বগুড়ায় গ্রামীন ফোন কর্মকর্তাকে হত্যা

নিউজগার্ডেন ডেস্ক, ১৪ ফেব্র“য়ারী: গ্রামীন ফাস্ট ডিস্ট্রিবিউশন কোম্পানীর এরয়িা ম্যানেজার মানিক হোসেনকে (৪০) শ্বাসরোধে হত্যা করা হয়েছে। আজ সকাল ১০টার দিকে উপজেলার দুবলাগাড়ি বাজারের অদুরে করতোয়া নদীর পাড় থেকে শাজানপুর থানার পুলিশ তার লাশ উদ্ধার করে। নিহত মানিক হোসেন দুপচাঁচিয়া উপজেলার তালোড়া পৌর এলাকার বেলঘড়িয়া মহল্লার মন্টু প্রামানিকের ছেলে। শনিবার দুপুর আড়াইটার দিকে তিনি দুবলাগাড়ি বাজার থেকে নিখোঁজ হয়েছিলেন।b
পুলিশ জানায়, নিহত মানিক হোসেন মোটর সাইকেল যোগে বিভিন্ন এলাকায় গ্রামীন ফোনের ফ্লেক্সিলোড, মোবাইল ফোনের কার্ড সরবরাহ করে থাকেন। শনিবার দুপুরের দিকে তিনি দুবলাগাড়ি বাজারে মোটর সাইকেল রেখে বিভিন্ন দোকানে কাজ শুরু করেন। দুপুর আড়াইটার পর থেকে তাকে খুঁজে পাওয়া যাচ্ছিলনা। পরে ব্যবসায়িরা থানায় খবর দিলে পুলিশ তার মোটর সাইকেলটি উদ্ধার করে থানায় নিয়ে আসে।
আজ সকালে স্থানীয় লোকজন দুবলাগাড়ি বাজারের অদুরে করতোয়া নদীর পাড়ে পিছনে হাত বাধা অবস্থায় লাশ পড়ে থাকতে দেখে পুলিশে খবর দেয়। পরে শাজাহানপুর থানার পুলিশ লাশ উদ্ধার করে মর্গে পাঠায়। লাশ উদ্ধারের সময় পুলিশ তার প্যান্টের পকেট থেকে নগদ ৫ হাজার টাকা এবং পরিচয় পত্র উদ্ধার করেছে। তবে, নিহত মানিক হোসেনের কাছে থাকা কোম্পানীর ব্যাগটি পাওয়া যায়নি। ওই ব্যাগে মোবাইল কার্ড এবং নগদ টাকাসহ ১৫ লক্ষাধিক টাকার মালামাল ছিল পুলিশ জানতে পেরেছে।
শাজাহানপুর থানার ওসি আলমগীর হোসেন জানান, মানিক হোসেনকে হাত পিছনে বেঁধে শ্বাস রোধ করে হত্যা করা হয়েছে। ধারনা করা হচ্ছে ব্যাগে থাকা টাকা ও মালামাল ছিনিয়ে নিতেই দুর্বৃত্তরা তাকে অপহরণ করে হত্যা করেছে।

Leave a Reply

%d bloggers like this: