বনপা সভাপতি সামসুল আলম স্বপনের বিরুদ্ধে ৫৭ ধারায় মামলায় বনপা চট্টগ্রাম জেলা কমিটির নিন্দা ও প্রতিবাদ

নিউজগার্ডেন ডেস্ক, ১২ জুলাই ২০১৭, বুধবার: বাংলাদেশে অনলাইন সাংবাদিকদের অধিকার আন্দোলনের অগ্রপথিক, অনলাইন নীতিমালা প্রণযন ও নিউজ পোর্টাল রেজিষ্ট্রেশন পক্রিয়া চালুর স্বপ্নদ্রষ্টা ও নির্ভীক সাংবাদিক সামসুল আলম স্বপন। যিনি বাংলাদেশের অনলাইন নিউজ পোর্টাল মালিক সম্পাদকদের সর্বপ্রথম সংগঠন বনপা’র প্রতিষ্ঠাতা। অনলাইন গণমাধ্যমে কর্মরত সাংবাদিকদের প্রাণের সংগঠন অনলাইন প্রেস ক্লাবও যার হাতে প্রতিষ্ঠিত। যার অক্লান্ত পরিশ্রম, সীমাহীন ত্যাগ আর বিচক্ষণ নেতৃত্বে সংগঠন দুটির বিশালতা ছড়িয়ে পড়ে রাজধানী থেকে জেলা, জেলা থেকে উপজেলা পর্যায়ে। অনলাইন সাংবাদিকতা করেন অথচ বনপা বা অনলাইন প্রেস ক্লাব সম্পর্কে অবগত নন এমন একজন ব্যক্তিও আজ খুঁজে পাওয়া দুষ্কর। কিন্তু এখন থেকে অর্ধযুগ আগে যখন তিনি অনলাইন সাংবাদিকতার আন্দোলন শুরু করেন তখন অনলাইন কি বা অনলাইনেও খবর পড়া যায় একথা কয়জনেই বা জানতো ? অথচ সে সময়ে তিনি দাবী তুললেন অনলাইন নীতিমালার কথা, অনলাইন নিউজ পোর্টাল রেজিষ্ট্রেশনের কথা। যা তখন অনেকের কাছে ছিল হাস্যকর।
অন্যদিকে বর্তমান অনলাইন বান্ধব সরকারের তথ্য মন্ত্রী হাসানুল হক ইনু অনলাইন সাংবাদিকদের দাবিকে সম্মান জানিয়ে অনলাইন নীতিমালার কাজে হাত দেন। একই সাথে অনলাইন নিউজ পোর্টাল রেজিষ্ট্রেশন পক্রিয়া শুরু করেন। এসব বিষয়ে তথ্য সচিবের উপস্থিতিতে সচিবালয়ে বনপার একটি আলোচনা সভাও অনুষ্ঠিত হয়।
পরিতাপের বিষয়, আজ ডিজিটাল সরকার বিনির্মাণের অন্যতম সারথী বনপা ও জাতীয় অনলাইন প্রেস ক্লাবের নেতা সামসুল আলম স্বপনের বিরুদ্ধে ৫৭ ধারায় মামলা হয়।
বনপা চট্টগ্রাম জেলা কমিটি এ মিথ্যা ও ষড়যন্ত্রমূলক মামলার নিন্দা ও প্রতিবাদ জানাচ্ছে। একই সাথে জোর দাবী জানাচ্ছে অনতিবিলম্বে এ মামলা প্রত্যাহারের।
অন্যথায় সারা দেশ থেকে একযোগে অনলাইন নিউজ পোর্টাল মালিক-সম্পাদক ও কর্মরত সাংবাদিকরা ষড়যন্ত্রকারীদের দাঁতভাঙ্গা জবাব দিতে বাধ্য হবে। প্রসঙ্গত, ১০ জুলাই সোমবার কুষ্টিয়া মডেল থানায় তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি আইনের ৫৭ ধারায় শামসুল আলম স্বপনের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করা হয়। মিলন উল্লাহ নামের এক ব্যক্তি বাদি হয়ে এ মামলা দায়ের করেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*