বিভিন্ন সমস্যা নিরসনের দাবিতে জেলা প্রশাসককে ছাত্রলীগের স্মারকলিপি

নিউজগার্ডেন ডেস্ক, ১ নভেম্বর: আজ থেকে শুরু হতে যাওয়া জেএসসি, জেডিসি ও চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় ভর্তি পরীক্ষাসহ অল্পকিছু দিনের মধ্যে শুরু হতে যাওয়া পিএসসি, এবতেদায়ী এবং প্রাথমিক ও মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের সমাপনী পরীক্ষাসহ সকল প্রকার পরীক্ষা চলাকালীন1 সময়ে নগরীর সর্বস্থানে পরীক্ষার্থীদের সার্বিক নিরাপত্তা, পর্যাপ্ত ট্রাফিক ব্যবস্থা পরীক্ষা চলাকালীন সময়ে পরীক্ষা কেন্দ্র সমূহের সামনে সকল প্রকার হর্ণ ও মাইক বাজানো নিষিদ্ধকরণ, পরীক্ষার হল সমূহের নিরবিচ্ছন্ন বিদ্যুৎ সরবরাহ, চবি ভর্তি পরীক্ষার্থীদের জন্য গণপরিবহনে পর্যাপ্ত ব্যবস্থা, পরীক্ষা কেন্দ্রের আশ পাশের বখাটে ও ইভটেজারদের দৌরাত্ম নিরসনে আইন শৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর সার্বিক তৎপরতা নিশ্চিতকরণ, পরীক্ষার্থীদের পরীক্ষা প্রস্তুতি সুবিধার্থে প্রতিদিন সন্ধ্যাকালীন সময় হতে নগরীতে সকল প্রকার মাইক, সাউন্ড সিস্টেম ও হাইড্রোলিক হর্ণ বাজানোয় বিধি নিষেধ আরোপন সহ পরীক্ষা কেন্দ্রে সুষ্ঠু পরিবেশ বজায় রাখার দাবি জানিয়ে জেলা প্রশাসকের নিকট স্মারকলিপি প্রদান করেছে বাংলাদেশ ছাত্রলীগ চট্টগ্রাম মহানগর। স্মারকলিপি প্রদান পরবর্তী নগরীর কোর্ট বিল্ডিং চত্বরে এক সংক্ষিপ্ত ছাত্র সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়। উক্ত সংক্ষিপ্ত সমাবেশে বক্তব্য রাখেন নগর ছাত্রলীগের সভাপতি ইমরান আহমেদ ইমু। সাধারণ সম্পাদক নুরুল আজিম রনি। এসময় আরও বক্তব্য রাখেন নগর 2ছাত্রলীগের সহ-সভাপতি নাজমুল হাসান রুমি, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক রনি মির্জা, সুজন বর্মন, সাংগঠনিক সম্পাদক খোরশেদ আলম মানিক, আমির হামজা। সমাবেশে ইমরান আহমেদ ইমু বলেন, ১৯৪৮ সালের ৪ জানুয়ারি প্রতিষ্ঠা লগ্ন হতে শিক্ষা উন্নয়নে এবং সাধারণ ছাত্র ছাত্রীদের দাবি আদায়ে কাজ করে যাচ্ছে বাংলাদেশ ছাত্রলীগ। শিক্ষার্থীদের মৌলিক অধিকার সংরক্ষণ এবং শিক্ষাবিরোধী যে কোন আইনের বিরুদ্ধে স্বোচ্ছার ভূমিকা পালন করে আসছে বাংলাদেশ ছাত্রলীগ। তারই ধারাবাহিকতায় সাধারণ ছাত্র ছাত্রীদের পরীক্ষার কথা চিন্তা করে নগরীতে পরীক্ষার্থীদের জন্য সকল প্রকার সুযোগ সুবিধা নিশ্চিত কল্পে এবং পরীক্ষার্থীদের দুর্ভোগ নিরসনের লক্ষে জেলা প্রশাসকের নিকট আজকের এই স্মারক লিপি প্রদান। সমাবেশে নুরুল আজিম রনি বলেন, “শিক্ষা আমার সুযোগ নয়, শিক্ষা আমার অধিকার” এই অধিকার বাস্তবায়নের লক্ষে এবং শিক্ষার আলো জনগণের দৌড়গোড়ায় পৌঁছে দিতে নিরলস কাজ করে যাচ্ছে শেখ হাসিনার শিক্ষাবান্ধব সরকার। শিক্ষার এই অগ্রযাত্রাকে সফল করতে বাংলাদেশ ছাত্রলীগ বদ্ধ পরিকর। এসময় তিনি আরও বলেন, বাংলাদেশ ছাত্রলীগ সর্বদা সাধারণ ছাত্র ছাত্রীদের স্বার্থ রক্ষার্থে কাজ করে। আর এই লক্ষ্যে চলমান জেএসসি, জেডিসি ও চবি ভর্তি পরীক্ষাসহ অল্প কিছু দিনের মধ্যে অনুষ্ঠিত হতে যাওয়া পিএসসি ও এবতেদায়ী এবং প্রাথমিক ও মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের সুযোগ সুবিধার কথা চিন্তা করে আমরা উক্ত পদক্ষেপ গ্রহণ করেছি। তাই পরীক্ষার্থীদের দুর্ভোগ নিরসনে ছাত্রলীগের নৈতিক অবস্থান সুদৃঢ়। এসময় উপস্থিত ছিলেন নগর ছাত্রলীগের সম্পাদক হাসানুল আলম সবুজ, উপ সম্পাদক আব্দুল আহাদ, বোরহান উদ্দিন ফরহাদ, সহ-সম্পাদক কালা চাঁদ ভট্টাচার্য সীমান্ত, শেখর, উদয় মিত্র সুমন, মুহাম্মদ একরাম হোসেন ভূইয়া, সদস্য ফরহাদ সায়েম, নাজমুল হাসান, আরমান হোসেন সুজন, আশেকানে আউলিয়া ডিগ্রী কলেজের জিএস এ.কে. করিম, ১৮নং ওয়ার্ড ছাত্রলীগের সভাপতি মোঃ ওমর ফারুক, সাধারণ সম্পাদক এনামুল হক মানিক, কলেজ ছাত্রলীগ নেতা বিকাশ দাশ, শফিকুল ইসলাম শাকিল, নুরুন্নবী শাহেদ, মাহমুদুল করিম, শহীদুল ইসলাম বিজয়, শাহাদাত হোসেন হিরা, আশিকুর রহমান আবির, নাবির আহমদ লিটন, শিবু ঘোষ, সাজু বিশ্বাস প্রমুখ।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*