বেলহাসা ড্রাইভিং সেন্টারে গাড়ি চালানোর প্রশিক্ষণ নিচ্ছেন সুজানা

নিউজগার্ডেন ডেস্ক, ১৮ জানুয়ারী ২০১৮, বৃহস্পতিবার: সালমান খান, সাইফ আলি খান, প্যারিস হিল্টন এমনকী ফুটবলের কিংবদন্তী ম্যারাডোনার নামও সেখানে যুক্ত। আর সেখানেই নাম লেখাতে যাচ্ছেন বাংলাদেশি অভিনেত্রী ও মডেল সুজানা জাফর। এটি দুবাইভিত্তিক একটি ড্রাইভিং সেন্টার। যার নাম বেলহাসা ড্রাইভিং সেন্টার। এখানেই গাড়ি চালানোর প্রশিক্ষণ নিচ্ছেন সুজানা। সংযুক্ত আরব আমিরাত নয় গোটা বিশ্বে এই ড্রাইভিং সেন্টারের সুনাম রয়েছে। আর এই ড্রাইভিং ক্লাবের সদস্য হিসেবে রয়েছে বিশ্ববিখ্যাতরা। ভারতীয় ক্রিকেটের সাবেক অলরাউন্ডার রবিন সিং বেলহাসা ড্রাইভিং সেন্টারে
দেশেও তো ড্রাইভিং শেখা যায় তাহলে দুবাইতে কেন? এই প্রশ্নের জবাবে সুজানা বলেন, আমি আসলে আন্তর্জাতিকভাবে প্রচলিত পদ্ধতিতে ড্রাইভিং শিখছি। আমাদের দেশে রাইট হ্যান্ড ড্রাইভিং কিন্তু অন্যান্য দেশে লেফট হ্যান্ড করতে হয়। এখানে খুঁটিনাটি বিষয়সহ সুক্ষ্মভাবে শেখানে হয়।
সুজানা আরো বলেন, আমার আশিভাগ স্বজন দেশের বাইরে থাকে। তো আমাকে দেশের বাইরে অনেকটা সময় থাকতে হয়। কিন্তু ড্রাইভিং লাইসেন্স না থাকার কারণে অনেক সময় বাসায় বোরিং সময় পার করতে হয়। আর সুজানা বলেন, আন্তর্জাতিক নিয়মে ড্রাইভ করতে চাইলে অনেক কিছু মেনে চলতে হয়, সিস্টেমটাই আলাদা। এই যেমন বেলহাসা ড্রাইভিং সেন্টারে আমাকে ৪০ টি থিওরি ক্লাস শেষ করে আসতে হলো। ২৫০ টি প্রশ্নের উত্তর দিয়ে পরীক্ষা দিতে হয়েছে। এখন প্র্যাক্টিক্যাল ক্লাস শুরু হয়েছে। যেখানে ১০ টি ক্লাস করে গতকাল দেশে ফিরেছি। ফের গিয়ে টানা ক্লাস করতে হবে। বর্তমান সময়ের নিজের কাজের বিষয়ে সুজানা বলেন, আমি আসলে কাউকে ফাঁসিয়ে কাজ করতে চাই না। আমি অনেক কোয়ালিটি সম্পন্ন কাজ করি এটা সবাই জানে। এছাড়া রিলেশন মেন্টেন করে কাজ করার বিষয়টিও আমার মধ্যে নেই। সবাই জানে এটা। আমার হাতে যখন সময় থাকবে। তখন আমি কাজ করবো। এই যে এখন দেশে থাকবো এখন কাজ করবো। ভালো কাজের জন্য আমি দিনরাত পরিশ্রম করতে রাজি আছি।
উল্লেখ্য, টানা ২০ দিন সংযুক্ত আরব আমিরাতের বেল হাসা ড্রাইভিং সেন্টার থেকে প্রশিক্ষণ নিয়ে বুধবার ঢাকায় ফিরেছেন সুজানা। কিছুদিন পর ফের যাবেন। কেননা ড্রাইভিং ক্লাস বাকি আছে।

Leave a Reply