পেট ভালো রাখার উপায়

নিউজগার্ডেন ডেস্ক, ১৫ আগস্ট ২০১৯ইং, বৃহস্পতিবার: হয়তো আপনি এইমাত্র খেয়েছেন, অথবা খাওয়া শেষ হল এক ঘণ্টা মতন হয়েছে- কিন্তু, তা হজম হয়নি বলে মনে হছে। হজমের নানান জ্বালা এবং কী করে তা নির্মূল করা যায় এক প্রতিবেদনে সে বিষয়ে বোঝালেন হার্ভাড মেডিক্যাল স্কুলের বিশেষজ্ঞরা।

যদি আপনি ভারী ভারী এবং অস্বস্তি বোধ করেন, অথবা জ্বালা বোধ করেন, বা হয়তো আপনার গা-গোলানো, বমি বোধ ভাব হচ্ছে! তখনই বুঝবেন আপনার পেট খারাপ বা বদ হজম হয়েছে। সঠিক কারণ জানা না থাকলে ডাক্তাররা এটাকে ‘ডিসপেপসিয়া’ অথবা ‘খারাপ হজম’ বলে থাকেন।

বদহজম সত্যিকারের ঘটনা। ডাক্তারি ভাষায় পেটে দীর্ঘক্ষণের ব্যাথা অথবা অজানা কারণে অস্বস্তিকে বলা হয় ‘ফাংশনাল ডিসপেপসিয়া’। ফাংশনাল ডিসপেপসিয়ার মূল কারণ অস্বাস্থ্যকর খাবার। অনেকসময় খেতে খেতেই শুরু হয়ে যায় অস্বস্তি, বাকিদের খাওয়ার আধঘণ্টা পরে হতে থাকে। তিন মাসের মধ্যে মাঝেমাঝেই ফিরে আসার প্রবল সম্ভবনা এই রোগের। আপনি যদি ফাংশনাল ডিসপেপসিয়ায় ভোগেন, তাহলে আপনি একা নন। মোটামুটি ভাবে জনগণের ২৫% আক্রান্ত, পুরুষ ও মহিলারা সমানভাবে। ১০% আমেরিকান তাদের জীবন কালে একসময় পেপটিক আলসার বাধিয়ে থাকে। ফাংশনাল ডিসপেপসিয়ার কোনও নিশ্চিত চিকিৎসা না থাকাটা, তার কারণ না জানতে পারার থেকেও খারাপ। ভাল খবর এই রইল যে কিছু সহজ সরল উপায় দিয়ে এর থেকে মুক্তি পাওয়া যায়:

১. যে খাবার খেলে এই সমস্যার সম্ভাবনা থাকে সেগুলি এড়িয়ে চলুন।

২. অল্প পরিমাণে খান, বেশি পরিমাণে খাবেন না। চেষ্টা করুন বারেবার খাওয়ার এবং খাবারটাকে সম্পূর্ণভাবে আস্তে আস্তে চিবিয়ে খান।

৩. সমস্তরকম কাজ বন্ধ করুন যেটাতে অতিরিক্ত বাতাস গেলা হয়। যেমন, ধূমপান, হুটপাট করে খাওয়া, চুইং গাম এবং কোল্ড ড্রিঙ্কস পান করা।

৪. দুশ্চিন্তা কম করুন। রিলেক্সেসান থেরাপি, কগনিটিভ বিহেভেরিয়াল থেরাপি বা ব্যায়াম চেষ্টা করূন। অ্যারোবিক ওয়ার্কআউট সপ্তাহে ৩-৫ করলে সাহায্য উপকার পাবেন। কিন্তু, খাওয়ার পরেই ব্যায়াম করবেন না।

৫. যথেষ্ট আরাম করুন।

৬. খাওয়ার দু- ঘন্টার মধ্য শুয়ে পরবেন না।

৭. নিজের ওজনকে নিয়ন্ত্রনে রাখুন। 

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*