শিবির নেতার মামলায় ছাত্রলীগের কেন্দ্রীয় নেতা কারাগারে, মুক্তি চেয়ে আল্টিমেটাম

নিউজগার্ডেন ডেস্ক, ১৩ মার্চ ২০১৯ ইংরেজী, বুধবার: বাংলাদেশ ছাত্রলীগের সাবেক কেন্দ্রীয় সদস্য চট্টগ্রাম কলেজ ছাত্রসংসদ নেতা ফরমান আহমদ জনি’র মুক্তির দাবি জানিয়েছে সরকারি চট্টগ্রাম কলেজ ও হাজী মুহাম্মদ মহসিন কলেজ ছাত্রলীগ। চট্টগ্রাম কলেজ ছাত্রলীগ প্রতিনিধি মোক্তার হোসেন রাজু ও হাজী মুহাম্মদ মহসিন কলেজ ছাত্রলীগ প্রতিনিধি এয়ার খান সুমন স্বাক্ষরিত এক যুক্ত বিবৃতিতে এই দাবি জানানো হয়। নেতৃবৃন্দ বলেন, বিগত দিনে শিবিরের হাতে নির্যাতন, হামলা ও হত্যার শিকার হয়েছে অসংখ্য ছাত্রলীগ নেতাকর্মী। চট্টগ্রাম কলেজ ও মহসিন কলেজ শিবিরমুক্ত করতে অসংখ্য ত্যাগ ও সাহসী ভূমিকা ছিল এই ছাত্রনেতার। প্রতিহিংসার নোংরা রাজনীতির শিকার হয়ে আজ ছাত্রনেতা জনি কারাগারে, যা খুবই দুঃখজনক! লক্ষ্য করবেন, গ্রেপ্তার দেখানো মামলার এজাহারে কোথাও জনি কিংবা অজ্ঞাতনামা কোন আসামীর কথা উল্লেখ ছিল না, তবুও পুলিশ অন্যায় ভাবে এহেন কর্মকাণ্ডে প্রবাহিত হয়েছেন। আরো লজ্জার বিষয়, মামলার বাদী ইসলামি ছাত্রশিবিরের একজন শীর্ষ নেতা। ২০০৫-০৬ সালে হাজী মুহাম্মদ মহসিন কলেজে ছাত্রশিবিরের একটি ক্লাস কমিটির সভাপতি ও পরবর্তীতে নগর পর্যায়ে সক্রিয় রাজনীতিতে যুক্ত ছিলেন। তৎকালীন মহসিন কলেজ শাখায় ছাত্রশিবির সভাপতি ছিলেন ইব্রাহীম চৌধুরী। বাদীর ফেইসবুকে ঘুরে দেখা যায় সরকার বিরোধী নানা স্ট্যাটাস। মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা’কে নিয়েও জঘন্য কটুক্তি করে স্ট্যাটাস আছে তার আইডিতে। অবিলম্বে সাজানো মিথ্যা মামলা থেকে অব্যাহতি ও মুক্তি দিয়ে ফরমান আহমদ জনিকে রাজপথে ফিরিয়ে দেয়ার জোর দাবি জানানো হয়। অন্যথায়, লাগাতার আন্দোলনের মধ্যমে মুক্ত করা হবে জানায় ছাত্রলীগ। এদিকে, তাদের গ্রেপ্তার নিয়ে বিভিন্ন গণমাধ্যমে মনগড়া ও ভিত্তিহীন সংবাদ প্রকাশের তীব্র প্রতিবাদ জানানো হয়। ছাত্রলীগ নেতৃবৃন্দ আহবান করেন, অনুসন্ধান পূর্বক তলের বিড়াল বের করে আনুন। ছাত্রসমাজ মিডিয়াকে সাধুবাদ জানাবে।

Leave a Reply

%d bloggers like this: