অ্যাপারেল সামিট উদ্বোধন

নিউজগার্ডেন ডেস্ক, ২৫ ফেব্রুয়ারী ২০১৭, শনিবার: পোশাকশিল্পকে অর্থনৈতিক উন্নয়নের অন্যতম চালিকাশক্তি উল্লেখ করে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, আমাদের রপ্তানি আয়ের প্রায় ৮০ শতাংশই আসে এই খাত থেকে। পোশাকশিল্প খাতে প্রত্যক্ষভাবে প্রায় ৪০ লাখ শ্রমিকের কর্মসংস্থানের ব্যবস্থা হয়েছে। এরমধ্যে প্রায় ৮০ শতাংশই নারী। পরোক্ষভাবে প্রায় চার কোটিরও বেশি মানুষ এ শিল্পের উপর নির্ভরশীল।
শনিবার অ্যাপারেল সামিট উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে এসব কথা বলেন প্রধানমন্ত্রী। পোশাকশিল্পের টেকসই প্রবৃদ্ধি নিশ্চিত করতে দ্বিতীয় বারের মতো ঢাকা অ্যাপারেল সামিট-২০১৭ আয়োজন করেছে তৈরি পোশাকশিল্প মালিকদের সংগঠন বিজিএমইএ। সকালে রাজধানীর সোনারগাঁও হোটেলে সম্মেলনের উদ্বোধন করেন প্রধানমন্ত্রী। এবারের সম্মেলনের প্রতিপাদ্য হচ্ছে ‘টুগেদার ফর বেটার টুমরো’।
সামিটের দ্বিতীয় অধিবেশনে ‘ব্যবসায় নীতি ও পরিবেশ: উন্নত বাংলাদেশের পথে’, ‘টেকসই প্রবৃদ্ধির জন্য যৌথ ও দায়িত্বশীল উৎস’ এবং বাংলাদেশ পোশাকশিল্প: রূপান্তর ও অগ্রযাত্রা’—এই তিন বিষয়ে সেমিনার অনুষ্ঠিত হবে।
সেশনগুলোতে যেসব বিষয় অগ্রাধিকার পাবে তা হলো-শিল্পমুখী অর্থনৈতিক প্রবৃদ্ধি অর্জনের জন্য কনডাকটিভ বিজনেস, পরিবেশ ও নীতি, তৈরি পোশাকের সাপ্লাই চেইন টেকসই করার জন্য স্টেকহোল্ডারদের সমন্বিত উদ্যোগ ও টেকসই অর্থনীতির গুরুত্ব কতখানি, শিল্পের আধুনিকরণ কেন গুরুত্বপূর্ণ, পোশাক শিল্পের চ্যালেঞ্জ ইত্যাদি বিষয়।
সম্মেলনে উদ্যোক্তা, শ্রমিক প্রতিনিধি, নীতিনির্ধারক ছাড়াও পশ্চিমা বিশ্বের সুশীল সমাজের প্রতিনিধিরা অংশ নিয়েছেন।
উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে ছিলেন, অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত, বাণিজ্যমন্ত্রী তোফায়েল আহমেদ, শ্রম প্রতিমন্ত্রী মুজিবুল হক, পররাষ্ট্রমন্ত্রী আবুল হাসান মাহমুদ আলী, বিজিএমইএর সভাপতি মো. সিদ্দিকুর রহমান, সহ-সভাপতি (অর্থ) মোহাম্মাদ নাসির, বাংলাদেশ ইউরোপীয় ইউনিয়নের রাষ্ট্রদূত পিয়েরে মায়াদুন।

Leave a Reply