অভিযোগ পাওয়ায় উক্ত শিক্ষককে বদলী করা হয়েছে। তদন্ত কমিটির প্রতিবেদন পাওয়া সাপেক্ষে পরবর্তী ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।
চট্টগ্রাম কতোয়ালী থানাধীন কৃষ্ণকুমারী সিটি কর্পোরেশন উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রাক্তন সহকারী শিক্ষক তানসেন দেওয়ানজী। নিজের হাত অনেক লম্বা বলে সহকর্মী ও ছাত্রীদের মধ্যে খারাপ আচরণ করতেন হরহামেশা। যখন তখন ছাত্রীদের গায়ে হাত তুলেছেন। তার মারধর থেকে রেহায় পায়নি ৫৭ বছর বয়স্ক দপ্তরি।
নিজের প্রভাব খাটিয়ে গত ১০ বছর ধরে স্কুলের ১৩ শত ছাত্রীকে টিফিন সরবরাহকারী কমিটির আহবায়ক তিনি। গত দশ মাসের লক ডাউনে গনিত, পদার্থ বিজ্ঞানের শিক্ষক হওয়া সত্ত্বেও একদিনও স্কুলের অনলাইন প্লাটফর্মে ক্লাস নেননি।
স্কুলের ভুক্তভোগী ছাত্রী ও অভিভাবকরা জানান, কৃষ্ণ কুমারী উচ্চ বিদ্যালয়ের গনিত এবং পদার্থ বিজ্ঞানের শিক্ষক তানসেন দেওয়ানজী ঠিক মতো ক্লাস নিতেন না। স্কুলের অদূরে নিজ বাসায় ছাত্রীদের প্রাইভেট পড়তে বাধ্য করতেন। অনিয়মিত ক্লাসে এসে তার কাছে প্রাইভেট পড়তে না যাওয়া ছাত্রীদের শারিরীক ও মানসিক নির্যাতন করতেন।
৭ অক্টোবর ২০১৮ তারিখে স্কুলের প্রধান শিক্ষক বরাবরে লিখিত অভিযোগে একজন অভিভাবক জানান, নির্বাচনি পরীক্ষা গনিত বিষয়ে পরীক্ষার দিন তানসেন দেওয়ানজীর নির্দেশে প্রশান্ত কুমার নামে অপর শিক্ষক আমার মেয়েসহ ১১জন ছাত্রীর খাতা সোয়া একঘন্টা আটকে রাখে। অভিভাবক এই বিষয়ে কথা বলতে গেলে তাকে অপমান করে স্কুল থেকে বের করে দেয়া হয়। শিক্ষক অন্যায়ভাবে খাতা আটকে রাখা ও বাবাকে অপমান করায় সেই ছাত্রী মানসিক সমস্যাগ্রস্থ হয়ে পড়ে। যে কারণে সে পরবর্তী এসএসসি পরীক্ষায় খারাপ ফলাফল করে।
উক্ত স্কুলের দুইজন আয়া, একজন দপ্তরি তাদের শারীরিক নির্যাতন করে আহত করেছে মেয়র ও প্রধান শিক্ষক বরাবরে লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছেন। দপ্তরি ৫৭ বছর বয়সি মুক্তিযোদ্ধা সন্তান অজয় দাশ বলেন, চা নিয়ে তানসেন স্যারের কক্ষে গেলে অনুমতি না নেওয়ার অভিযোগে আমাকে কিল-ঘুষি ও লাথি মেরে মাটিতে ফেলে দেন। আমি আগে থেকে অসুস্থ। তানসেন দেওয়ানজীর আঘাতের কারণে এখন চলাফেরা করতে সমস্যা হয়।
কাপাসগোলা কলেজের অধ্যক্ষ মনোয়ারা জাহানকে প্রধান করে চসিক গঠিত তিন সদস্যের তদন্ত কমিটি গত মঙ্গলবার সকালে স্কুলে অভিযোগের তদন্ত করতে আসেন। ওই দিন সরেজমিন স্কুলে গিয়ে দেখা যায়, পাঁচজন ছাত্রী, তাদের অভিভাবক নিয়ে, চারজন অভিভাবক তানসেন দেওয়ানজীর বিরুদ্ধে দায়ের করা অভিযোগের সাক্ষী দিতে এসেছেন। নবম শ্রেণীর এক ছাত্রী জানান, স্যার পূর্ব থেকে আমাকে ওনার কাছে প্রাইভেট পড়তে বলতেন। আমি প্রাইভেট না পড়ায় একদিন ক্লাসে আমাকে চড় থাপ্পড় মারেন। ছাত্রীটির মা বলেন, আমরা কখনও মেয়েকে টোকা পর্যন্ত দি নাই। তানসেন মেয়েকে মারার পর সে মানসিক ভাবে বিপর্যস্ত। আমরা তদন্ত কমিটি কাছে এই অভিযোগের সাক্ষী দিতে এসেছি।
তদন্তের বিষয়ে অধ্যক্ষ মনোয়ারা জাহান বলেন, আমরা তদন্ত শুরু করেছি। অভিভাবক ছাত্রীরা এসেছেন সাক্ষী দিতে। তদন্তে যা পাওয়া যাবে তা চসিক প্রধান শিক্ষা কর্মকর্তা বরাবরে প্রদান করবো।
অভিযুক্ত শিক্ষক তানসেন দেওয়ানজী বলেন, আমি শিক্ষার স্বার্থে ছাত্রীদের শাসন করি। স্কুল থেকে নির্বাচিত করায় গত ১০ বছর টিফিন কমিটির আহবায়ক হিসাবে দায়িত্ব পালন করেছি।

 

