ডাকাতির অর্থে সংগঠনকে শক্তিশালী করছে জেএমবি

নিউজগার্ডেন ডেস্ক, ১০ নভেম্বর: ডাকাতি-ছিনতাইয়ের মাধ্যমে তহবিল সংগ্রহ করে সংগঠনকে শক্তিশালী করার চেষ্টা করছে জামাআতুল মুজাহিদিন বাংলাদেশের (জেএমবি) সদস্যরা।moni
মঙ্গলবার দুপুর ১২টার দিকে ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের (ডিএমপি) মিডিয়া সেন্টারে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে ডিএমপির যুগ্ম কমিশনার মনিরুল ইসলাম একথা জানান।
সোমবার রাতে রাজধানীর উত্তরার আব্দুল্লাহপুরের বিভিন্ন এলাকায় অভিযান চালিয়ে ১১ জেএমবি সদস্যকে আটক করে ঢাকা মহানগর গোয়েন্দা পুলিশ (উত্তর)। এ সময় তাদের কাছ থেকে জিহাদি বই, বিস্ফোরকদ্রব্য ও দেশীয় অস্ত্র উদ্ধার করা হয়।
আটকরা হলেন- আরিফ ইবনে খায়ের উরফে রিফাত, বাবু মুন্সি মাসুদ উরফে রানা, খোরশেদ আলম, ওমর ফারুখ, আলহাজ মিয়া, হেলাল উদ্দিন, আবু বাসেত, সুজাত, আজহার আলী, ফরহাদ হোসেন, মিজানুর রহমান।
মনিরুল ইসলাম বলেন, ‘ডাকাতি-ছিনতাইয়ের মাধ্যমে তহবিল সংগ্রহ এবং নিজের জীবন উন্নত করতে চাচ্ছে জেএমবি সদস্যরা। টাকার বিনিময়ে এরা যেকোনো কাজ করতে পারে।’
তিনি আরও জানান, ব্যাংক ডাকাতি এবং এনজিওর মাধ্যমে বিপুল অর্থ সংগ্রহ করে দেশের গুরুত্বপূর্ণ স্থাপনাসহ ভিভিআইপি লোকদের ওপর হামলা করাই এদের মূল লক্ষ্য।
ডিএমপির যুগ্ম কমিশনার বলেন, ‘জেএমবি দুই ভাগে বিভক্ত। একটি দল ডাকাতি-ছিনতাইয়ের মাধ্যমে অর্থ সংগ্রহ করে এবং আরেকটি দলকে সংগঠিত করে। ইরাক, সিরিয়া, আফগানিস্তান এবং পাকিস্তানের জঙ্গিদের দেখে এরা উৎসাহিত হচ্ছে।’ সূত্র: ঢাকাটাইমস

Leave a Reply

%d bloggers like this: