চট্টগ্রামে শব্দ ও কণ্ঠ সৈনিক ওস্তাদ মোহনলাল দাশ’র স্মরণানুষ্ঠান ২২ মার্চ

নিউজগার্ডেন ডেস্ক, ১১ মার্চ ২০১৯ ইংরেজী, সোমবার: মহা বিশ্বের মাঝে অনেক নক্ষত্রের বিশালতার পরিধি দূর থেকে যতটুকু ধারণা করা যায়- সত্যিকার অর্থে নিকট দূরত্ব থেকে দেখলে তার বিশালতা আমাদের অভিভূত করে। তেমন সঙ্গীত মহাকাশের মাঝে যার সৃষ্টিকর্ম আজও ঝলঝল করে দীপ্তি ছড়িয়ে যাচ্ছে তিনি পরম শ্রদ্ধেয় সঙ্গীত গুরু ওস্তাদ মোহনলাল দাশ। ওস্তাদ মোহনলাল দাশ (১৯২৬ – ১৯৭৪) চট্টগ্রাম জেলার ফটিকছড়ির থানার পাঁচপুকুরিয়া নামক এক নিভৃত পল্লীর বুকে জন্মে এদেশের সঙ্গীত জগতের মধ্যমনী হয়ে আবিভূত হয়েছিলেন। যা এ প্রজন্ম ও আগামী প্রজন্মের সঙ্গীত প্রেমীদের চিরদিন অনুপ্রেরণা যুগিয়ে যাবে। তিনি চট্টগ্রাম বেতার (কালুরঘাট) কেন্দের জন্মলগ্ন থেকে ১৯৭১-এর স্বাধীনতা সংগ্রাম ও ’৭৪ পর্যন্ত আমৃত্যু কাজ করে গেছেন। তাঁর কালজয়ী গান “ওরে সাম্পান ওয়ালা তুই আমারে করলী দেওয়ানা” শিল্পী লোক সম্রাজ্ঞী শেফালী ঘোষ। উপমহাদেশের প্রখ্যাত গজল গায়ক মেহেদী হাসানের গাওয়া “হারানো দিনের কথা মনে পড়ে যায়” এমন অনেক কালজয়ী গানের স্রষ্টা ওস্তাদ মোহনলাল দাশ এছাড়া তিনি নজরুল ইসলামের একাধিক গানের সুরারুপ করেছেন। এ মহান গুণীকে নিয়ে ২২ মার্চ শুক্রবার বিকাল ৫ টায় উপমহাদেশের সঙ্গীতগুরু ও ’৭১ এর মুক্তিযুদ্ধের সক্রিয় শব্দ ও কণ্ঠ সৈনিক ওস্তাদ মোহনলাল দাশের ৪৫তম মৃত্যুবার্ষিকী ২০১৯ উদযাপন উপলক্ষে “হারানো দিনের কথা মনে পড়ে যায়” শীর্ষক স্মরণানুষ্ঠান নগরীর মোমেন রোডস্থ চেরাগী পাহাড় সংলগ্ন সু-প্রভাত ষ্টুডিও হলে অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে।
এতে ওস্তাদ মোহনলাল দাশের জীবনদর্শন, সৃষ্টিকর্ম ও পরম্পরার উপর আলোচনা ও গুণী সম্মাননা পর্ব রয়েছে। অনুষ্ঠানের দ্বিতীয় পর্বে ওস্তাদ ও তাঁর পরম্পরাগণের সৃষ্টি কর্ম নিয়ে সংস্কৃতিক অনুষ্ঠান রয়েছে। এতে বরেণ্য লেখক, কবি, সাংবাদিক ও গুণীজনেরা উপস্থিত থাকার সদয় সম্মতি প্রকাশ করেছেন।
অনুষ্ঠানে কবি, সাহিত্যিক, শিল্পী, সাংবাদিক ও সংস্কৃতিক অনুরাগীদের উক্ত স্মরণানুষ্ঠান ২০১৯ উদ্যাপনে উপস্থিত থাকার জন্য সংগঠনের সভাপতি ও ওস্তাদ পুত্র ওস্তাদ স্বপন কুমার দাশ ও সংগঠনের সাধারণ সম্পাদক নাট্যজন সজল চৌধুরী বিনীতভাবে অনুরোধ জানিয়েছেন।

Leave a Reply

%d bloggers like this: