ছাত্রলীগ নতুন কমিটি গঠন করার ধোঁয়াশা কাটছে না জবিতে

নিউজগার্ডেন ডেস্ক, ০৯ মে: জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয় (জবি) শাখা ছাত্রলীগের মেয়াদোত্তীর্ণ কমিটি ভেঙে নতুন কমিটি গঠন করার ধোঁয়াশা কাটছে না। কেন্দ্রীয় নেতারাও নিশ্চিত কিছু না বলে আশ্বাসের মধ্যে সীমাবদ্ধ রেখেছেন কমিটি গঠনের বিষয়টি। তাতে নেতাকর্মীদের মধ্যে এক ধরনের হতাশা বিরাজ করছে।ju-chattro
একাধিক সুত্রে জানা গেছে, আগামী মঙ্গলবার কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগের বর্ধিত সভায় জবির কমিটি নিয়ে আলোচনার সম্ভাবনা রয়েছে। এ পরিপ্রেক্ষিতে নেতাকর্মীরা তাদের পছন্দের পদের জন্য দিন-রাত জোরালো লবিং ও তদবির চালিয়ে যাচ্ছেন।
কেন্দ্রীয় নেতাদের সূত্রে জানা যায়, জবি ছাত্রলীগের কমিটি খুব তাড়াতাড়ি হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে। নতুন কমিটির জন্য ক্লিন ইমেজের নেতা খুঁজছেন তারা। কিন্তু জবির অধিকাংশ পদপ্রত্যাশী নেতার বিরুদ্ধে রয়েছে বিভিন্ন অভিযোগ।
জবি ছাত্রলীগের নতুন কমিটিতে সভাপতি পদে যাদের সম্ভাবনার কথা শোনা যাচ্ছে, তাদের মধ্যে সাইদুর রহমান জুয়েলের বয়স নেই; সুরঞ্জনের বিরুদ্ধে চাঁদাবাজির অভিযোগ রয়েছে; সাইদুল্লাহ ইবনে সুমন কোতোয়ালি থানার মামলায় জেল খেটেছেন; সাখাওয়াত হোসেন প্রিন্সের বিরুদ্ধে টেন্ডারবাজি ও চাঁদাবাজি এবং তরিকুল ইসলামের বিরুদ্ধে (তূর্য) ভুয়া সহসভাপতির পদ নিয়ে ক্যাম্পাসে আধিপত্য ও বিশৃঙ্খলার অভিযোগ রয়েছে।
সাধারণ সম্পাদক পদে যারা এগিয়ে আছেন তাদের অনেকের বিরুদ্ধে অভিযোগ আরও গুরুতর। যৌন হয়রানি, ভর্তি-বাণিজ্য, অস্ত্র মামলাসহ নানা অভিযোগ রয়েছে তাদের বিরুদ্ধে। হারুনুর রশীদ ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের একুশে হলে বহিরাগত হিসেবে অবৈধভাবে দীর্ঘ দিন ধরে বসবাস করছেন এবং ভর্তি-বাণিজ্যে ডিজিটাল জালিয়াতির মামলায় তার কর্মী আকিব অনেক দিন জেল খাটেন। জবি শাখা ছাত্রলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক তানভীর রহমান খানের বিরুদ্ধে কোতোয়ালি থানায় মামলা রয়েছে বলে জানা গেছে।
জহির রায়হান আগুন ও আনিসুর রহমান শিশিরকে চাদাঁবাজি, যৌন হয়রানি, টেন্ডারবাজি, পরীক্ষায় অসদুপায় অবলম্বনের অপরাধে বিভাগের শিক্ষাকার্যক্রম থেকে সাময়িক বহিষ্কার করা হয়। শিশিরকে শাখা ছাত্রলীগ থেকেও বহিষ্কার করা হয়। শামীম রেজা অস্ত্র মামলার আসামি বলে জানা যায়। মাহবুবুল আলম রবিন ভর্তি-বাণিজ্যের সঙ্গে জড়িত।
তবে জানা যায়, জবি ছাত্রলীগের এসব নেতা বিগত দিনে রাজপথে থেকে জামায়াত-শিবির ও ছাত্রদলের বিভিন্ন কার্যক্রম প্রতিহত করেন। তবে তাদের বিরুদ্ধে বিভিন্ন অভিযোগ ওঠায়, নতুন কমিটির জন্য ‘ক্লিন ইমেজের নেতা’ খুজঁতে সংকটে পড়তে হচ্ছে কেন্দ্রীয় কমিটিকে।
কেন্দ্রীয় কমিটির একাধিক সূত্রে জানা যায়, যেহেতু তারা রাজপথে অগ্রণী ভূমিকা পালন করেছেন, তাই তাদের মধ্য থেকে অপেক্ষাকৃত ক্লিন ইমেজের কাউকে জবির নেতৃত্বে আনার সম্ভাবনা রয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*