সাতকানিয়ায় ২’পক্ষের মধ্যে সংঘর্ষ

সাতকানিয়া প্রতিনিধি, ২৫ জানুয়ারী ২০১৭, বুধবার: সাতকানিয়া উপজেলার কালিয়াইশ ইউনিয়নে দুই পক্ষের মধ্যে সংঘর্ষের ঘটনা ঘটেছে। তাদের ইন্ধনে রয়েছে বয়োবৃদ্ধ কিংবা প্রৌঢ়’রা। জানা যায় এলাকার কতিপয় যুবকের মধ্যে অভ্যন্তরীণ বিষয় নিয়ে গত রবিবার দুপুরে রাজ মহলের একটি বিয়ের অনুষ্ঠানে এক পক্ষ অপর পক্ষের তারেককে মারধর করে। এর জের ধরে গত সোমবার সকালে আলী আহমদ প্রাণহরি উচ্চবিদ্যালয় সংলগ্ন চায়ের দোকানে উক্ত দুইপক্ষের মধ্যে আবার মারামারির ঘটনা ঘটে। এসময় দোকানের চেয়ার টেবিল ভাংচুর করা হয়। এতে সাইফুল নামে এক যুবক আহত হয়। তারা চুল কাটা নিয়ে ঘটনা দাবি করলে ও মূলত মহিলা সংক্রান্ত বলে জানা গেছে। সূত্রমতে বখাটেদের কয়েক বন্ধু আলী আহমদ প্রাণহরি উচ্চবিদ্যালয়ে লেখাপড়া করে। সে সুবাদে তারা চায়ের দোকান ও স্কুল গেইটে আড্ডা দেয়। মেয়েরা স্কুলে আসা যাওয়ার পথে তারা উক্ত্যত্ত করে। এক পক্ষ এর প্রতিবাদ করে। এসব ঘটনা নিয়ে তাদের মধ্যে দ্বন্দ্ব বলে সূত্রে প্রকাশ। কিন্তু তাদের নেপথ্যে রয়েছে নব্য ও পুরাতন আওয়ামীলীগ। তারেককের পক্ষে রয়েছে কালিয়াইশ ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সেক্রেটারী মাষ্টার মহি উদ্দিন। অপর পক্ষে নেতৃত্বে দেয় চেয়ারম্যান হাফেজ আহমদ। এলাকায় আধিপত্য বিস্তার নিয়ে তাদের বলির পিঠা হতে যাচ্ছে যুবকেরা। তাদের লেলিয়ে দেয়া অছাত্রের অপকর্মের কারণে ধ্বংস হতে যাচ্ছে ছাত্রছাত্রীদের শিক্ষা জীবন। ইতিপূর্বে ও উক্ত এলাকায় একছাত্রীকে উক্ত্যত্ত ও মোবাইলে ছবি তোলার ঘটনা নিয়ে সংঘর্ষ হয়। উভয় ঘটনা নিয়ে দুই পক্ষ থানায় অভিযোগ দাখিল করে। এলাকার নেতা নামধারীরা ঘটনা সমাধানের নামে আরো উস্কে দেয় বলে অভিযোগ উঠেছে। এছাড়া এক পক্ষ অপরকে জামায়াত শিবির রাজাকার বলে দাবি করে। এদিকে ব্যবসায়ী মনা পাতিনেতা ও বখাটেদের বিরুদ্ধে শাস্তিমূলক ব্যবস্থা নেয়ার জন্য এলাকার জনসাধারণ সংশ্লিষ্ট বিভাগের নিকট দাবি জানিয়েছে।

Leave a Reply

%d bloggers like this: