বিমানবন্দরে আ.জ.ম নাছির উদ্দীনকে নাগরিক কমিটির সংবর্ধনা

নিউজগার্ডেন ডেস্ক : চট্টগ্রাম শাহ্ আমানত বিমান বন্দরে আজ বিকেলে হাজার হাজার জনতার উপস্থিতিতে চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশনের নবনির্বাচিত মেয়র, চট্টগ্রা09--05--2015ম মহানগর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক নাগরিক কমিটির মনোনীত প্রার্থী আ.জ.ম নাছির উদ্দীনকে বরণ করে গণসংবর্ধনা দেয়া হয়। চট্টগ্রাম শাহ্ আমানত বিমানবন্দরে এক সংক্ষিপ্ত গণসংবর্ধনা অনুষ্ঠানে মেয়র আ.জ.ম নাছির উদ্দীন বলেন, নগর পিতা নয় আমি সেবক হতে চাই। আমার নির্বাচনী অঙ্গীকার সমূহ বাস্তবতার নিরীহে বাস্তবায়িত করতে সর্বাত্মক প্রচেষ্টা অব্যাহত রাখবো। আমি এখন দল মতের উর্ধ্বে। সকলের মঙ্গলের জন্য আমার দুয়ার খোলা। চট্টগ্রাম নাগরিক কমিটির চেয়ারম্যান বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় উপদেষ্টা মন্ডলীর সদস্য ও সাবেক গণপরিষদ সদস্য মোহাম্মদ ইসহাক মিঞা বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার আস্থাভাজন আ.জ.ম নাছির উদ্দীনকে নাগরিক কমিটির মনোনীত প্রার্থী হিসেবে বিজয়ী করার জন্য যারা কঠোর পরিশ্রম ও ত্যাগ করেছেন তারা আজকের এই আনন্দঘন মুহূর্তে বিশেষভাবে বরণীয় হয়ে থাকবেন। আমি তাদের সকলকে ধন্যবাদ কৃতজ্ঞতা জানাই। আজ বিকেল ৪ টায় ঢাকা থেকে বিমানযোগে সিটি মেয়র আ.জ.ম নাছির উদ্দীন বিমানবন্দরে পৌঁছুলে নাগরিক কমিটি চট্টগ্রামের পক্ষ থেকে বিরল সংবর্ধনা জ্ঞাপন করে নাগরিক কমিটির চেয়ারম্যান সাবেক এম.পি মোহাম্মদ ইসহাক মিঞা নবনির্বাচিত মেয়রকে ফুলেল শুভেচ্ছা জানিয়ে বরণ করে নেন। সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে মহানগরের ৪৪ টি সাংগঠনিক ওয়ার্ড থানা সহ বিপুল সংখ্যক অঙ্গ ও সহযোগি সংগঠনের নেতাকর্মীরা বাদ্য-বাজনা নিয়ে ব্যানার, ফেস্টুন সহকারে সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে উপস্থিত হয়। সংবর্ধনা সভায় উপস্থিত ছিলেন উত্তর জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি সাবেক রাষ্ট্রদূত আলহাজ্ব নুরুল আলম চৌধুরী, দক্ষিণ জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি আলহাজ্ব মোছলেম উদ্দিন আহমদ, সাধারণ সম্পাদক মফিজুর রহমান, সংসদ সদস্য শামসুল হক চৌধুরী, এম. এ. লতিফ এম.পি, দিদারুল আলম এম.পি, চট্টগ্রাম মহানগর আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি মাহতাব উদ্দিন চৌধুরী, এডভোকেট সুনীল কুমার সরকার, এডভোকেট ইব্রাহিম হোসেন চৌধুরী বাবুল, দক্ষিণ জেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি মোতাহেরুল ইসলাম চৌধুরী, মহানগর আওয়ামী লীগের উপদেষ্টা মন্ডলীর সদস্য আলহাজ্ব সফর আলী, শেখ মাহমুদ ইসহাক, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক এম. এ. রশিদ, সাংগঠনিক সম্পাদক নোমান আলম মাহমুদ, শফিক আদনান, চৌধুরী হাসান মাহমুদ হাসনী, উত্তর জেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক দেবাশীষ পালিত, মহানগর আওয়ামী লীগের প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক শফিকুল ইসলাম ফারুক, আইন বিষয়ক সম্পাদক এডভোকেট শেখ ইফতেখার সাইমুল চৌধুরী, তথ্য ও গবেষণা সম্পাদক চন্দন ধর, বন পরিবেশন বিষয়ক সম্পাদক মশিউর রহমান চৌধুরী, ত্রাণ ও সমাজ কল্যাণ সম্পাদক মোহাম্মদ হোসেন, দক্ষিণ জেলা আওয়ামী লীগের শ্রম বিষয়ক সম্পাদক খোরশেদ আলম, উত্তর জেলার প্রচার সম্পাদক জসিম উদ্দিন শাহ্, মহানগর আওয়ামী লীগের স্বাস্থ্য বিষয়ক সম্পাদক ডা: ফয়সাল ইকবাল চৌধুরী, সাংস্কৃতিক সম্পাদক আবু তাহের, শ্রম সম্পাদক আবদুল আহাদ, শিল্প ও বাণিজ্য সম্পাদক মাহবুল হক মিয়া, উপ-প্রচার সম্পাদক শহিদুল আলম, উপ-দপ্তর সম্পাদক জহরলাল হাজারী, মহানগর আওয়ামী লীগের কার্যনির্বাহী সদস্য গৌরাঙ্গ চন্দ্র ঘোষ, হাজী নুরুল আবছার মিয়া, সৈয়দ আমিনুল হক, কামরুল হাসান বুলু, সাঈফুদ্দিন খালেদ বাহার, হাজী নুরুল আমিন শান্তি, রোটারিয়ান মোহাম্মদ ইলিয়াছ, গোলাম মোহাম্মদ চৌধুরী, মোরশেদ আকতার চৌধুরী, নেছার আহমদ মঞ্জু, মোহাম্মদ জাবেদ, থানা আওয়ামী লীগের হাজী শাহাবুদ্দিন আহমেদ, আনসারুল হক, সিদ্দিক আলম, আবু তাহের, মোমিনুল হক, হাজী সুলতান আহমদ চৌধুরী, কাজী আলতাফ হোসেন, শফিউল আলম ছগির প্রমুখ। সূত্র : শীর্ষ নিউজ

Leave a Reply

%d bloggers like this: