বিখ্যাত হয়ে গেলেন যুবরাজ সিংহের সাবেক স্ত্রী আকাঙ্খা শর্মা

নিউজগার্ডেন ডেস্ক, ৫ নভেম্ববর, শনিবার: ‘বিগ বস ১০’ থেকেই আপাত বিখ্যাত হয়ে গেলেন যুবরাজ সিংহের সাবেক স্ত্রী আকাঙ্খা শর্মা। ওই রিয়ালিটি শো-তে থাকাকালীন কখনো তিনি বিতর্কিত মন্তব্য করেছেন যুবরাজের পরিবারকে নিয়ে। আবার শো থেকে এলিমিনেট হয়ে যাওয়ার পর কখনো বা যুবরাজের মা শবনম মানহানির মামলা করার ইঙ্গিত দিয়েছেন আকাঙ্খার বিরুদ্ধে। তবে শবনমের বিরুদ্ধে সবচেয়ে বিস্ফোরক অভিযোগ এতদিনে ঝুলি থেকে বের করলেন আকাঙ্খা। তাঁর দাবি, যুবরাজের দাদা জোরওয়ারের সঙ্গে যৌন সম্পর্ক তৈরি করার জন্য চাপ দিতেন শবনম। খুব তাড়াতাড়ি তাদের সন্তান হোক তেমনটাই নাকি চেয়েছিলেন তিনি।1
আকাঙ্খার কথায়, “আমার কাছে বিষয়টা খুব অস্বস্তির ছিল। জোরওয়ার আর আমার কোনও মানসিক বা শারীরিক যোগাযোগ ছিল না। কারণ ওর দিক থেকে কোনও ইন্টারেস্ট ছিল না। আর সবচেয়ে সমস্যা তৈরি করতেন জোরওয়ারের মা শবনম। আমরা কোথাও বেরোলেই উনি আমাদের সঙ্গে জুড়ে যেতেন। তারপর বলতেন, হাত ধরো, চুমু খাও। এ ভাবে হয় নাকি! যৌন সম্পর্ক তৈরি করাটা আমার একার দায়িত্ব তো ছিল না। আমরা তো এমন কোনোসমাজে বাস করছি না যেখানে বিয়ে মানেই বাধ্যতামূলক যৌন সম্পর্ক! তা হলে তো দেহব্যবসা আর ইচ্ছের বিরুদ্ধে যৌন সম্পর্কের মধ্যে কোনও পার্থক্য থাকে না। আমি জোরওয়ারের সঙ্গে বন্ধুর মতো মেশার চেষ্টা করতাম। কিন্তু আমাদের মধ্যে যা কথা হত ও গিয়ে ওর মাকে বলে দিত। বাধ্য হয়ে বিয়ের মাত্র চার মাসের মধ্যে ওই বাড়ি ছাড়তে আমি বাধ্য হয়েছিলাম।”
আকাঙ্খা আগেই জানিয়েছিলেন, বিয়ের পর পরই সন্তানের জন্য চাপ এসেছিল শ্বশুরবাড়ি থেকে। অত্যাচারও নাকি হয়েছিল তাঁর ওপর। এর প্রেক্ষিতে যুবরাজের মা শবনম বলেন, ‘‘শুধু যে খারাপ খেলেছে বলে আকাঙ্খা বাদ পড়েছে এমন নয়। ও সকলের সামনে ন্যাশনাল হিরো যুবরাজ সিংহের পরিবারকে অসম্মান করেছে। সকলে জানেন আমার ছেলে দেশকে কী কী দিয়েছে। ও হয়তো ভেবেছিল যুবরাজের জনপ্রিয়তা ভাঙিয়ে নাম করবে। এটাই সাধারণ মানুষ পছন্দ করেননি। আমরা ওর ওই সব কথার বিরুদ্ধে আইনি ব্যবস্থা নেব।’’
কিন্তু আকাঙ্খার এই নয়া অভিযোগ সামনে আসার পর যুবরাজের পরিবার নিয়েই প্রশ্ন উঠছে নানা মহলে। বলি মহলের অনেকেরই প্রশ্ন, আকাঙ্খার সঙ্গে কিছু তো ঘটেছে বটেই, না হলে এত অভিযোগ কীসের ভিত্তিতে করছেন তিনি?

Leave a Reply