শিল্পীরা জাতীয় সম্পদ, তাদেরকে বাঁচিয়ে রাখতে হবে: ডাঃ শাহাদাত হোসেন

নিউজগার্ডেন ডেস্ক, ১১ জুন ২০১৮ ইংরেজী, সোমবার: চট্টগ্রাম মহানগর বিএনপির সভাপতি ও কেন্দ্রীয় বিএনপির সাবেক সাংগঠনিক সম্পাদক ডাঃ শাহাদাত হোসেন বলেছেন, শিল্পী কলা কুশলীরা তাদের সর্বোচ্চ চেষ্টার মাধ্যমে মানুষকে বিনোদন দিয়ে থাকে। শিল্পীরা ব্যক্তিগত জীবনের অনেক দু:খ দুদর্শা ও হতাশার কথা প্রকাশ করতে পারে না। শিল্পীরা তাদের মনের বেদনা গানের মাধ্যমে উজাড় করে দেয়। শিল্পীরা জাতীয় সম্পদ, তাদেরকে বাঁচিয়ে রাখতে হবে। তিনি আজ ১১ জুন সোমবার চট্টগ্রাম শিল্পী কল্যাণ সমিতির উদ্যোগে চট্টগ্রাম প্রেসক্লাবে ইফতার মাহফিল ও বস্ত্রবিতরণ অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে এ কথা বলেন। তিনি বিএনপির চেয়ারপার্সন েেবগম খালেদা জিয়াকে অন্যায়ভাবে কারাগরে বন্দি করে রাখা হয়েছে মন্তব্য করে বলেন, একটি মিথ্যা বানোয়াট মামলায় বেগম জিয়াকে কারাবন্দি রেখে এখন সরকার এবং কারা কর্তৃপক্ষ তার চিকিৎসা নিয়েও গড়িমসি করছে। গত ৫ জুন বেগম জিয়া কারাগারে মাইল্ড স্ট্রোক করে মাটিতে পড়ে যান। তিনি আগে থেকেই বিভিন্ন জটিল রোগে আক্রান্ত ছিলেন। বেগম জিয়া তিন বারের সাবেক প্রধানমন্ত্রী ও দেশের একজন সিনিয়র সিটিজেন হিসেবে সুচিকিৎসা পাওয়া তার নাগরিক অধিকার। অথচ সরকার তাদের অশুভ উদ্দেশ্যে বেগম জিয়াকে চিকিৎসা সেবা থেকে বঞ্চিত করে তাকে মৃত্যুর দিকে ঠেলে দিচ্ছে। তিনি অবিলম্বে বেগম জিয়ার মুক্তি দাবী করেন। অনুষ্ঠানের আহবায়ক চট্টগ্রাম শিল্পী কল্যাণ সমিতির নেতা মোহাম্মদ নুরুন্নবী চৌধুরীর সভাপতিত্বে, বিপ্লব ভট্টচার্য ও সোমা মুৎসুদ্দির সঞ্চালনায় বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন চট্টগ্রাম মহানগর জাতীয় পার্টির সিনিয়র সহসভাপতি তপন চক্রবর্তী, কোতোয়ালী থানা বিএনপির সভাপতি মনজুর রহমান চৌধুরী, চট্টগ্রাম শিল্পী কল্যাণ সমিতির সাবেক সভাপতি চন্দ্র নাথ বিশ্বাস চান্দু, পৃষ্ঠপোষক কাজী আবদুর সবুর, যুগ্ম আহবায়ক এ কে পিন্টু, সদস্য সচিব নুরুল ইসলাম, কণ্ঠ শিল্পী মায়া চৌধুরী, গীতা আচার্য্য, শরীফা ইয়াছমিন, নার্গিছ আকতার, দিলীপ হোড়, দেবাশীষ চৌধুরী, মিলন আচার্য্য, মানস পাল প্রমুখ। প্রতি বছরের ন্যায় ঈদ আসলে চট্টগ্রাম মহানগর বিএনপির সভাপতি ডা. শাহাদাত হোসেন শিল্পীদের মাঝে ঈদ বস্ত্র বিতরণ করে থাকেন এবং তাদের সাথে কুশলাদী বিনিময় করেন।

Leave a Reply