কক্সবাজার পৌরসভাকে তামাকমুক্ত মডেল পর্যটন শহর গড়ে তোলা হবে: মোস্তাক আহমদ

নিউজগার্ডেন ডেস্ক, ১৯ ফেব্র“য়ারী ২০১৮ সোমবার: ধূমপান ও তামাকজাতদ্রব্য ব্যবহার (নিয়ন্ত্রণ) আইন, ২০০৫ (সংশোধিত ২০১৩) এবং বিধিমালা ২০১৫ এর যথাযথ বাস্তবায়নের মাধ্যমে “কক্সবাজার পৌরসভাকে তামাকমুক্ত পর্যটন শহর হিসেবে” বাংলাদেশে মডেল পৌরসভা এবং বর্হিবিশ্বে হেলথি সিটি হিসেবে তোলে ধরার প্রয়াসে “তামাকমুক্ত কক্সবাজার শহর” শীর্ষক এক মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত হয়। দাতা সংস্থা ক্যাম্পেইন ফর টোব্যাকো প্যি কিড্স (সিটিএফকে) ও বাস্তবায়নকারী সংস্থা সমাজ উন্নয়ন সংঘটন ইপসা’র সহায়তায় কক্সবাজার দোকান মালিক সমিতি ফেডারেশন সমিতির কার্যালয় হল রুম এ উল্লেখিত মত বিনিময় সভার আয়োজন করে । এই মত বিনিময় সভায় উপস্থিত ছিলেন-মোস্তাক আহমদ, সভাপতি; আমিনুল ইসলাম, সিনিয়র সহ-সভাপতি; মোহাং মফিজুর রহমান, সেক্রেটারীসহ; কক্সবাজার দোকান মালিক সমিতি ফেডারেশনভুক্ত বিভিন্ন সমিতি সমুহের নেতৃবৃন্দ। এই সময় আরও উপস্থিত ছিলেন- খালেদা বেগম, টিম লিডার, ইপসা-সিভিক প্রকল্প; নাছিম বানু শ্যামলী, টীম লিডার, ইপসা-স্মো ফ্রি প্রকল্প; প্রকল্পের অন্যান্য কর্মকর্তাবৃন্দসহ অন্যান্যরা। মত বিনিময় সভায় তামাকমুক্ত কক্সবাজার শহর এর উপর পাওয়ার পয়েন্ট উপস্থাপন করেন- নাছিম বানু শ্যামলী, টীম লিডার, ইপসা-স্মো ফ্রি প্রকল্প। উল্লেখিত মত বিনিময় সভায় বক্তব্য রাখেন-মোহাং মফিজুর রহমান, আমিনুল ইসলাম এবং মোস্তাক আহমদ সহ আরও অনেকে। বক্তারা তামাকমুক্ত কক্সবাজার শহর উপর গুরুত্বারোপ করেন এবং সভার সম্মিলিত প্রয়াসে নিজ নিজ অবস্থান থেকে ফেডারেশ এর আওতাভুক্ত ধূমপান ও তামাকজাতদ্রব্য ব্যবহার (নিয়ন্ত্রণ) আইন, ২০০৫ (সংশোধিত ২০১৩) এবং বিধিমালা ২০১৫ ঘোষিত সকল পাবলিক প্লেস ধূমপানমুক্ত রাখার অঙ্গীকার ব্যক্ত করেন। পরিশেষে “তামাকমুক্ত কক্সবাজার-এ আমাদের অঙ্গীকার” এই শ্লোগানে তামাকমুক্ত কক্সবাজার শহর গড়ে তোলার একাত্বতা প্রকাশ করেন।

Leave a Reply