চট্টগ্রামে শতবর্ষপ্রাচীন বিহার পরিদর্শনে রাষ্ট্রপতি

নিউজগার্ডেন ডেস্ক, ১০ নভেম্বর: চট্টগ্রামে শতবর্ষপ্রাচীন বিহার পরিদর্শনে এসে বৌদ্ধ সম্প্রদায়ের মানুষের ভালবাসায় সিক্ত হয়েছেন রাষ্ট্রপতি আব্দুল হামিদ। বৌদ্ধ সম্প্রদায়ের বিশিষ্টজনেরা রাষ্ট্রপতিকে কাশ্মিরী শাল আর বৌদ্ধমূর্তি উপহার দিয়ে বরণ করে নিয়েছেন। রাষ্ট্রপতি সেখানে একটি নাগেশ্বর বৃক্ষের চারা রোপণ করেন। presedent
নব্বইয়ের দশকে দেশ গণতন্ত্রে উত্তরণের পর এই প্রথম কোন রাষ্ট্রপতি চট্টগ্রামে বৌদ্ধ সম্প্রদায়ের প্রাচীনতম এই উপাসনালয়ে এসেছেন। এর আগে সামরিক শাসনামলে জিয়াউর রহমান এবং হুসেইন মুহম্মদ এরশাদ নন্দনকানন বৌদ্ধমন্দিরে এসেছিলেন।
মঙ্গলবার (১০ নভেম্বর) দুপুর ৩টা ২৫ মিনিটে নগরীর নন্দনকাননে চট্টগ্রাম বৌদ্ধবিহারে প্রবেশ করেন রাষ্ট্রপতি। এসময় বিহারের অধ্যক্ষ ড. জ্ঞানশ্রী মহাথেরো রাষ্ট্রপতিকে স্বাগত জানান। এসময় বৌদ্ধ সমিতির চট্টগ্রাম শাখার সভাপতি অজিত রঞ্জন বড়ুয়া এবং সহ সভাপতি ইউএসটিসি’র উপাচার্য ডা. প্রভাত রঞ্জন বড়ুয়াসহ সংগঠনের নেতারা উপস্থিত ছিলেন। ctg
রাষ্ট্রপতির গায়ে কাশ্মিরী শাল জড়িয়ে দেন বিহারের অধ্যক্ষ। বৌদ্ধ সমিতির পক্ষ থেকে একটি মূর্তি ও ক্রেস্ট রাষ্ট্রপতিকে উপহার দেয়া হয়। এরপর বৌদ্ধ সমিতির নেতাদের নিয়ে রাষ্ট্রপতি বিহার পরিদর্শন করেন। রাষ্ট্রপতি শ্রীলংকা থেকে আনা গৌতম বুদ্ধের কেশধাতু ও দন্তধাতু দেখেছেন। বৌদ্ধমন্দিরের ভেতরে বোধিবৃক্ষের পাশে রাষ্ট্রপতি একটি নাগেশ্বর গাছের চারা রোপণ করেছেন। presedent-1
পরিদর্শন শেষে বৌদ্ধবিহার প্রাঙ্গণে একটি নাগেশ্বর গাছের চারা রোপণের কথা রয়েছে তার। এর আগে সকাল ১১টা ৩৫ মিনিটে রাষ্ট্রপতিকে বহনকারী হেলিকপ্টার নগরীর হালিশহরে সেনাবাহিনীর আর্টিলারি ক্যাম্পে অবতরণ করে। রাষ্ট্রপতি সেখানে সেনাবাহিনীর একটি পুর্নমিলনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে কুচকাওয়াজ পরিদর্শন করেন।
বৌদ্ধবিহার পরিদর্শনের পর রাষ্ট্রপতিকে চট্টগ্রামের পাঁচতারকা হোটেল রেডিসন ব্লু ’তে নিয়ে যাওয়া হয়েছে। বুধবার রাষ্ট্রপতির চট্টগ্রাম ত্যাগ করার কথা রয়েছে। বুধবার সকাল ১১টায় চট্টগ্রাম সেনানিবাস থেকে হেলিকপ্টারযোগে রাষ্ট্রপতি কক্সবাজার যাবেন।

Leave a Reply

%d bloggers like this: