চট্টগ্রাম বোর্ডের পরীক্ষা নিয়ন্ত্রক হাসানকে অব্যাহতি

নিউজগার্ডেন ডেস্ক, ২৮ ডিসেম্বর: চট্টগ্রাম শিক্ষাবোর্ডের পরীক্ষা নিয়ন্ত্রক মাহবুব হাসানকে (সহযোগি অধ্যাপক) জেএসসি পরীক্ষা ২০১৫ সালের ফলাফল পর্যন্ত প্রেষণ হতে অব্যাহতি দেওয়া হয়েছে। ১৪ ডিসেম্বর সোমবার হাইকোর্টের বিচারপতি মাইনুল ইসলাম চৌধুরী ও বিচারপতি মোহাম্মদ আশরাফুল কামালের যৌথ বেঞ্চ এ আদেশ দেন বলে জানান আইনজীবী অ্যাডভোকেট নিয়াজ মুহাম্মদ মাহবুব। Logoমূল মামলাটি পরিচালনা করেন সিনিয়র এডভোকেট আবদুল বাসেত মজুমদার। পরবর্তীতে গত ২২ ডিসেম্বর চট্টগ্রাম শিক্ষাবোর্ডের চেয়ারম্যান এফিলেট ডিভিশনে মামলাটি চ্যালেঞ্জ করে রীট (১৪১৬/১৫) করেন। চেম্বার জজ বোর্ড চেয়ারম্যানের আবেদন খারিজ করে দিয়ে মহামান্য হাইকোর্টের দেয়া রায় বহাল রাখেন। উল্লেখ্য যে জেএসসি পরীক্ষার ফলাফল ৩১ ডিসেম্বর প্রকাশের তারিখ হলেও রায়ে তার কোন উল্লেখ নেই। পুন: নিরীক্ষণের একটি ফলাফল প্রকাশিত হয় মূল ফলাফলের ঠিক এক মাস পর। অর্থাৎ জেএসসি পরীক্ষার পূর্ণাঙ্গ ফলাফল প্রকাশ না হওয়া পর্যন্ত পরীক্ষা নিয়ন্ত্রক হিসাবে মাহবুব হাসানের দায়িত্ব আর রইল না।
জনস্বার্থে করা এ রীট (নং-১২৬৭৫/২০১৫) আদেশে উল্লেখ রয়েছে, পাবলিক পরীক্ষা পরিচালনার নীতি অনুসারে কোন শিক্ষকের ছেলে মেয়ে বা পোষ্য পরীক্ষার্থী থাকলে ওই শিক্ষক পরীক্ষায় দায়িত্ব পালন করতে পারবেন না। অথচ মাহবুব হাসানের ছেলে এবারের জেএসসি পরীক্ষায় ইস্পাহানী স্কুল এন্ড কলেজ হতে অংশগ্রহণ করেন যার রোল-১৩০০৩৬, নাম-মোস্তাভি হাসান।
বোর্ড সূত্রে জানা যায়, সহযোগী অধ্যাপক মাহবুব হাসান ২০১০ সালে চট্টগ্রাম সরকারী মহিলা কলেজ থেকে শিক্ষা বোর্ডে উপসচিব হিসেবে প্রেষণে যোগদান করেন। পরবর্তীতে ২০১৪ সালের শেষদিকে উপসচিব থেকে প্রেষণ থেকে প্রেষণে একই জায়গায় পরীক্ষা নিয়ন্ত্রক পদে যোগদান করেন। ইতিপূর্বে যতজন পরীক্ষা নিয়ন্ত্রক হিসেবে প্রেষণে দায়িত্ব পালন করেছিল, তারা সকালেই ছিল অধ্যাপক।

Leave a Reply

%d bloggers like this: