মিসরে আরব বসন্তের চতুর্থ বার্ষিকীতে নিহত ৭

নিউজগার্ডেন ডেস্ক : আজ সেই ঐতিহাসিক ২৫ জানুয়ারি। ২০১১ সালের এই দিনে রচিত হয় আরব বসন্তের বিখ্যাত ইতিহাস। আজ আরব বসন্তের চতুর্থ বার্ষিকী উৎযাপন করতে গিয়েegypt_66494 মিসরের বিভিন্ন জেলায় এ পর্যন্ত ৭ জন নিহত এবং ২০ জন আহত হয়েছে বলে দাবি করেছে মুসলিম ব্রাদারহুড। নিহতদের মধ্যে ‘শায়মা’ নামের একজন মেয়েও রয়েছে। নিহতদের মধ্যে : গিজায় ২ জন, মাতারিয়া’য় ২ জন এছাড়া হারাম, আইন আস শামস ও আলেকজান্ড্রিয়া’য় ১ জন করে মোট সাত জন। দেশটির স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র ড. হিসাম আব্দুল গাফফার তিনজনের মৃত্যু এবং ১৪ জন আহত হওয়ার খবর নিশ্চিত করেছেন। আহত ১৪ জনের মধ্যে ২ জন সেনা সদস্যও রয়েছে বলে তিনি সংবাদ মাধ্যমকে জানিয়েছেন। এদিকে দেশটির বিভিন্ন জেলায় এখনো সংঘর্ষ চলছে। উল্লেখ্য, যে মিশরের ইতিহাসে প্রথম গণতান্ত্রিকভাবে নির্বাচিত সরকার প্রধান মুহাম্মদ মুরসিকে অবৈধভাবে ক্ষমতা থেকে সরিয়ে দিয়ে সেনা প্রধান আবদেল ফাত্তাহ আল সিসি ক্ষমতা হস্তগত করার পর থেকেই দেশটির বৃহৎ রাজনৈতিক দল মুসলিম ব্রাদারহুড আন্দোলন করে আসছিল। তারই ধারাবাহিকতায় রোববার মুসলিম ব্রাদারহুড কায়রোর বিখ্যাত তাহরির স্কয়ারে একত্রিত হলে সেনাবাহিনীর সাথে তাদের সংঘর্ষ হয়। ধীরে ধীরে এই সংঘর্ষ দেশের বিভিন্নস্থানে ছড়িয়ে পড়ে। ব্রাদারহুডের আজকের (রোববারে) কর্মসূচিকে সামনে রেখে সেনা সরকার গতকাল (শনিবার) থেকেই কায়রোর সাথে অন্যান্য জেলার ট্রেন যোগযোগ বিচ্ছিন্ন করে দেয়। কায়রোর ভিতরেও বিভিন্ন মেট্রো স্টেশন বন্ধ রাখা হয়। কায়রোর বিভিন্ন রাস্তায় বসানো হয় চেক পোস্ট।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*