প্রস্থানের আগে

মীম ওসমান

কতদূর যেতে পারি আমরা
সামনে মাঠঘাট, তরুলতার হাতছানি
জীবন গিয়েছে জেনে বানীরনিকুঞ্জ
আজ সব কথা ফুরিয়ে গেছে
সুনসান সটান নীরব কান্না।
তবুও বোবা চোখে কথা থেকে যায়।
যে বুঝার সে বুঝে
যে শুনার সে শুনে
ধবল জোসনা এই পৃথিবীর মায়া
ছাড়তে জানেনা
বারে বারে ফিরে আসে নিশুতি রাতে।
এই জোসনা ধরে রাখার জন্য
দুগ্ধজাত শিশুকে ঘুমপাড়ানি গান শুনাতে
বেশরম নরের আগ্রাসী থাবা রুখে দেয়ার জন্য
প্রকৃতার্থে তোমাকে ভালবাসার জন্য
আসমানী, অভয়া, বিলাসী কিংবা রাজলক্ষীর চোখের পানি মুছে দেয়ার জন্য,
প্রস্থানের আগে উদ্যত হতে চাই
লড়াই ছাড়া আর কোন পথ খোলা নেই।
যে মাটির গন্ধ যোজন দূরত্ব থেকে
ফিরিয়ে আনে সবুজাভ প্রকৃতির কাছাকাছি।
আজ পাশাপাশি চলতে গিয়ে লড়তে চাই
ভালবাসার জন্য ভাল ভাষাও তো দরকার হে প্রিয়জন।
প্রস্থানের আগে আরেক বার মুখোমুখি হবো
শ্বাশ্বত প্রেমের।
যে দেশ,প্রকৃতি ও নারী প্রেমকে জিইয়ে রাখতে
আমি হাজার বছর পরের কোশেশ করছি
অবলীলায়।
শামুকচুন মুখে পুরেছি
লজ্জাবতী লতাকে নুইতে দিইনি
প্রস্থানের আগে আবার লড়তে চাই।
সঙ্গমের ভাষা ভুলে লড়াই শেখাতে চাই।
কতদূর আর যাবো
ঐ আসমানে সিতারা জ্বলজ্বল করে
আর মাটির নীচে অপেক্ষামান নতুন পৃথিবী।
আর মধ্যখানে তোমার আমার বেচেঁ থাকার লড়াই।

Leave a Reply

%d bloggers like this: