খুব শীঘ্রই অস্ট্রেলিয়া দলের বাংলাদেশে আসার সম্ভাবনা নেই

নিউজগার্ডেন ডেস্ক, ১৩ অক্টোবর : দুই ম্যাচের টেস্ট সিরিজ খেলতে গত মাসের শেষ দিকে বাংলাদেশে আসার কথা ছিল অস্ট্রেলিয়া ক্রিকেট দলের। কিন্তু নিরাপত্তার অজুহাত দেখিয়ে তারা সফর বাতিল করে। এরপর অস্ট্রেলিয়ার সফরে আসা না আসা নিয়ে শুরু হয় নানা আলোচনা-সমালোচনা।as খুব শীঘ্রই বাংলাদেশে আসছে অস্ট্রেলিয়া, গতকাল এমন আশার বাণী শোনা গিয়েছিল বিসিবির প্রধান নির্বাহী নিজামউদ্দিন চৌধুরী সুজনের কাছ থেকে। সামনের সুবিধাজনক কোনো সময় অস্ট্রেলিয়া বাংলাদেশ সফরে আসবে বলে বিসিবিকে আশ্বস্ত করেছিল ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়া। এমনটিই জানিয়েছিলেন সুজন। দুবাইয়ে আইসিসির প্রধান কার্যালয়ে চলমান সভায় মিলিত হয়েছেন বিভিন্ন দেশের ক্রিকেট বোর্ডের কর্তা ব্যক্তিরা। সেখানেই সদ্য স্থগিত ঘোষিত বাংলাদেশ সফর নিয়ে আশা প্রকাশ করেছেন অস্ট্রেলিয়ান ক্রিকেট বোর্ড। আসলেই কি বাংলাদেশে আসছে অস্ট্রেলিয়া। নাকি বিষয়টি শুভংকরের ফাঁকি! বাস্তবে শিডিউল দেখলে মনে হয় বিষয়টি অনেকটা শুভংকরের ফাঁকির মতোই। অন্তত শিডিউল তো তাই বলে। কারণ শিডিউল দেখলে মনে হয় খুব শীঘ্রই অস্ট্রেলিয়া দলের বাংলাদেশে আসার সম্ভাবনা নেই। ২০১৭ সালের জুলাই মাস ছাড়া বাংলাদেশের জন্য দুই টেস্টের তিন সপ্তাহের একটি সফরের সূচি বের করা অস্ট্রেলিয়ার জন্য খুবই কঠিন। কারণ আগামী পাঁচ মাস টানা ক্রিকেটে ঠাসা অস্ট্রেলিয়ার ক্রিকেট সূচি। বর্তমান এফটিপির দিকে তাকালে আগামী এপ্রিলের আগে বাংলাদেশে আসার সম্ভাবনা নেই অসিদের। আবার এপ্রিলে আইপিএলের পরবর্তী আসর। এপ্রিল-মে চলবে আইপিএল, যেখানে অস্ট্রেলিয়ার সব তারকাই খেলেন। জুন-জুলাই-আগস্ট এই তিন মাসে ওয়েস্ট ইন্ডিজে একটি ত্রিদেশীয় সিরিজ এবং শ্রীলঙ্কায় পূর্ণাঙ্গ সফর আছে ক্যাঙারুদের। এর মধ্যে দুটো টেস্ট খেলার জন্য কমপক্ষে তিন সপ্তাহের জায়গা বের করে নিতে না পারলে আগামী সেপ্টেম্বরের আগে অস্ট্রেলিয়ার বাংলাদেশ সফরের সম্ভাবনা খুবই কম। সেপ্টেম্বরে আবার কোনো দেশের জন্যই এফটিপিতে কোনো ম্যাচ রাখা হয়নি। অস্ট্রেলিয়ার জন্য ২০১৬-এর অক্টোবর থেকে ২০১৭-এর মার্চ পর্যন্ত আবারও ঠাসা সূচি। সেই সূচি শেষ হতে না হতেই ২০১৭-এর আইপিএল (এপ্রিল-মে) শুরু হয়ে যাবে। ২০১৭-এর জুনে আইসিসি চ্যাম্পিয়নস ট্রফি। ২০১৭ সালের জুলাই মাসটাই ফাঁকা আছে অস্ট্রেলিয়ার। আগস্টে বাংলাদেশকেই তাদের দুই টেস্ট আর তিন ওয়ানডের জন্য আতিথেয়তা দেওয়ার কথা। গতকাল আইসিসির সভাতে শীঘ্রই বাংলাদেশে খেলতে চাওয়ার ইচ্ছা তাই অস্ট্রেলিয়ার সৌজন্য প্রকাশ বলেই মনে হচ্ছে। যদিও সেই খবরে আশাবাদী হয়ে উঠেছে বাংলাদেশের ক্রীড়াঙ্গন। এ নিয়ে বিভিন্ন সংবাদমাধ্যমে খবরও প্রকাশিত হয়েছে। কিন্তু আইসিসির এফটিপির দিকে তাকালেই বোঝা যাচ্ছে, অস্ট্রেলিয়ার এই শীঘ্রই বাস্তবে রূপ নেয়ার সম্ভাবনা নেই। সূত্র : শীর্ষ নিউজ

Leave a Reply