রাজন হত্যা মামলা: প্রধান আসামি কামরুলসহ ৪ জনের মৃত্যুদণ্ড

নিউজগার্ডেন ডেস্ক, ৮ নভেম্বর: সিলেট সদর উপজেলার কুমারগাঁওয়ে নির্মম নির্যাতন করে ১৩ বছরের শিশু শেখ সামিউল আলম রাজন হত্যা মামলার প্রধান আসামি কামরুল ইসলমাসহ চারজনের মৃত্যুদণ্ডের আদেশ দিয়েছেন আদালত।hqdefault
মৃত্যুদণ্ডপ্রাপ্ত বাকি ৩ জন হচ্ছে- সাদিক আহমদ ময়না ওরফে বড় ময়না ওরফে ময়না চৌকিদার (৪৫), শেখপাড়া তাজউদ্দিন আহমদ ওরফে বাদল (২৮) ও মো. জাকির হোসেন পাভেল ওরফে রাজু (১৮)। মৃত্যুদণ্ডপ্রাপ্তদের মধ্যে পাভেল পলাতক রয়েছে।
এদিকে আলোচিত এই হত্যা মামলায় ভিডিওচিত্র ধারণকারী নূর আহমদ ওরফে নূর মিয়াকে (২০) যাবজ্জীবন কারাদণ্ড দিয়েছেন আদালত।
এছাড়া প্রধান হোতা কামরুল ইসলামের মেজো ভাই মুহিদ আলম (৩২), বড়ভাই আলী হায়দার ওরফে আলী (৩৪) ও ছোটভাই শামীম আলমকে ৭ বছরের কারাদণ্ড দিয়েছেন আদালত। একইসাথে তাদের ১০ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়েছে। অনাদায়ে আরো ২ মাসের সশ্রম কারাদন্ড দিয়েছেন আদালত।
এছাড়া মামলায় ফিরোজ আলী, আজমত উল্লাহ ও রুহুল আমিনকে খালাস প্রদান করা হয়েছে। রোববার দুপুর পৌনে ১২টায় সিলেট মহানগর দায়রা জজ আদালতের বিচারক আকবর হোসেন মৃধা এ রায় দেন।
উল্লেখ্য, গত ৮ জুলাই সিলেট নগরীর কুমারগাঁওয়ে শিশু সামিউল আলম রাজনকে নির্মমভাবে নির্যাতন করে হত্যা করা হয়। নির্যাতনের ভিডিওচিত্র ছড়িয়ে পড়লে দেশ-বিদেশে ব্যাপক সমালোচনার ঝড় ওঠে। প্রতিবাদে বিস্ফোরিত হয়ে ওঠে গোটা দেশ। গত ২৭ অক্টোবর সিলেট মহানগর দায়রা জজ আদালতের বিচারক আকবর হোসেন মৃধা এই রায়ের তারিখ নির্ধারণ করেন। রাজন হত্যাকান্ডের ৪ মাসের মাথায় ঘোষিত হচ্ছে রায়।
এদিকে মৃত্যুদণ্ডপ্রাপ্তদের দ্রুত ফাঁসির কার্যকরের দাবি জানিয়েছেন রাজনের বাবা শেখ আজিজুর রহমান। তিনি বলেন- আমি চেয়েছিলাম সকল আসামির ফাঁসির রায় হোক কিন্তু আমার সে চাওয়া পূর্ণতা পায়নি। তবে যাদের মৃত্যুদণ্ডের রায় দেওয়া হয়েছে তাদের ফাঁসির দ্রুত কার্যকর দেখতে চাই। সূত্র: শীর্ষ নিউজ

Leave a Reply

%d bloggers like this: