টাঙ্গাইলে আ’লীগ নেতা ফারুক হত্যা মামলায় ফেঁসে যাচ্ছেন সাংসদ আমান

নিউজগার্ডেন ডেস্ক, ৪ ফেব্র“য়ারী: টাঙ্গাইলে আওয়ামী লীগ নেতা মুক্তিযোদ্ধা ফারুক আহমেদ হত্যা মামলায় ফেঁসে যাচ্ছেন সাংসদ আমানুর রহমান খান ও তার তিন ভাই। তাদেরসহ মোট ১৪ জনের বিরুদ্ধে অভিযোগপত্র জমা দিয়েছে জেলা গোয়েন্দা (ডিবি) পুলিশ। বুধবার রাত সাড়ে ৯টায় টাঙ্গাইল চিফ জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে এ অভিযোগ জমা দেওয়া হয়। জেলা ডিবি পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) গোলাম মাহফিজুর রহমান বিষয়টির সত্যতা স্বীকার করেন।unti
তিনি জানান, এ হত্যা মামলায় ঘাটাইল আসনের এমপি আমানুর খান রানা ও তার তিন ভাই ছাত্রলীগের কেন্দ্রীয় কমিটির সাবেক সহ-সভাপতি সানিয়াত খান বাপ্পা, টাঙ্গাইল পৌর সভার মেয়র সহিদুর রহমান খান মুক্তি ও ব্যবসায়ী ঐক্যজোটের সভাপতি জাহিদুর রহমান খান কাকন, তাদের দেহরক্ষী আনিসুর রহমান রাজা, মোহাম্মদ আলী, সাংসদের ঘনিষ্ঠ সহযোগী কবির হোসেন, সমীর, ফরিদ আহমেদ, দারোয়ান বাবু, যুবলীগের তৎকালীন নেতা আলমগীর হোসেন (চান), নাসির উদ্দিন (নুরু), ছানোয়ার হোসেন ও সাবেক পৌর কাউন্সিলর মাছুদুর রহমানের বিরুদ্ধে অভিযোগপত্র দেওয়া হয়েছে।
প্রসঙ্গত, ২০১৩ সালের ১৮ জানুয়ারি টাঙ্গাইল জেলা আওয়ামী লীগের প্রভাবশালী নেতা মুক্তিযোদ্ধা ফারুক আহমেদকে নৃশংসভাবে খুন করে দুর্বৃত্তরা। ২০১৪ সালের মার্চে ওই মামলায় রাজা নামে এক সন্ত্রাসী পুলিশের হাতে গ্রেপ্তার হয়। পুলিশের জিজ্ঞাসাবাদে রাজা টাঙ্গাইলের প্রভাবশালী খান পরিবারের ৪ ভাইয়ের এ হত্যা মামলায় সংশ্লিষ্ট থাকার কথা স্বীকার করে। এরপর থেকে আলোচিত খান পরিবারের সাংসদ আমানুর রহমান খান রানাসহ চার ভাই-ই পলাতক রয়েছেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*