দ্বিতীয় স্থানে বার্সেলোনা

নিউজগার্ডেন ডেস্ক, ৩০ অক্টোবর, রবিবার: ঘরের মাঠে লুইস সুয়ারেস-নেইমারদের সুযোগ নষ্টের ভিড়ে দলের নায়ক হয়ে উঠলেন রাফিনিয়া। এই ব্রাজিলিয়ান তারকার চমৎকার একমাত্র গোলে গ্রানাদাকে হারিয়ে লা লিগার পয়েন্ট তালিকার দ্বিতীয় স্থানে উঠে এসেছে বার্সেলোনা।1
সব সময়ের মতো শনিবার রাতেও চিরচেনা বার্সেলোনা শুরু থেকেই প্রতিপক্ষের রক্ষণে চাপ বাড়ায়, অধিকাংশ সময় বল দখলে রেখে আক্রমণে উঠতে থাকে। ডি বক্সে বল যোগান দিতে থাকেন লিওনেল মেসি; কিন্তু সতীর্থরা লক্ষ্য ঠিক রাখতে পারছিলেন না।
২২তম মিনিটে ডি বক্সে ঢুকে পড়া সুয়ারেসের উদ্দেশে দারুণ একটি ক্রস দেন মেসি। কিছুটা কঠিন হলেও গোল করার মতো পজিশনে ছিলেন উরুগুয়ের স্ট্রাইকার; কিন্তু নিজের নামের প্রতি সুবিচার করতে পারেননি। খানিক পর আর্জেন্টাইন তারকার আরেকটি দারুণ ক্রস ডি বক্সে ফাঁকায় পেয়েও লক্ষ্যভ্রষ্ট হেড করেন ইভান রাকিতিচ।
৩০তম মিনিটে রক্ষণ ভেঙে দ্রুত ডি বক্সে ঢুকে পড়েন সুয়ারেস, সামনে একমাত্র বাধা গোলরক্ষক। কিন্তু সিদ্ধান্ত নিতে দেরি করে ফেললেন; সেই সুযোগে পিছন থেকে ক্ষিপ্র গতিতে ছুটে এসে শেষ মুহূর্তে দলকে বিপদমুক্ত করেন পর্তুগিজ ডিফেন্ডার রুবেন ভেজো।
৪৮তম মিনিটে অবশেষে রাফিনিয়ার দারুণ নৈপুণ্যে কাক্সিক্ষত গোল পায় বার্সেলোনা। ডান দিক থেকে মেসির বাড়ানো বলে ছোট্ট টোকায় পাশে নেইমারকে বাড়িয়েছিলেন তিনি। স্বদেশি তারকার শট পোস্টে লাগার পর প্রতিপক্ষের আরেক জনের গায়ে লেগে ফিরলে ওভারহেড কিকে লক্ষ্যভেদ করেন ব্রাজিলের এই মিডফিল্ডার।
৬৩তম মিনিটে ভালো একটা সুযোগ হারায় বার্সেলোনা। ডান দিক থেকে সের্হি রবের্তোর ক্রস ডি বক্সের মুখে নিয়ন্ত্রণে নিয়ে ভিতরে ঢুকে জোরালো শট নেন নেইমার; কিন্তু গোলরক্ষক গিলের্মো ওচোয়া ঝাঁপিয়ে ঠেকিয়ে দেন।
৮৩তম মিনিটে সুয়ারেসের ব্যর্থতায় আবারও সহজ সুযোগ হারানোর হতাশায় পুড়তে হয় বার্সেলোনাকে। হাভিয়ের মাসচেরানোর উঁচু করে বাড়ানো বল ছয় গজ বক্সের ঠিক বাইরে ফাঁকায় পেয়েও গোলরক্ষক বরাবর হেড করেন শুরু থেকেই অনুজ্জ্বল উরুগুয়ের এই স্ট্রাইকার।
শেষ দিকে ব্যর্থতার মিছিলে যোগ দেন মেসি; ৮৯তম মিনিটে গোল করার মতো পজিশনে বল পেয়েও লক্ষ্যভ্রষ্ট শট করেন তিনি। এই জয়ে দ্বিতীয় স্থানে উঠে আসা বার্সেলোনার পয়েন্ট বেড়ে হলো ১০ ম্যাচে ২২।
অন্য ম্যাচে শীর্ষে থাকা রিয়াল মাদ্রিদ ৪-১ গোলে হারিয়েছে দেপোর্তিভো আলাভেসকে। সমান ম্যাচে জিনেদিন জিদানের দলের পয়েন্ট ২৪।
আরেক ম্যাচে মালাগাকে ৪-২ গোলে হারিয়ে তৃতীয় স্থানে আতলেতিকো মাদ্রিদ। দিয়েগো সিমেওনের দলের পয়েন্ট ২১। সমান পয়েন্ট নিয়ে চতুর্থ স্থানে সেভিয়া।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*