টি-টোয়েন্টি ক্রিকেটে মুশফিকুর রহিমের ব্যাট থেকে চার-ছক্কার ফুলঝুরি হত

নিউজগার্ডেন ডেস্ক, ৪ নভেম্ববর, শুক্রবার: একটা সময় টি-টোয়েন্টি ক্রিকেটে মুশফিকুর রহিমের ব্যাট থেকে চার-ছক্কার ফুলঝুরি হত। অনেক দিন হলো সেই আগ্রাসী মেজাজের ব্যাটিংটা দেখছেন না মুশফিক ভক্তরা। কিন্তু এবার বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগের (বিপিএল) বরিশাল বুলসের হয়ে নিজের আগের রূপটা দেখাতে চান মুশফিক।1
শনিবার দিনের প্রথম খেলায় চিটাগাং ভাইকিংসের বিপক্ষে মাঠে নামার আগে শুক্রবার সাংবাদিকদের সঙ্গে কথা বলেছেন বুলস দলনেতা মুশফিকুর রহিম।
‘মানুষের আপ অ্যান্ড ডাউন থাকতেই পারে। আর টি-টোয়েন্টি সংস্করণ মোটেও সহজ নয়। এতো শর্ট ভার্সন যে অনেক সময় দেখা যায় সময় নেওয়ার সুযোগ থাকে না। মারতে গিয়ে বা দলের কারণে খেলতে গিয়ে আউট হওয়ার সুযোগ থাকে। সেদিক থেকে বলবো আমি অনেক অখুশি ছিলাম আমার পারফরম্যান্সে তারপরও আমি মানুষ। আমি অনেক কঠিন পরিশ্রম করছি, চেষ্টা করছি আমার আগের যে স্বরূপ সেটা এই বিপিএলে ফিরে আসতে। দল যে কারণে আমাকে নিয়েছে সেটার প্রতিদান যেন দিতে পারি।’
বরিশাল বুলসকে অনেক দূর নিয়ে যেতে চান মুশফিক। ‘যদিও মানুষ রেকর্ডের জন্য খেলেনা, তবে সত্যি বলতে কি আমি যত বেশি রান করবো দলের অবশ্যই উপকারে আসবে। আমার নিজের কিছু গোল আছে, চেষ্টা করবো এ বছর যেন ভালো খেলতে পারি এবং বরিশাল বুলসকে যেন অল দ্যা ওয়ে নিয়ে যেতে পারি।
দল নিয়ে খুশি মুশফিক, তবে ক্রিকেটাররা নামের প্রতি সুবিচার করতে পারলেই ভালো ফল আসবে বলে মনে করছেন মুশফিক। ‘আমার টিম ওয়েলব্যাল্যান্সড। আপনি দেখেন তাইজুল, মনির ভাই, মেহেদী বিদেশি দিলশান মুনাবিরা আছে। তিন চার জন যারা আছে তারা ওয়ার্ল্ডক্লাস। টি-টোয়েন্টি ক্রিকেট অনেকে বলে পেস বোলারদের গেম, কিন্তু রেকর্ড ঘেঁটে দেখেন স্পিনারদের কিন্তু ইকোনমি অনেক কম, এবং তারাই কিন্তু ভাইটাল হয়ে যায়। আমাদের সংগ্রহ অনেক ভালো। যেটা বললাম নামের সুবিচার করতে পারলে আমাদের পক্ষেই ফলাফল আসবে।’

Leave a Reply