তাপমাত্রার তারতম্যের কারণে ঘরের মেঝে ঘামছে

নিউজগার্ডেন ডেস্ক, ২৫ এপ্রিল ২০১৭, মঙ্গলবার: রাজধানীতে মুষলধারে বৃষ্টি হওয়ার পর হঠাৎ করেই ঘেমে উঠেছে বিভিন্ন বাসাবাড়ির মেঝে। সোমবার রাত থেকেই এমনটা হচ্ছে। সকাল বেলা ঘুম থেকে মেঝেতে হাটতে গিয়ে দেখি মেঝে ভিজে। গভীর চিন্তার পড়ে গেলাম। এভাবে ফ্লর ভিজতে কখনও দেখিনি। মনে হচ্ছিল কিছুক্ষণ আগে কেউ যেন মেঝে মুছে দিয়ে গেছে। আমার মত নগরবাসীর অনেক জনের কাছে তা চিন্তার কারণ হয়ে দাঁড়িয়েছে।
মগবাজারের এক বাসিন্দা আল-আমিন আনাম বলেন, ঘুম থেকে উঠে দেখি ফ্লর ভিজে, সঙ্গে সঙ্গে ফ্যান ছেড়ে দিলাম। কিন্তু তারপরও দেখি ফ্লর শুকাচ্ছে না। এরপর কাজের বুয়াকে ডেকে ফ্লর মোছালাম। তারপরও দেখি একই অবস্থা।
এদিকে হঠাৎ মেঝে ঘামার বিষয়টি অস্বাভাবিক হলেও এতে আতঙ্কিত হওয়ার কিছু নেই বলে আবহাওয়া সংশ্লিষ্টরা জানিয়েছেন। এ বিষয়ে আবহাওয়া অধিদপ্তরের সাবেক পরিচালক শাহ আলম বলেন, সাগরে লঘুচাপের কারণে এমনটা হচ্ছে। এমনটা সাধারণত হয় না। এটি ব্যতিক্রম ঘটনা। তবে আতঙ্কের কিছু নেই।
তিনি আরো বলেন, এটি আজ অথবা কালকের মধ্যেই ঠিক হয়ে যাবে। আবহাওয়া পরিবর্তনের কারণেই এমনটা হচ্ছে।
আবহাওয়া অধিদপ্তরে দায়িত্বরত আবহাওয়াবিদ বজলুর রশিদ বলেন, হঠাৎ করে তাপমাত্রার তারতম্য দেখা দিচ্ছে। ফলে ঘরের ভেতর ও বাইরের তাপমাত্রায় পার্থক্য দেখা দেয়। এ কারণেই মেঝে ঘামছে।
তিনি আরো বলেন, যখন ঘরের ভেতর ও বাইরের তাপমাত্রা সমান হবে তখন মেঝে ঘামা বন্ধ হবে।
তিনি জানান, সকালে তাপমাত্রা ছিল ২০ ডিগ্রি সেলসিয়াস। বিকেলে সেই তাপমাত্রা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ৩৪. ৪ ডিগ্রি সেলসিয়াস। তাপমাত্রার বিরাট তারতম্যের কারণে ঘরের মেঝে ঘামছে।

Leave a Reply