লো ফ্যাট ডায়েটে ওজন কমে না

নিউজগার্ডেন ডেস্ক, ২ নভেম্বর: ওজন কমানোর কৌশল তো জারি রয়েছে তবু কোনো ফায়দা হচ্ছে না। আট মাস হতে চলল ওজন তো এখনও যেই কে সেই। আমরা মনে করি লো ফ্যাট ফুড খেলেই কমবে ওজন। গবেষকরা কিন্তু জানাচ্ছেন, আদপেও ওজন কমায় না লো ফ্যাট এই সব খাবার। হোল মিল্কের বদলে ডায়েটে নিচ্ছেন লো ফ্যাট দুধ, চিনির জায়গায় সুগার ফ্রি। কখনও কুকিজ, পেস্ট্রি খেতে ইচ্ছে হলেও প্যাকেজের গায়ে লো ফ্যাট ট্যাগ দেখে তবেই কিনছেন। তবে লাভ হচ্ছে কি কিছু? লো ফুড খাবার খান .low fatএমন ৬৮ হাজার প্রাপ্তবয়স্কের ওপর সমীক্ষা চালিয়ে ছিলেন হার্ভার্ড ইউনিভার্সিটির গবেষক দেইদ্রে তোবিয়াস। তিনি জানান, লো ফ্যাট ফুড খেলে ওজন কমে এমন কোনও প্রমাণ তিনি পাননি। লো ফ্যাট ডায়েট স্বাস্থ্যকর খাবার খাওয়ার প্রবণতা কমায়। ফলে রক্তে ট্রাইগ্লিসারাইডের মাত্রা বাড়ে। কমে এইচডিএল কোলেস্টেরলের মাত্রা। এই কোলেস্টেরল কিন্তু শরীরের জন্য উপকারী। ডায়েটে থাকলেও কিছু খাবার কখনই তালিকা থেকে পুরোপুরি বাদ দেওয়া উচিত নয়। যেমন- মাংস: অতিরিক্ত মাংস খাওয়া উচিত না হলেও ডায়েট থেকে একেবারে ছেঁটে ফেলাও ঠিক নয়। ওমেগা থ্রি ফ্যাটি অ্যাসিড, ভিটামিন, খনিজ, কারনোসিন ও ক্রিয়াটিনের মতো প্রয়োজনীয় জিনিস রয়েছে মাংসে। ডিম: ডিমের মতো স্বাস্থ্যকর খাবার খুব কম আছে। ভিটামিন ও খনিজ ছাড়াও কোলিন, অ্যান্টিঅক্সিড্যান্ট চোখের জন্য অত্যন্ত উপকারী। হাই ফ্যাট দুগ্ধজাত খাবার: ভিটামিন কে টু ও ক্যালসিয়ামের ভান্ডার দুগ্ধজাত খাবার। নারকেল: ডায়েটে থাকতে অনেকেই নারকেলের মিষ্টি বা নারকেল খাদ্য তালিকা থেকে বাদ দেন। নারকেলের মধ্যে থাকা ফ্যাট কিন্তু ওজন কমাতে সাহায্য করে। মস্তিষ্ককে সতেজ রাখতে পারে নারকেল। সূত্র: ঢাকাটাইমস ডেস্ক

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*