রাজধানীর পুরান ঢাকায় কোনো ধরনের দাহ্য পদার্থের গুদাম রাখা যাবে না: শেখ হাসিনা

নিউজগার্ডেন ডেস্ক, ৭ মার্চ ২০১৯ ইংরেজী, বৃহস্পতিবার: রাজধানীর পুরান ঢাকায় কোনো ধরনের দাহ্য পদার্থের কারখানা ও গুদাম রাখা যাবে না বলে সাফ জানিয়ে দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। এক্ষেত্রে কোনো বাধা মানা হবে না বলেও জানান তিনি। নবনির্বাচিত কাউন্সিলরদের শপথ গ্রহণ অনুষ্ঠানে এ কথা বলেন তিনি। গত ২০ ফেব্রুয়ারি পুরান ঢাকার চকবাজারের চুড়িহাট্টার অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা ঘটে। চুড়িহাট্টার ৬৪ নম্বর হাজি ওয়াহেদ ম্যানশনে রাসায়নিক থেকে ভয়াবহ অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা ঘটে। আগুনে ৭১ জনের প্রাণহানি ঘটে। প্রাথমিক তদন্তে আগুনের কারণ হিসেবে রাসায়নিককে দায়ী করা হচ্ছে। ভয়াবহ ওই অগ্নিকাণ্ডে ৭১ জনের প্রাণহাণির পর পুরান ঢাকা থেকে সব রাসায়নিকের গুদাম সরাতে সময় বেঁধে দেয় সরকার। এরপর চকবাজার, বকশিবাজারসহ বিভিন্ন এলাকার বাড়ি বাড়ি অভিযান চালাচ্ছে সিটি করপোরেশনের টাস্কফোর্স। চুড়িহাট্টার অগ্নিকাণ্ডের কথা উল্লেখ করে প্রধানমন্ত্রী বলেন, ‘কিছু দিন আগে যে আগুনটা লাগলো, এটা অত্যন্ত দুঃখজনক। এখানে এই ধরনের দাহ্য পদার্থ থাকতে পারবে না। তার জন্য আলাদা জায়গা আমরা খুঁজে দিচ্ছি। তাদের ব্যবসা আমরা নষ্ট করতে চাই না। কিন্তু যেখানে বসতি সেখানে গোডাউন রাখতে পারবে না।’ ‘এখানে তারা তাদের শো রুম রাখতে পারবে। যে পণ্য উৎপাদন করে তা বিক্রি করতে পারবে। কিন্তু গুদামের জন্য আমরা সম্পূর্ণ আলাদা জায়গা করে দেবো। যেখানে দাহ্য পদার্থ থাকা নিরাপদ।’ প্রধানমন্ত্রী বলেন, একবার নিমতলী হয়ে গেল, এখন এতোবড় ঘটনা। কতোগুলো মানুষের জীবন চলে গেল, কাজেই এখানে যে বাধাই আসুক, কোনো বাধাই আমরা মানবো না। আমরা এটাকে (দাহ্য পদার্থের গুদাম) সরিয়ে নিয়ে যাবো। শপথ অনুষ্ঠানে নতুন মেয়র ও কাউন্সিলরদের অভিনন্দন ও শুভেচ্ছা জানিয়ে শেখ হাসিনা বলেন, ‘জনগণের ভোটে নির্বাচিত হয়ে আপনারা তাদের প্রতিনিধি হিসেবে দায়িত্ব পেয়েছেন। আমি আশা করব, আপনাদের সেই দায়িত্ব, কর্তব্য শপথ অনুযায়ী পালন করবেন এবং মানুষের কল্যাণে কাজ করবেন।’ ঐতিহ্যবাহী’ ঢাকা মহানগরীকে দৃষ্টিনন্দন ও সার্বক্ষণিক পরিষ্কার পরিচ্ছন্ন রাখারও নির্দেশ দেন সরকারপ্রধান। এর আগে ডিএনসিসির নতুন মেয়র আতিকুল ইসলামকে শপথবাক্য পাঠ করান প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। পরে কাউন্সিলরদের শপথ বাক্য পাঠ করান স্থানীয় সরকার মন্ত্রী মো. তাজুল ইসলাম।

Leave a Reply

%d bloggers like this: