মাসিক ২৫ টাকা কিস্তিতে স্মার্টফোন

নিউজগার্ডেন ডেস্ক, ১১ ফেব্র“য়ারী: মাসিক ২৫ থেকে ৩০ টাকা কিস্তিতে শ্রমজীবীসহ সকল স্তরের মানুষের কাছে স্মার্টফোন পৌঁছে দেওয়া হবে বলে জানিয়েছেন ডাক ও টেলিযোগাযোগ প্রতিমন্ত্রী তারানা হালিম। সচিবালয়ে বৃহস্পতিবার ‘টেলিকম রিপোর্টার্স নেটওয়ার্ক বাংলাদেশ (টিআরএনবি)’র ওয়েবসাইট উদ্বোধন অনুষ্ঠানে মন্ত্রী এ তথ্য জানান। প্রতিমন্ত্রী বলেন, ‘কম দামে ও কিস্তিতে হ্যান্ডসেট সরবরাহে মোবাইল প্রস্তুতকারী প্রতিষ্ঠানের সঙ্গে আলোচনা হচ্ছে। ওয়ালটনের সঙ্গে কথা হয়েছে। তারা জানিয়েছে, মাসিক ২৫ থেকে ৩০ টাকা কিস্তিতে স্মার্টফোন দেওয়া সম্ভব।’tarana
‘তৃণমূল পর্যায়ে সবার হাতে স্মার্টফোন দিতে এ উদ্যেগ নেওয়া হচ্ছে। দেড় থেকে দুই হাজার টাকার এই মোবাইল কৃষক-মজুর থেকে শুরু করে সবার হাতে পৌঁছে দিতে চাই’ বলেন তারানা হালিম। এরিকসনের (টেলিযোগাযোগ অবকাঠামো সেবাদাতা প্রতিষ্ঠান) সঙ্গে আলোচনা হয়েছে জানিয়ে প্রতিমন্ত্রী বলেন, তারা বাংলাদেশে মোবাইল চিপ উৎপাদনের কথা বলেছে। এর ফলে দেশে কর্মসংস্থান তৈরি হবে এবং হ্যান্ডসেটের মূল্য কমে আসবে।’
‘বায়োমেট্রিক পদ্ধতিতে মোবাইল সিম কার্ডের নিবন্ধনে ভোগান্তি ও হয়রানি রোধে বিটিআরসির মোবাইল টিম মাঠে নামবে’ উল্লেখ করে তিনি আরও বলেন, ‘এই টিম বিভাগীয় পর্যায় ছাড়াও জেলা ও উপজেলায় কাজ করবে। নিবন্ধনে যদি জরিমানার বিধান থাকে তাহলে বিটিআরসি জরিমানা করবে।’
এরপরও অবস্থার পরিবর্তন না হলে প্রয়োজনে ‘অতিরিক্ত নির্দেশনা’ দেওয়া হবে জানিয়ে টেলিযোগাযোগ প্রতিমন্ত্রী বলেন, ‘যেন বিটিআরসি সংশ্লিষ্ট অপারেটরদের জন্য জরিমানার বিধানটি রাখে। আমাদের একটা সংস্কৃতি আছে, মানুষ আর্থিকভাবে ক্ষতিগ্রস্ত হলে তখনই শুধু ভাষাটা বোঝে, সেই ভাষা বোঝার জন্য যা প্রয়োজন তাও আমরা করব।’
বায়োমেট্রিক পদ্ধতিতে সিম কার্ড পুনর্নিবন্ধনে নতুন করে করারোপ করা হবে না জানিয়ে প্রতিমন্ত্রী বলেন, ‘এ বিষয়ে অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিতের সঙ্গে বৈঠক হয়েছে। আমি বলেছি, রি-রেজিস্ট্রেশন ও রিপ্লেসমেন্টের মধ্যে পার্থক্য আছে। দুটোর মধ্যে তারা কনফিউজড ছিলেন। আমি দুটো বিষয় ব্যাখ্যা করেছি। কারণ সিম কেনার ক্ষেত্রে একবার কর দিয়েছেন, দ্বৈত করের আর প্রয়োজন নেই। অর্থমন্ত্রী আশ্বস্ত করেছেন রি-রেজিস্ট্রেশনের ক্ষেত্রে নতুন করে কর আরোপ করা হবে না।’
ডাক ও টেলিযোগাযোগ বিভাগের সচিব ফয়জুর রহমান চৌধুরী, টিআরএনবি’র সভাপতি রাশেদ মেহেদী ও সাধারণ সম্পাদক শামীম আহমেদ এ সময় উপস্থিত ছিলেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*