টঙ্গীতে পায়ে শিকল বাঁধা অবস্থায় এক যুবকের ঝুলন্ত মরদেহ উদ্ধার

নিউজগার্ডেন ডেস্ক, ৩১ অক্টোবর, সোমবার: রাজধানী লাগোয়া জনপদ টঙ্গীতে পায়ে শিকল বাঁধা অবস্থায় এক যুবকের ঝুলন্ত মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ। তার নাম বায়েজিদ আলম তালুকদার বলে জানিয়েছে বাহিনীটি। বয়স আনুমানিক ৩০। তার বাবার নাম মাহবুব আলম তালুকদার।1
সকালে টঙ্গীর মাছিমপুরের নজরুলের বস্তির একটি কক্ষ থেকে বায়েজিদের মরদেহ উদ্ধার করে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী। এই ঘটনার সঙ্গে জড়িত সন্দেহে একজনকে আটক করেছে পুলিশ।
পুলিশের ধারণা, পাওনা টাকা আদায় নিয়ে বিরোধের জেরে এই যুবককে খুন করা হয়ে থাকতে পারে। স্থানীয়রা জানান, বায়েজিদের কাছে বেশ কিছু টাকা পেতেন ফারুক নামে এক জন। বরিবার তাকে বনমালা এলাকা থেকে ধরে আনেন ফারুক। পরে টঙ্গীর মাছিমপুরের নজরুলের বস্তির একটি কক্ষে পায়ে শিকল বেঁধে আটকে রাখা হয় রায়োজিদকে।
রবিবার রাতে এই যুবককে মারধর করা হয় বলে জানিয়েছেন স্থানীয়রা। সকালে ওই ঘরে তার মরদেহ দেখে পুলিশকে খবর দেন তারা। পরে টঙ্গী থানা পুলিশের একটি দল সকালে ঘরের ফ্যানের সঙ্গে ফাঁস লাগানো অবস্থায় বায়েজিদের মরদেহ উদ্ধার করে।
ময়নাতদন্তের জন্য বায়োজিদের মরদেহ গাজীপুর শহীদ তাজউদ্দীন আহমদ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়েছে।
টঙ্গী মডেল থানা পুলিশের উপ-পরিদর্শক আবুল খায়ের বলেন, ‘পায়ে শিকল বাঁধা অবস্থায় নিহতের লাশ ফ্যানের সঙ্গে ঝুলে ছিল। তবে এটি আত্মহত্যা নাকি হত্যা সেটি এখনও নিশ্চিত হওয়া যায়নি। ঘটনার সঙ্গে জড়িত সন্দেহে রেজাউল নামে একজনকে আটক করা হয়েছে। তবে প্রধান সন্দেহভাজন ফারুক এখনো পলাতক।

Leave a Reply

%d bloggers like this: