প্রকৌশল নির্ভর সেক্টরগুলোর ব্যবস্থাপনা প্রকৌশলীদের হাতে থাকা জরুরী

নিউজগার্ডেন ডেস্ক, ১৩ মে ২০১৭, শনিবার: আইইবি এর ৬৯তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী ইঞ্জিনিয়ার্স ডে উপলক্ষে আজ ১৩ মে বেলা ১১টায় আইইবি চট্টগ্রাম কেন্দ্রের সম্মেলন কক্ষে এক সংবাদ সম্মেলনের আয়োজন করা হয়।
১৯৪৮ সালে আইইবি প্রতিষ্ঠার পর থেকে বর্তমান সময় পর্যন্ত তাদের নিজস্ব কর্মকা-সহ সামাজিক ও সাংস্কৃতিক বিভিন্ন দায়িত্ব পালনের কথা সাংবাদিক সম্মেলনে তুলে ধরেন আইইবি-চট্টগ্রাম কেন্দ্রের চেয়ারম্যান প্রকৌশলী সাদেক মোহাম্মদ চৌধুরী ও সম্মানী সম্পাদক প্রকৌশলী প্রবীর কুমার সেন। সাংবাদিক সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন কেন্দ্রের ভাইস চেয়ারম্যান (একা. এন্ড এইচআরডি) প্রকৌশলী এম এ রশিদ, ভাইস চেয়ারম্যান (এডমিন) প্রকৌশলী উদয় শেখর দত্ত।
লিখিত বক্তব্যে বলা হয় বাংলাদেশের অধিকাংশ সমস্যা প্রকৌশল ও প্রযুক্তি নির্ভর। যেমন- বিদ্যুৎ, গ্যাস সরবরাহ, পানি সরবরাহ, জলাবদ্ধতা সমস্যা, কারখানার নিরাপত্তা এবং ভবন ধ্বস, দুর্যোগ পরবর্তী ব্যবস্থাপনা ইত্যাদি। কিন্তু দুর্ভাগ্যজনকভাবে বর্তমানে এসব সেক্টরের ব্যবস্থাপনা এই প্রকৌশলীদের হাতে না থাকার কারণে সমাধান যথাসময়ে হয়ে উঠেনা। প্রকৌশল নির্ভর সেক্টরে প্রকৌশল ব্যবস্থাপনাই এখাতকে গতিশীল করতে পারে বলে তারা জোর প্রত্যয় ব্যক্ত করেন। এ বিষয়টির প্রতি গুরুত্বারোপ করার জন্য মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর প্রতি আহ্বান জানানো হয়েছে বলেও জানান। সরকারী, বেসরকারী সকল পর্যায়ের প্রকৌশলীদের উৎসাহজনক কর্মপরিবেশ নিশ্চিত করা, বিদেশী বিশেষজ্ঞ আমদানীর নামে আমাদের মূল্যবান বৈদেশিক মুদ্রার ব্যাপক অপচয় রোধ করা এবং প্রকৌশল সেক্টরের ব্যবস্থাপনা প্রকৌশলীদের দ্বারা পরিচালিত হলে দেশের প্রতিটি সেক্টরে উৎপাদনশীলতা আরো বৃদ্ধি পাবে এবং বর্তমান সরকার কর্তৃক ঘোষিত রূপকল্প ২০২১ ও ২০৪১ বাস্তবায়ন সহজতর হবে বলে উল্লেখ করেন।
বক্তব্যে আরো বলেন, প্রকৌশলে ¯œাতক ডিগ্রী অর্জনের পর প্রকৌশলীদের পেশাগত দক্ষতা বৃদ্ধিসহ দেশের মানুষের মধ্যে সচেতনতা বৃদ্ধি, দক্ষ জনশক্তি মানবসম্পদ তৈরি, প্রযুক্তিগত শিক্ষা প্রদান, বিএস-সি. ইঞ্জিনিয়ারিং সমতুল্য এএমআইই ডিগ্রি প্রদানের প্রাতিষ্ঠানিক ব্যবস্থা গড়ে তোলা হয়েছে। যেখান থেকে প্রতি বছর শিক্ষা ও প্রশিক্ষণ গ্রহণ করে কর্মক্ষেত্রে প্রবেশের সুযোগ পাচ্ছে দেশের প্রকৌশলে ¯œাতক ডিগ্রিধারী তরুণ সমাজ। বক্তব্যে আরো বলা হয় নাগরিক সেবা প্রদান এবং কারিগরী ও প্রকৌশল বিষয়ে পরামর্শ দাতা প্রতিষ্ঠান হিসেবে আইইবি-চট্টগ্রাম কেন্দ্র চউক, চট্টগ্রাম ওয়াসাসহ বিভিন্ন সরকারি-সেবামূলক প্রতিষ্ঠানকে সহযোগিতা প্রদান করে যাচ্ছে। অন্যদিকে দেশের সামগ্রিক উন্নয়নকাজে পরামর্শক হিসেবে দায়িত্বপালন, শ্রমজীবী পেশাজীবীদের কল্যাণ, দেশীয় সংস্কৃতির প্রসারসহ নানা কাজে আইইবি সর্বদা নিয়োজিত।
বেকার তরুণ সমাজকে প্রশিক্ষণ দিয়ে তাদের কর্মোপযোগী করে দেশের বেকার সমস্যা দূরীকরণে আইইবি-চট্টগ্রাম কেন্দ্র সারা বছর ব্যাপি বিভিন্ন কর্মমুখি প্রকল্প গ্রহণ ও বাস্তবায়ন করে যাচ্ছে।
পরে সাংবাদিকদের বিভিন্ন প্রশ্নের জবাব দেন কেন্দ্রের প্রাক্তন চেয়ারম্যান প্রকৌশলী এম. আলী আশরাফ, পিইঞ্জ., প্রকৌশলী মোঃ দেলোয়ার হোসেন, পিইঞ্জ., প্রকৌশলী মোহাম্মদ হারুন ও প্রকৌশলী নেতৃবৃন্দ। সংবাদ সম্মেলনে আরো উপস্থিত ছিলেন কেন্দ্রের প্রাক্তন চেয়ারম্যান প্রকৌশলী এম. শাহজাহান, প্রাক্তন ভাইস-চেয়ারম্যান প্রকৌশলী এ এস এম নাসিরুদ্দিন চৌধুরী, পিইঞ্জ. ও প্রকৌশলী অভিজিৎ কুমার দেব প্রমুখ।
সংবাদ সম্মেলনে ইঞ্জিনিয়ার্স ডে-২০১৭ উপলক্ষে ১৩ মে বিকেল ৪টায় আইইআই ত্রিপুরা স্টেট সেন্টারের সাথে যৌথউদ্যোগে Disaster Management & Sustainable Development এবং আগামী কাল সন্ধ্যায় কেন্দ্রের প্রাক্তন নির্বাহীবৃন্দের সংবর্ধনা এবং প্রকৌশল পেশায় ও আইইবি, চট্টগ্রাম কেন্দ্রে কৃতিত্বপূর্ণ অবদান রাখায় জ্যেষ্ঠ প্রকৌশলীদের বিশেষ সম্মাননা প্রদান অনুষ্ঠানসমূহে অংশগ্রহণের জন্য উপস্থিত সাংবাদিকদের আমন্ত্রণ জানান।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*