কায়সার, মান্নান, দানু’র স্মরণসভায় সিটি মেয়র আ.জ.ম নাছির উদ্দিন

নিউজগার্ডেন ডেস্ক, ১ নভেম্ববর, মঙ্গলবার: চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশনের মেয়র ও মহানগর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আ.জ.ম নাছির উদ্দীন বলেছেন, কায়সার-মান্নান-দানু রাজনীতি ও cc-mayor-photoসাহিত্যে অনন্য ব্যক্তিত্ব। তাঁরা রাজনীতিকে অর্থ বিত্তের মাধ্যম হিসেবে ব্যবহার করেন নি, এই তিনজন আমাদের আদর্শিক পূর্বসূরী। গতকাল মঙ্গলবার বিকেলে থিয়েটার ইনষ্টিটিউট চট্টগ্রাম মিলনায়তনে বঙ্গবন্ধু সাংস্কৃতিক জোট চট্টগ্রাম জেলা আয়োজিত প্রণম্য তিন সূর্যসারথী প্রয়াত আতাউর রহমান খান কায়সার, এম এ মান্নান ও কাজী ইনামুল হক দানুকে নিবেদিত স্মরণানুষ্ঠানে প্রধান অতিথির ভাষণে একথা বলেন। তিনি আরো বলেন, এই তিনজন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার অত্যন্ত কাছের মানুষ। মহান মুক্তিযুদ্ধে তাঁদের অতুলনীয় ভূমিকা ইতিহাসের পাতায় লেখা আছে। তাঁদেরকে স্মরণের মধ্য দিয়ে বঙ্গবন্ধু তনয়া প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার উন্নয়নের অগ্রযাত্রায় আমাদেরকে একান্নবর্ত্তী পরিবারের মত ঐক্যবদ্ধ থেকে প্রতিকূলতাকে জয় করতে হবে। মুখ্য আলোচকের ভাষণে চট্টগ্রাম মহানগর আওয়ামী লীগের সহ সভাপতি মাহাতাব উদ্দিন চৌধুরী বলেন, কায়সার-মান্নান-দানুভাই তিন জনই কাব্যসত্তায় নিবেদিত। আমি তাঁদের সৃষ্টিকে জানি। একজন রাজনৈতিক নেতা যদি কাব্য-সাহিত্য-শিল্পে অনুরাগী হন তবে দেশের মঙ্গল। এই মঙ্গল রচনা করেছেন বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান। তাঁর ৭ মার্চের ভাষণ একটি মহাকাব্য। বিশেষ অতিথির ভাষণে প্রবীণ রাজনীতিবিদ ও বীর মুক্তিযোদ্ধা আলহাজ্ব নঈম উদ্দিন চৌধুরী বলেছেন, কায়সার-মান্নান-দানু ভাই রাজনৈতিক, কবি ও সমাজ দর্শনের মিশ্র ব্যক্তিত্ব। প্রয়াত এই তিন ব্যক্তিত্ব পরিশুদ্ধ রাজনীতির প্রতীক। তাদের জীবনাদর্শকে ধারণ করে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে বঙ্গবন্ধু সোনার বাংলা বাস্তবায়নে আমাদেরকে সামনের দিকে এগিয়ে যেতে হবে। দৈনিক বীর চট্টগ্রাম মঞ্চের সম্পাদক সৈয়দ উমর ফারুক বলেছেন প্রয়াত এই তিন নেতা মেধার দীপ্তি। তাঁরা অসংকোচে রাজনৈতিক কর্মীকে বুকে জড়িয়ে ধরেছিলেন। এ জন্য তাঁরা তৃণমূল পর্যায়ের কর্মীদের কাছে বরণীয়। কায়সার-মান্নান-দানু আমাদের সকলের জন্য আদর্শিক শিক্ষনীয় দৃষ্টান্ত। প্রণম্য তিন সূর্যসারথী স্মরণানুষ্ঠান অয়োজক বঙ্গবন্ধু সাংস্কৃতিক জোট চট্টগ্রাম জেলা উপ কমিটির আহ্বায়ক চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশনের কাউন্সিলর হাসান মুরাদ বিপ্লব এর সভাপতিত্বে সমন্বয়ক কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগের সাবেক সহ-সম্পাদক ইয়াসির আরাফাতের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠিত স্মরণানুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্য রাখেন সদস্য সচিব সুমন দেবনাথ, বঙ্গবন্ধু সাংস্কৃতিক জোট চট্টগ্রাম জেলার সাধারণ সম্পাদক খোরশেদ আলম, বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন প্রয়াত এনামুল হক দানু’র স্ত্রী শামসুন নাহার, সাংবাদিক প্রদীপ খাস্তগীর, কেন্দ্রীয় যুবলীগের সাবেক সদস্য রায়হান ইউসুফ, আবদুল মান্নান ফেরদৌস, কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগের সাবেক সদস্য পুলক খাস্তগীর, নগর যুবলীগের সদস্য লিটন রায় চৌধুরী, কাজী রাজেশ ইমরান, তানভীর আহমেদ রিংকু, জাহাঙ্গীর আলম, কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগের সাবেক সম্পাদক ফয়সাল বাপ্পী, নগর ছাত্রলীগ নেতা বোরহান উদ্দিন গিফারী, মোস্তফা কামাল, সংস্কৃতিকর্মী কবি সজল দাশ, মাহমুদ আবদুর রহিম প্রমুখ। প্রণম্য তিন সূর্যসারথীকে স্মরণে বরণে অন্তরে ধারণ করার লক্ষ্যে ৬ জন ৭১ এর রণাঙ্গনের বীর মুক্তিযোদ্ধাকে সম্মাননা স্মারক তুলে দেন প্রধান অতিথি চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশনের মেয়র আ.জ.ম নাছির উদ্দিন। মুক্তিযোদ্ধারা হলেন, সাবেক মন্ত্রী জননেতা মরহুম জহুর আহমদ চৌধুরীর সুযোগ্য সন্তান মাহাতাব উদ্দিন চৌধুরী, মুক্তিযোদ্ধা নঈম উদ্দিন চৌধুরী, মুক্তিযোদ্ধা এ টি এম নুরুল আমিন চৌধুরী, ব্যাংকিং সেক্টরে মো: আবদুল হক, পাহাড়তলী থানা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক প্রয়াত শেখ জমির আহমেদ (মরণোত্তর), আইনপেশায় এডভোকেট মহররম মিয়া (মরণোত্তর), চিকিৎসা সেবায় ডা: আবদুস সত্তার (মরণোত্তর), সমাজসেবায় প্রকৌশলী বিজয় কিষাণ চৌধুরী।

Leave a Reply