সাবস্ক্রাইব ইউটিউব চ্যানেল


রিটেলেড নিউজ

স্থাপনা নির্মাণে বাঁধা দেয়ায় রাঙ্গুনিয়ায় তিন বনকর্মীকে পিঠিয়েছে শরণাংকরের অনুসারীরা

স্থাপনা নির্মাণে বাঁধা দেয়ায় রাঙ্গুনিয়ায় তিন বনকর্মীকে পিঠিয়েছে শরণাংকরের অনুসারীরা

newsgarden24.com

নিউজগার্ডেন ডেস্ক: চট্টগ্রামের রাঙ্গুনিয়া উপজেলার পদুয়া ইউনিয়নের ফলাহারিয়া এলাকায় শতাধিক একর ব... বিস্তারিত

 কাঞ্চনাবাদ উচ্চ বিদ্যালয় ‘সহপাঠী বন্ধু ফোরাম ৯৪’ ব্যাচের ক্যালেন্ডার বিতরণ

কাঞ্চনাবাদ উচ্চ বিদ্যালয় ‘সহপাঠী বন্ধু ফোরাম ৯৪’ ব্যাচের ক্যালেন্ডার বিতরণ

newsgarden24.com

নিউজগার্ডেন ডেস্ক: চট্টগ্রাম দক্ষিণ জেলার চন্দনাইশ উপজেলার ঐতিহ্যবাহী কাঞ্চনাবাদ উচ্চ বিদ্যালয়... বিস্তারিত

আজ সায়মা’র জন্ম দিন

আজ সায়মা’র জন্ম দিন

newsgarden24.com

 আজ সোমবার সাংবাদিক এমএম রাজামিয়া রাজু ও সাজেদা বেগম সাজুর আদরের ছোট মেয়ে নাসরিন সুলতানা সায়মা&rsqu... বিস্তারিত

চট্টগ্রাম বিএনপি উত্তর সাতকানিয়া ছয়টি ইউনিয়ন নিয়ে নতুন শাখা গঠন

চট্টগ্রাম বিএনপি উত্তর সাতকানিয়া ছয়টি ইউনিয়ন নিয়ে নতুন শাখা গঠন

newsgarden24.com

নিউজগার্ডেন ডেস্ক: চট্টগ্রাম সাতকানিয়া উপজেলা বাংলাদেশ জাতীয়বাদী দল সংসদীয় আসন ১৪ আংশিক নির্বাচ... বিস্তারিত

এক উকিল বিজ্ঞপ্তির আলোকে শুদ্ধি অভিযানের কাছে সুদৃষ্টি কামনা

এক উকিল বিজ্ঞপ্তির আলোকে শুদ্ধি অভিযানের কাছে সুদৃষ্টি কামনা

newsgarden24.com

নিউজগার্ডেন ডেস্ক: চট্টগ্রামের এক অনলাইন সংবাদমিডিয়ার মুক্তমত কলামের মধ্যে এক উকিল বিজ্ঞপ্তি হি... বিস্তারিত

লোহাগাড়ায় মহানগর ছাত্রদল নেতা হামিদ সংবর্ধিত

লোহাগাড়ায় মহানগর ছাত্রদল নেতা হামিদ সংবর্ধিত

newsgarden24.com

নিউজগার্ডেন ডেস্ক: উপজেলা ছাত্রদলের উদ্যোগে বটতলী মোটর স্টেশনে চট্টগ্রাম মহানগর ছাত্রদলের নবনি... বিস্তারিত

সর্বশেষ

পটিয়ায় ‘নিরাপদ অভিবাসন ও বিদেশ ফেরতদের পুনরেকত্রীকরণ’ কর্মশালা

পটিয়ায় ‘নিরাপদ অভিবাসন ও বিদেশ ফেরতদের পুনরেকত্রীকরণ’ কর্মশালা

newsgarden24.com

নিউজগার্ডেন ডেস্ক: ব্র্যাক মাইগ্রেশন প্রোগ্রামের উদ্যোগে ও রয়েল ড্যানিশ অ্যাম্বাসির অর্থায়নে &lsqu... বিস্তারিত

চট্টগ্রামকে স্বাস্থ্য সম্মত পর্যটন নগরী গড়তে পরিকল্পিত পদক্ষেপ নেব: ডা. শাহাদাত

চট্টগ্রামকে স্বাস্থ্য সম্মত পর্যটন নগরী গড়তে পরিকল্পিত পদক্ষেপ নেব: ডা. শাহাদাত

newsgarden24.com

নিউজগার্ডেন ডেস্ক: চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশন নির্বাচনে বিএনপির মেয়র প্রার্থী ডা. শাহাদাত হোসেন ব... বিস্তারিত

আল্লাহর উপর ভরসা রাখুন বিজয় আসবে: আল্লামা জুনাইদ বাবুনগরী

আল্লাহর উপর ভরসা রাখুন বিজয় আসবে: আল্লামা জুনাইদ বাবুনগরী

newsgarden24.com

মোঃ উসমান গনি, হাটহাজারী: যারা লা ইলাহা ইল্লাল্লাহ কে উৎখাত করতে চেয়েছে তারাই ধ্বংস হয়েছে উল্লেখ ক... বিস্তারিত

কিং অফ জ্বালান গ্রুপ ওমান’র শীতবস্ত্র বিতরণ

কিং অফ জ্বালান গ্রুপ ওমান’র শীতবস্ত্র বিতরণ

newsgarden24.com

নিউজগার্ডেন ডেস্ক: চট্টগ্রাম জেলার সাতকানিয়া থানার খাগরিয়ায় এতিম ও হেফজ শিক্ষার্থীদের মাঝে শীতব... বিস্তারিত