বাংলাদেশের মানুষের মৌলিক অধিকার খর্ব

কামরুল হুদা : ভোট ডাকাতীর মাধ্যমে মানুষের মৌলিক অধিকার খর্ব করাPen হয়েছে এবং বাংলাদেশের গণতন্ত্রেরও হত্যা করা হল। কেউ ব্যাংক ও বাড়ী ডাকাতী করলে তাকে মানুষ গণপিটুনী দিয়ে হত্যা ও চিরদিনের জন্য পুঙ্গু করে দেয়। তার চেয়ে জঘন্য হচ্ছে মানুষের মৌলিক অধিকার হরণ করে ভোট ডাকাতী করা। আমরা ডাকাতীর বিরুদ্ধে বাংলাদেশের আপমর জনগণকে সোচ্ছার হবার আহবান জানাচ্ছি। যাতে আগামীতে আর কেউ এ ধরনের ভোট ডাকাতীর মাধ্যমে ক্ষমতায় যেতে না পারে এবং সাথে সাথে তাদেরকে সব স্তর থেকে তিরস্কার করে ঘৃণার স্তম্ভে পরিণত করা প্রয়োজন বলেও দেশবাসী মনে করে। অনেকে জাল ভোট বা ভোট ডাকাতী করে উচ্ছ্বসিত কণ্ঠে বলতে থাকে, আমি এত ভোট দিয়েছি। ঐ কেন্দ্রেও আমি ভোট দিয়েছি, কিন্তু আমি এখনো ভোটার হয়নি, এটি কি জাতির জন্য লজ্জাজনক নয় কি? আবার কর্তা ব্যক্তিরাও উচ্ছ্বসিত কণ্ঠে বলতে থাকে ভোট সুষ্ঠু হয়েছে, যেখানে ভোট সুষ্ঠূ হয়েছি কি হয়নি তা জাতি প্রত্যক্ষ করেছে, সেখানে জাতিকে বুঝাতে হবে না, ভোট সুষ্ঠু হয়েছে কি সুষ্ঠু হয়নি, আপনি যখন চোখ বন্ধ করে কাপড় খুলে আগা দিতে বসবেন, তখন বলবেন যে আমাকে কেউ দেখিনি, আপনি সে কথা বলতে পারবেন, কারণ আপনার লজ্জা শরম নাই, কিন্তু ঠিকই আপনাকে সকলেই দেখেছে, আপনি কি অবস্থায় ছিলেন। তাই জাতির সামনে মিথ্যা কথা বললে জাতি বলবে, এই মিথ্যাবাদী, দুর হউ আমার সামনে থেকে, তখন হয়তো বুঝতে পারবেন না, জাতি আপনাকে কিভাবে প্রত্যাখ্যান করবে। তাই সময় থাকতে সাবধান হউন, আপনি হয়তো বুঝতে পারছেন না, মিথ্যা কথা বেশিদিন আপনাকে বাঁচাতে পারবে না, আপনি মিথ্যার আশ্রয় নিয়ে, আইনশৃংখলা বাহিনীকে নিজের মনে করে ১৬ কোটি মানুষের ভাগ্য নিয়ে ছিনিমিনি খেলা শুরু করেছেন, হয়তো আপনি এখনো বুঝতে পারছেন না যে, আপনি দুধ কলা দিয়ে সর্প পুষতেছেন, যে কোন এক সময় সে ছোবল মারবেই। আমরা আশা করেছিলাম সিটি কর্পোরেশন নির্বাচন সুষ্ঠু ও অবাধ হবে, কিন্তু আমার বন্ধুমহল বার বারই আমাকে বলেছিল, সে কথা কখনো বলবি না, সিটি নির্বাচন স্মরণকালের স্মরণাতীত কারচুপি হবে, তাই ঘটে গেল, আমার কথা মিথ্যা প্রমাণিত হল। কারণ আমি একজন আশাবাদী মানুষ, আমি সবসময় ভালটাই চিন্তা করতাম, খারপ চিন্তাটা আমি কস্মিনকালেও করতে পারি না। বন্ধুদের কথাই যখন সঠিক হল তখন লিখতে দ্বিধা নেই, কেন সরকার নির্বাচন দিল, কেন দেশের এত ক্ষতি করল, এগুলি কার টাকা, জনগণের টাকা নাকি সরকারের টাকা সে কথার উত্তর আমি কার কাছে চাইব? এই নির্বাচন না দিয়ে বলতে পারত, অমুক এই সিটির মেয়র, অমুক ঐ সিটির মেয়র, তাহলে দেশের এত ক্ষতি হত না, মানুষও স্বস্তিতে থাকতো। এই সব কিছুর উত্তর কি আদৌ মিলবে?
লেখক : সাংবাদিক ও কলামিস্ট

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*