মানবসমাজে শান্তি ও নিরাপত্তা নিশ্চিতকল্পে সুফী দর্শন গুরুত্বপূর্ণ: আল্লামা রুমি সোসাইটি

নিউজগার্ডেন ডেস্ক, ১২ ফেব্র“য়ারী: আল্লামা রুমী সোসাটির উদ্যোগে চট্টগ্রামস্থ লালখান বাজার রুহ আফজা কুটির প্রাঙ্গণে সংগঠনের মাসিক সেমিনার সোসাইটির মহাসচিব এস. এম সিরাজদৌল্লার সভাপতিত্বে গত ১১ ফেব্র“য়ারি অনুষ্ঠিত হয়। এতে প্রধান অতিথি ছিলেন নিরাপত্তা বিশ্লেষক, লেখক ও বাংলাদেশ কল্যাণ পার্র্টির চেয়ারম্যান মেজর জেনারেল (অব.) সৈয়দ মোহাম্মদ ইব্রাহীম (বীর প্রতীক)।Noman News-12 copy
মরমী গবেষক ও বাংলার রুমী খ্যাত সৈয়দ আহমদুল হক কর্তৃক লিখিত ‘রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর ও কাজী নজরুল ইসলামের উপর ইরানী সুফী কবিদের প্রভাব’ শীর্ষক মূল প্রবন্ধ পাঠ করেন লেখিকা নিলুফার সামশুদ্দিন। এতে প্রধান আলোচক ছিলেন- প্রাবন্ধিক ও দৈনিক সুপ্রভাত বাংলাদেশের শিফট ইনচার্জ আবু মোশাররফ রাসেল। বিশেষ অতিথি ছিলেন ওমর সুলতান ফাউন্ডেশনের পরিচালক নজরুল ইসলাম, কিষোয়ান গ্র“পের ব্যবস্থাপনা পরিচালক নজরুল ইসলাম মানিক, সমাজকর্মী নোমান উল্লাহ বাহার, এড. সৈয়দ মো. ইমরান প্রমুখ।
প্রধান অতিথির বক্তব্যে সৈয়দ ইব্রাহীম (বীর প্রতীক) বলেন, মানবজাতির মধ্যে শান্তি ও নিরাপত্তা বিধানের জন্য ইসলামের যে শিক্ষা তা প্রতিষ্ঠিত করতে সুফী দর্শন অতীব গুরুত্বপূর্ণ। আল্লামা জালাল উদ্দিন রুমী (রহ.) আজীবন সেই কাজটি করে গেছেন। বাংলাদেশে আল্লামা রুমীর পথ অনুসরণ করে সুফী দর্শনকে বিকশিত করেছেন সৈয়দ আহমদুল হক।
আবু মোশাররফ রাসেল বলেন, সুফী দর্শন মানুষকে শান্তি ও শৃঙ্খলার পথে চলতে সহায়তা করে। ইসলামের মূল তত্ত্বকে মরমী কবি আল্লামা রুমী জীবনঘনিষ্ঠ বাস্তবতার সাথে উদাহরণ দিয়ে মানুষের সামনে সুনিপুনভাবে উপস্থাপন করেছেন। রুমী মানুষকে ষড় রিপুর তাড়না থেকে মুক্তভাবে জীবন যাপনের জন্য বাস্তব শিক্ষায় আলোকিত এবং সুশিক্ষিত মানুষ হিসেবে গড়ে তুলতে সচেষ্ট ছিলেন। ষড় রিপুর তাড়না মানুষকে কিভাবে চরম পরিণতির দিকে নিয়ে যায় সে প্রসঙ্গটি রুমীর লেখা থেকে উত্থাপন করে আবু মোশাররফ রাসেল আরও বলেন, একটি ছোট্ট খরগোশের বুদ্ধিমত্তার কাছে বনের রাজা সিংহের জীবন বিপন্ন হয়েছিল। কারণ সিংহ সেদিন ক্রোধে উম্মত্ত হয়েছিল। এরই প্রেক্ষিতে মানুষকে ক্রোধের তাড়না থেকে দূরে থাকার আহবান জানান।
আলোচনা শেষে প্রধান অতিথি সৈয়দ মোহাম্মদ ইব্রাহীম (বীর প্রতীক) কে আল্লামা রুমী সোসাইটির প্রকাশনা সমূহ তুলে দেন নিলুফার সামশুদ্দিন ও রুমী সোসাইটির কর্মকর্তাবৃন্দ।

Leave a Reply

%d bloggers like this: