যুক্তরাষ্ট্র বাংলাদেশের বিদ্যুৎ ও জ্বালানি খাতে সম্ভাবনা দেখছে

নিউজগার্ডেন ডেস্ক, ১০ ফেব্রুয়ারী ২০১৯ ইংরেজী, রবিবার: বাংলাদেশের বিদ্যুৎ ও জ্বালানি খাতে অপার সম্ভাবনা দেখছে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র। সেজন্য দেশটি বিদ্যুৎ ও জ্বালানি খাতে বিনিয়োগ বাড়াতে আগ্রহী বলে জানিয়েছেন বিদ্যুৎ, জ্বালানি ও খনিজ সম্পদ প্রতিমন্ত্রী নসরুল হামিদ বিপু। আজ রবিবার বিদ্যুৎ ভবনে বাংলাদেশ সফররত যুক্তরাষ্ট্রের দক্ষিণ ও মধ্য এশিয়াবিষয়ক ডেপুটি অ্যাসিস্ট্যান্ট সেক্রেটারি থমাস ভাজদা, ঢাকায় নিযুক্ত মার্কিন রাষ্ট্রদূত আর্ল রবার্ট মিলারসহ আট সদস্যের প্রতিনিধিদলের সঙ্গে বৈঠকের পর বিদ্যুৎ প্রতিমন্ত্রী সাংবাদিকদের এ তথ্য জানান।
প্রতিমন্ত্রী বলেন, ‘বাংলাদেশে যুক্তরাষ্ট্রের বিনিয়োগ কীভাবে আরও বাড়ানো যায় সে বিষয়ে বৈঠকে আলোচনা হয়। তারা খুব আগ্রহী জ্বালানি খাতে বিনিয়োগের ব্যাপারে। বৈঠকে সামনের দিনে দুই দেশ কীভাবে আরও ঘনিষ্ঠভাবে কাজ করতে পারে সে বিষয়ে আলোচনা হয়েছে।’ এ সময় যুক্তরাষ্ট্রের ব্যবসায়ীদের বাংলাদেশে বিনিয়োগের পরিবেশ সম্পর্কে জানাতে একটি সফরের পরিকল্পনার কথাও জানান প্রতিমন্ত্রী। বৈঠকের বিষয় জানতে চাইলে মার্কিন রাষ্ট্রদূত মিলার বলেন, ‘বাংলাদেশ দক্ষিণ এশিয়ার মধ্যে গুরুত্বপূর্ণ ভৌগোলিক অবস্থানে রয়েছে। যুক্তরাষ্ট্র বিনিয়োগের ক্ষেত্রে বাংলাদেশকে দক্ষিণ এশিয়ার সবচেয়ে সম্ভাব্য দেশ হিসেবে বিবেচনা করছে।’ রাষ্ট্রদূত বলেন, ‘অর্থনৈতিক সমৃদ্ধির সঙ্গে গণতান্ত্রিক প্রক্রিয়া অব্যাহত থাকা জরুরি। বাংলাদেশ শ্রমনিরাপত্তার জন্য উল্লেখযোগ্য কাজ করেছে। আমরা মনে করছি বাংলাদেশের বিদ্যুৎ ও জ্বালানি খাতে আরও বিনিয়োগ করতে পারি।’ যুক্তরাষ্ট্রের দক্ষিণ ও মধ্য এশিয়াবিষয়ক উপ-সহকারী থমাস বলেন, ‘মুক্ত ও অবাধ বিনিয়োগ অঞ্চল হিসেবে বাংলাদেশ যুক্তরাষ্ট্রের কাছে বিশেষভাবে গুরুত্বপূর্ণ। গণতন্ত্র ও সুশাসনের কথা মাথায় রেখে জ্বালানি খাতে আমরা বিশেষভাবে আগ্রহী। বাংলাদেশে যুক্তরাষ্ট্র নতুন বিনিয়োগ করতে চায়।’

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*