মেয়েকে স্বামীর বাড়িতে নিয়ে যাওয়ার সময় সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত হলেন বাবা-মা

নিউজগার্ডেন ডেস্ক : মেয়েকে স্বামীর বাড়িতে পৌঁছে দিতে গিয়ে সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত হলেন, বাবা-মা। গৃহবধু মনিকা মির্জা এক দিন আগেই তার বাপের বাড়ি গিয়ে ছিলেন। তার বাবা চল্লিশ দিনের চিল্লায় যাবেন। তাই তিনি বাবার সাথে দেখা করতে গিয়েছিল। unnamedবৃহস্পতিবার দুপুরে ময়মনসিংহ-কিশোরগঞ্জ মহাসড়কের ঈশ্বরগঞ্জের পৌরসভা ভবনের সামনে ট্রাক-প্রাইভেট কারের মুখোমুখি সংঘর্ষে এ ঘটনা ঘটে। নিহতরা হলেন, আরশাদ আলী মির্জা (৬০) ও তার স্ত্রী মালেকা মির্জা (৫৫)। টাঙ্গাইল জেলার ঘাটাইলের পোড়াবাড়ি এলাকায় তাদের বাড়ি। আর এ ঘটনায় তাদের মেয়ে মনিকা মির্জা (৩০), প্রাইভেট কার চালক মঞ্জু মিয়া ও চালকের বন্ধু শাহীন গুরুতর আহত হয়েছেন। ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে তাদেরকে ভর্তি করা হয়েছে। গৃহবধু মনিকার দেবর জানায়, সামনের সপ্তাহে তার ভাইয়ের শ্বশুর আরশাদ আলী মির্জার চল্লিশ দিনের জন্য চিল্লায় যাওয়ার কথা ছিল। এজন্য তার ভাবি বাবার সাথে দেখা করতে গিয়েছিল। বৃহস্পতিবার আরশাদ মির্জা ও তার স্ত্রী তার মেয়েকে স্বামীর বাড়ি ঈশ্বরগঞ্জের তেরচাটি গ্রামে নিয়ে আসতে যাচ্ছিলেন। এসময় দুর্ঘটনার শিকার হন। প্রত্যক্ষদর্শীরা জানায়, ময়মনসিংহ থেকে ঈশ্বরগঞ্জগামী প্রাইভেট কারটি পৌরসভা কার্যালয়ের সামনে আসার পর বিপরীত দিক থেকে আসা মালবাহি একটি ট্রাকের সাথে মুখোমুখি সংঘর্ষের ঘটনায় এ হতাহত হয়। ঈশ্বরগঞ্জ থানার ওসি মো. বোরহান উদ্দিন জানান, দুর্ঘটনায় প্রাইভেটকারে থাকা আরশাদ আলী মির্জা (৬০) ঘটনাস্থলেই নিহত হন। গুরুতর আহত মালেকা মির্জাকে (৫৫) ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হলে সেখানে মারা যান তিনি। ময়নাতদন্তের জন্য তাদের লাশ মর্গে পাঠানো হয়েছে বলে জানান তিনি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*