চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশনের বই মেলা সমাপ্ত

নিউজগার্ডেন ডেস্ক, ২৮ ফেব্রুয়ারী ২০১৭, মঙ্গলবার: অমর একুশে ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস উদযাপন উপলক্ষে নগরীর মুসলিম ইনস্টিটিউট চত্বর জুড়ে চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশন আয়োজিত ১১ দিন ব্যাপি বই মেলার আজ ছিল সমাপনী দিবস। গত ১৮ ফেব্রুয়ারি সিটি মেয়র আলহাজ্ব আ জ ম নাছির উদ্দীন বই মেলার শুভ উদ্বোধন করেন। আজ ২৮ ফেব্রুয়ারি ২০১৭ খ্রি. বিকেল ৩.৩০ টা থেকে বই মেলায় সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান শুরু হয়। বিকেল ৪ টায় থেকে একুশ মঞ্চে অমর একুশ ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস উপলক্ষে আয়োজিত সাংস্কৃতিক ও রচনা প্রতিযোগিতায় বিজয়ীদের মাঝে পুরস্কার বিতরণ করা হয়। পুরস্কার বিতরণ ও অমর একুশের আলোচনা সভায় সভাপতিত্ব করেন চসিক স্বাস্থ্য ও শিক্ষা সংক্রান্ত স্থায়ী কমিটির সভাপতি ও ২৪ নং উত্তর আগ্রাবাদ ওয়ার্ড কাউন্সিলর নাজমুল হক ডিউক। অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশনের ভারপ্রাপ্ত মেয়র চৌধুরী হাসান মাহমুদ হাসনী। বিশেষ অতিথি ছিলেন সংরক্ষিত ওয়ার্ড কাউন্সিলর আবিদা আজাদ। স্বাগত বক্তব্য রাখেন চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশনের প্রধান শিক্ষা কর্মকর্তা মিসেস নাজিয়া শিরিন। মঞ্চে জনসংযোগ কর্মকর্তা মো. আবদুর রহিম ও শিক্ষা কর্মকর্তা মো. সাইফুর রহমান সহ অন্যান্য কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন। সিটি কর্পোরেশন আয়োজিত বই মেলায় অংশ গ্রহনকারী স্টল, প্রকাশনী সংস্থা, সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানে অংশগ্রহনকারী শিক্ষা প্রতিষ্ঠানকে পুরস্কার প্রদান করা হয়। পুরস্কার বিতরণ অনুষ্ঠানের প্রধান অতিথি চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশনের ভারপ্রাপ্ত মেয়র চৌধুরী হাসান মাহমুদ হাসনী সাংস্কৃতিক ও রচনা প্রতিযোগিতায় বিজয়ী ২৬০ জন সহ বই মেলায় অংশগ্রহণকারী প্রকাশনা সংস্থা বলাকা প্রকাশন প্রথম, শৈলী প্রকাশন দ্বিতীয় এবং শব্দ শিল্প প্রকাশন তৃতীয় এবং বিগত ১১ দিন যাবত বই মেলায় অনুষ্ঠিত সাংস্কৃতিক প্রতিযোগিতায় অংশগ্রহণকারীদের হাতে পুরষ্কার তুলে দেন। অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির ভাষনে ভারপ্রাপ্ত মেয়র বলেন, বই মেলার মধ্য দিয়ে পাঠকের সংখ্যা বৃদ্ধি পায়, প্রকাশনা শিল্প ও লেখক অনুপ্রাণিত হয়। ভারপ্রাপ্ত মেয়র বলেন, অমর একুশে বাঙালির চেতনাকে শাণিত করে, অন্যায়, অসত্য ও অসুন্দরের বিরুদ্ধে প্রতিবাদী হতে প্রেরণা দেয়। তিনি বলেন, বাংলা ভাষা কারোও দয়ার দান নয়। রক্তের বিনিময়ে অর্জিত হয়েছে ভাষার অধিকার। তিনি বাংলাদেশের ইতিহাস সঠিকভাবে উপস্থাপন করার জন্য সংশ্লিষ্ট সকলের প্রতি আহবান জানান। ভারপ্রাপ্ত মেয়র বলেন, সত্যকে মিথ্যা দিয়ে ঢাকা যায় না। সত্য ইতিহাস অবশ্যই উঠে আসবে। তিনি মহান ভাষা আন্দোলনের শিক্ষা থেকে সন্ত্রাস ও নৈরাজ্যমুক্ত বাংলাদেশ গড়ার প্রত্যয়ে অনুপ্রাণিত হওয়ার আহবান জানান।

Leave a Reply