২০ দলীয় জোটের ডাকা সকাল-সন্ধ্যা হরতাল চলছে

নিউজগার্ডেন ডেস্ক : ২০ দলীয় জোটের ডাকা সকাল-সন্ধ্যা হরতাল চলছে। ভোর হওয়ার আগেই হরতালের আগুনে প্রাণ হারিয়েছেন ঘুমন্ত এক বাসচালক। রাজধানীর ভেতরে মোটামুটি যানচলাচল করতে দেখা গেছে। তবে ছেড়ে যায়নি দূরপাল্লার বাস। বিএনপি চেয়ারপারসনের পররাষ্ট্র বিষয়ক উপদেষ্টা রিয়াজ রহমানের ওপর হামলার প্রতিবাদে অবরোধের 79564_Hartal-009-250x250মধ্যেও ২০ দলীয় জোট এ হরতাল পালন করছে। এদিকে সকাল ৬টায় হরতাল শুরুর আগেই সমর্থকরা রাজধানীর খিলগাঁওয়ে একটি ট্রাক ও প্রাইভেটকার পুড়িয়েছে। রাজধানী ছাড়াও দেশের বিভিন্ন স্থানে গাড়ি পোড়ানোর খবর পাওয়া গেছে। এদিকে হরতালের সমর্থনে আজ সকাল সাতটায় রাজধানীর শান্তিনগর ও পুরান ঢাকার বদরুন্নেসা মহিলা কলেজের সামনে মিছিল করেছে বিএনপি নেতা-কর্মীরা। এ সময় আতঙ্ক সৃষ্টি করতে মিছিল থেকে তারা বেশ কয়েকটি ককটেল বিস্ফোরণ ঘটায়।  ঘটনাস্থলে গিয়ে পুলিশ ধাওয়া দিলে সটকে পড়ে মিছিলকারীরা। তবে ককটেলে কারো আহত হওয়ার খবর পাওয়া যায়নি। এদিকে পুরান ঢাকার বদরুন্নেসা কলেজের সামনে বেশ কয়েকটি ককটেল বিস্ফোরণ ঘটিয়েছে হরতাল সমর্থকরা। সকালে ওই এলাকায় আকস্মিকভাবে হরতালের সমর্থনে একটি ঝটিকা মিছিল বের করা হয়। মিছিলকারীরা পরপর তিনটি ককটেলের বিস্ফোরণ ঘটায়। চকবাজার থানার ডিউটি অফিসার উপ-পরিদর্শক জানান, থানায় এ ধরনের খবর আসেনি। তবে মোবাইল টিমে দায়িত্বরতরা বিষয়টি দেখছেন। অপরদিকে, গুলশানে সিএনজি অটোরিকশায় আগুন দেওয়ার সময় এক ব্যক্তিকে আটক করা হয়েছে বলে জানান থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা। তিনি বলেন, একটি সিএনজি অটোরিকশায় আগুন দেওয়ার চেষ্টা করছিলো পিকেটাররা। এসময় ধাওয়া দিয়ে সেখান থেকে একজনকে আটক করা হয়। ট্রাক ও প্রাইভেটকার পোড়ানো ছাড়া বৃহস্পতিবার সকাল ৯টা পর্যন্ত রাজধানীর কোথাও হরতাল সমর্থনকারীদের খুব একটা উপস্থিতি লক্ষ্য করা যায়নি। ভোর থেকেই খালেদা জিয়ার রাজনৈতিক কার্যালয়ের সামনে আইন-শৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্যদের ব্যাপক উপস্থিতি লক্ষ্য করা গেছে। তার বাসার গেটের তালা খোলা থাকলেও ৮৬ নম্বর সড়কটি পুলিশ ভ্যান ও জলকামানের গাড়ি দিয়ে ব্লক করে রাখা হয়েছে।

Leave a Reply

%d bloggers like this: