পোশাকের যত্ন

নিউজগার্ডেন ডেস্ক, ১৩ মার্চ ২০১৯ ইংরেজী, বুধবার: শীত চলে গেছে। বসন্তও যাই যাই করছে। কয়েকদিনের বৃষ্টির পরে বাতাসে এখনও হালকা শীতের ছোঁয়া থাকলেও গরম পোশাকের প্রয়োজনীয়তা ফুরিয়েছে। এই সময়ে শীতের পোশাক যেমন সোয়েটার, জ্যাকেট, শাল ভালো করে ধুয়ে আলমারিতে তুলে রাখা উচিত। যাতে করে সামনের শীতে ফের ঝকঝকে অবস্থায় সেগুলো নামানো যায়। জেনে নিন কী ভাবে যতেœ রাখবেন আপনার সাধের গরম পোশাক।
উলের পোশাক ঘরেই ধোয়া যায়। তবে তার জন্য একটু বেশি সতর্ক ও যতœশীল হতে হয়। হালকা সাবানে উলের পোশাক ধুতে হবে, স্বাভাবিক তাপমাত্রার জলে। গরম জলে উলের পোশাক ভেজাবেন না। সামান্য আর্দ্র উলের পোশাক স্টিম আয়রন দিয়ে ইস্ত্রি করা যায়।
মনে রাখবেন, উল হচ্ছে আসলে একটি প্রাণীর গায়ের চুল, তার মধ্যে কিউটিকল থাকে। বিভিন্ন প্রসেসিংয়ের মধ্যে দিয়ে গিয়ে বাজারজাত হওয়ার সময়ে সেই কিউটিকলের অনেকটাই ক্ষতিগ্রস্ত হয়, তাই খুব গরম জল বা কড়া ডিটারজেন্টে উলের পোশাক ধুলে তার মান খুব তাড়াতাড়ি খারাপ হওয়ার আশঙ্কা থেকে যায়।
হালকা সাবানে উলের পোশাক ধুতে হবে, স্বাভাবিক তাপমাত্রার জলে। গরম জলে উলের পোশাক ভেজাবেন না, ঘণ্টাখানেকের বেশি ভেজানোরও দরকার নেই। তার পর সাবধানে অল্প ঘষে অন্তত তিনবার জল বদলে ধুয়ে নিন। বেশি নিংড়ানোর দরকার নেই, শুকনো পুরানো তোয়ালেতে মুড়ে শুষে নিন বাড়তি জল।
উলের পোশাক ঘন ঘন ধোবেন না। তাতে ফ্যাব্রিক কোমলতা হারায়। কোথাও দাগ লাগলে সেই অংশটুকু ধুয়ে পরিষ্কার করে নিন। তবে আলমারিতে সারা বছরের জন্য তুলে রাখার আগে অবশ্যই একবার ভালো করে ধুয়ে নিতে হবে। উলের পোশাক যদি ঘাম বা খাবারের টুকরো-সহ আলমারিতে থাকে, তা হলে কিন্তু পোকার আক্রমণ হতে পারে।
উলের পোশাক সমতল জায়গায় তোয়ালে পেতে শুকিয়ে নিন, ঝুলিয়ে শুকাতে গেলে পোশাকের আকার নষ্ট হয়ে যাওয়ার আশঙ্কা থাকে।
লেপ ধোয়ার কোনো সুযোগ নেই। তবে লেপ-কাথা রোদে শুকিয়ে আলমারিতে তুলে রাখুন। কম্বল লন্ডিতে দিয়ে ড্রাই ওয়াশ করিয়ে নিয়ে আসুন। এরপর এগুলো সুন্দর প্যাকেটে ভরে আগামী শীতের জন্য তুলে রাখুন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*