চট্টগ্রাম জেলা প্রশাসকের কাছে নেপাল দের আকুতি

চট্টগ্রাম জেলার বোয়ালখালী উপজেলাধীন শ্রীপুর গ্রামের বৈদ্যবাড়ীর বাসিন্দা মৃত উপেন্দ্র দে প্রকাশ কালু বৈদ্যের পুত্র এবং সেন গোষ্ঠীর স্বত্ব তথা স্বার্থ রক্ষার জন্য দায়ের করা Dc officeবিভিন্ন মামলার বাদীপক্ষের নেপাল দে এক আনরেজিস্টার্ড সেবায়েত নামার পক্ষে আইনসিদ্ধতার মাধ্যমে স্বার্থাধিকার সংজ্ঞাভূক্ত থাকার বিভিন্ন যোগ্যতা বা যৌক্তিকতা উল্লেখ রেখে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার এটু আই প্রকল্প অর্থাৎ ডিজিটাল প্রকল্পের নিয়ন্ত্রণের অধীনে পরিচালিত হওয়া চট্টগ্রাম জেলা প্রশাসকের তথ্যসেবা প্রদানকারী কেন্দ্রে আবেদনপত্র জমা দিয়েছেন। জানা যায়, ১২/০৪/১৯৬১ ইং সনের এক আনরেজিস্টার্ড অর্থাৎ অনিবন্ধিত সেবায়েত নামা প্রদানকারী রাজ বিহারী সেন ও তার স্ত্রী প্রীতিলতা সেনের কাছ থেকে অধিকার পেয়ে ওই মামলার বাদীপক্ষ নেপাল দেসহ অন্যান্য বাদীপক্ষরা সংশ্লিষ্ট সেবায়েত নামাভূক্ত হিন্দু ধর্মীয় এক দেব বিগ্রহের সেবা করার মধ্য দিয়ে সেন গংদের সম্পত্তিতে যথাসাধ্য অধিকার ভোগ করছেন ও দায়িত্ব পালন করছেন। এ ধরনের স্বার্থ রক্ষা করার কারণে সেন গংদের সম্পত্তিতে স্বার্থাধিকার সংজ্ঞাসূত্রে উত্তরাধিকারী হয়ে থাকা ওই বৈদ্যবাড়ীর সংশ্লিষ্ট বাসিন্দারা পরবর্তীতে সেনগংদের স্বার্থ রক্ষা করার জন্য বিভিন্ন পরিস্থিতির কারণে বাদীপক্ষ হয়ে চট্টগ্রাম যুগ্ম জেলা ও দায়রা জজ ২য় আদালতে অপর আপীল ২৯৭/২০০৯ ইং নং, অতিরিক্ত জেলা ও দায়রা জজ ২য় আদালতে অপর আপীল ৩৮০/২০১০ ইং নং, অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে মিছ ১৯০১/২০১১ ইং নং এবং জেলা আদালত ও অর্পিত সম্পত্তি প্রত্যর্পণ ট্রাইব্যুনাল আদালত থেকে পটিয়া অর্পিত সম্পত্তি প্রত্যর্পণ অতিরিক্ত ট্রাইব্যুনাল ও যুগ্ম জেলা জজ আদালতে ১৯৪ ক্রমিক নম্বরে স্থানান্তরিত হওয়া ক গেজেট ১০৮৪৯/২০১২ ইং নং মামলা অর্থাৎ এ ০৪ (চার)-টি মামলা দায়ের করেছিলেন বলেও জানা যায়। এদিকে আনরেজিষ্টার্ড সেবায়েত নামাটিকে যদি কখনও এবং কোথাও An unregistered Sabayet Nama is not a Valid transfer deed  বা document হিসেবে অর্থাৎ এক মূল্যহীন দলিল হিসেবে বলা হয়ে থাকে, তথাপি এ দেব বিগ্রহটি পুলিশ রিপোর্টে, মাইনোরিটি (সংখ্যালঘু) বোর্ড বা আদালতের রায়ে, ভিডিও ক্যাসেটে ও পত্রিকার সংবাদে অর্থাৎ ইত্যাদি বিভিন্ন ধরনের আইনের মধ্যে স্থান বা স্বীকৃতি বা সিদ্ধতা পাওয়ার কারণে An unregistered Sabayet Nama is a Valid transfer deed বা document হিসেবে অর্থাৎ ওই কথিত মূল্যহীন সেবায়েত নামাটি এক অনাপত্তিমূলক মূল্যবান দলিল হিসেবে পরিচয় বহন করছে বলে বাদী পক্ষের নেপাল দে আশাবাদ প্রকাশ করেছেন। এসব তথ্য, উপাত্ত ও যোগ্যতা বা যৌক্তিতা ওই ০৪ (চার)-টি মামলার বাদী পক্ষের আর্জিতে তথা সংশ্লিষ্ট নথিগুলোতে স্বার্থাধিকারের সংজ্ঞায় অন্তর্ভূক্ত হওয়ার আশায় নেপাল দে চট্টগ্রাম জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ মেজবাহ উদ্দিনের ওই ডিজিটাল কেন্দ্রে এক আবেদন পত্র 1040014110920150014 (www.chittagong.gov.bd) নং ওয়েবসাইট বরাবর ০৯/১১/২০১৪ ইং তারিখে জমা দিয়েছেন বলে http:// www.chittagong.gov.bd/node/1274085  নং সূত্রে জানা গেছে। এ জমা দেয়া আবেদন পত্রের করা নিস্পত্তির কোনো ফলাফল পত্র পাওয়ার আশায় নেপাল দে ওই একই ডিজিটাল কেন্দ্রে এক আবেদন পত্র 104001501082015004 (www.chittagong.gov.bd) নং ওয়েবসাইট বরাবর ০৮/০১/২০১৫ ইং তারিখে জমা দেয়ার পর এ গৃহীত আবেদনপত্রটি চট্টগ্রাম জেলা প্রশাসকের আইসিটি শাখার অফিস সহকারী কাম কম্পিউটার মুদ্রাক্ষরিক হিসেবে বিপ্লব পালের কাছে অবস্থান করছে বলেও ০৩/০২/২০১৫ ইংরেজী তারিখের বিকাল ০৭ টা ৩৬ মিনিট ০১ সেকেন্ডযুক্ত http:// www.chittagong.gov.bd/node/127408  নং সূত্রে জানা গেছে।

Leave a Reply