মালয়েশিয়াকে সাহায্যের প্রস্তাব জাতিসংঘের

নিউজগার্ডেন ডেস্ক : অভিবাসী ইস্যুতে মালয়েশিয়াকে সাহাunয্যের প্রস্তাব দিয়েছে জাতিসংঘ। সমুদ্রে আটকে পড়া হাজারো বিদেশগামীকে আশ্রয় দেওয়ার ব্যাপারে মালয়েশিয়া সরকারকে এ সহযোগিতার প্রস্তাব দিয়েছে জাতিসংঘ। বিবিসির মঙ্গলবারের এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, জাতিসংঘের শরণার্থী বিষয়ক সংস্থা (ইউএনএইচসিআর) জানিয়েছে, তারা শরণার্থীদের জন্য প্রয়োজনীয় চিকিৎসা ও অন্যান্য সেবা প্রদানে প্রস্তুত রয়েছে। সংস্থাটি সোমবার এক বিবৃতিতে বলেছে, মিয়ানমারের স্বল্প সংখ্যক রোহিঙ্গা মুসলিম সাগরপথে ভেসে বেড়াচ্ছে। তাদের আন্তর্জাতিক নিরাপত্তা প্রয়োজন এবং মিয়ানমারে ফিরিয়ে দেওয়া ঠিক হবে না। একই সঙ্গে মালয়েশিয়া সরকার আনুষ্ঠানিকভাবে সহযোগিতার কোনো আবেদন জানায়নি বলেও উল্লেখ করেছে সংস্থাটি। জাতিসংঘ জানিয়েছে, গত কয়েক বছরে মালয়েশিয়া ৪৫ হাজারেরও বেশি রোহিঙ্গা মুসলিমকে আশ্রয় দিয়েছে। কিন্তু সম্প্রতি তারা সমুদ্রপথে অবৈধভাবে আসা রোহিঙ্গাদের আশ্রয় প্রদানে রাজি হচ্ছে না। মালয়েশীয় কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে, তারা সমুদ্রপথে অবৈধভাবে আসা রোহিঙ্গা মুসলিম ও বাংলাদেশীদের আশ্রয় দেবে না। মানবপাচারকারীরা মালয়েশিয়ার কথা বলে মিয়ানমারের রোহিঙ্গা মুসলিম ও বাংলাদেশীদের নৌকায় উঠিয়ে থাইল্যান্ডে নিয়ে নির্যাতন চালাত। সম্প্রতি থাই সরকার এর বিরুদ্ধে কঠোর অবস্থান নেওয়ায় বিদেশগামীদের মালয়েশিয়া ও ইন্দোনেশিয়ার উপকূলে ছেড়ে দেওয়া হচ্ছে। সম্প্রতি মালয়েশিয়া ও ইন্দোনেশিয়া উপকূলে দুই হাজারেরও বেশি বিদেশগামীকে উদ্ধার করা হয়েছে। উভয় দেশই বিদেশগামীদের আশ্রয় দিতে অস্বীকৃতি জানিয়ে তাদের সমুদ্রপথে ফেরত পাঠিয়েছে। নির্যাতনের শিকার রোহিঙ্গা মুসলিম ও দরিদ্র বাংলাদেশীদের আশ্রয় দিতে চাচ্ছে না থাই সরকারও। এ অবস্থায় আন্তর্জাতিক সংস্থাগুলো ওই বিদেশগামীদের শরণার্থী হিসেবে আশ্রয় দিতে দেশগুলোকে আহ্বান জানিয়েছে।সূত্র : শীর্ষ নিউজ

Leave a Reply

%d bloggers like this: