চট্টগ্রামে ক্যামিকেল কারাখানায় জেলা প্রশাসনের অভিযান

নিউজগার্ডেন ডেস্ক, ৫ জানয়িারী, ২০১৭, বৃহস্পতিবার: অগ্নিনির্বাপন ব্যবস্থা না থাকায় চট্টগ্রাম নগরীর আছাদগঞ্জে ক্যামিকেল কারাখানায় জেলা প্রশাসনের অভিযান পরিচালনা করা হয়েছে। অভিযানে কোন অগ্নিনির্বাপন ব্যবস্থা না থাকায় ২ প্রতিষ্ঠানকে ১০ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়। বৃহস্পতিবার (৫ জানুয়ারী) সকালে এ অভিযানের নেতৃত্ব দেন জেলা প্রশাসনের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট তাহমিলুর রহমান মুক্ত। অভিযানে ফায়ার সার্ভিস ও নবম এপিবিএন এর সদস্যরাও উপস্থিত ছিলেন।
তাহমিলুর রহমান মুক্ত বলেন, আছাদগঞ্জ চট্টগ্রামের অন্যতম বানিজ্যিক এলাকা। বিভিন্ন ক্যামিকেলের প্রায় ১০০ দোকান রয়েছে এ এলাকায়। প্রতি দোকানের রয়েছে একাধিক গোডাউন। অথচ এসব প্রতিষ্ঠানের অধিকাংশেরই কোন ফায়ার লাইসেন্স নেই বা লাইসেন্স নবায়ন করা নেই। অনেক গুদামে গিয়ে দেখা যায়, বিপুল পরিমাণ ক্যামিকেল গুদামজাত করা রয়েছে কিন্তু নেই কোন অগ্নিনির্বাপন ব্যবস্থা। অনেক গোডাইনের ভিতরে বিদ্যুতের তারগুলো ঝুঁকিপূর্ণ। এসব গুদামের পাশে অনেক ঝুঁকিপূর্ণ দোকান ও বসতঘর। কোন কারণে এ এলাকায় অগ্নিকাণ্ড হলে বড় ধরনের দুর্ঘটনা হতে পারে বলেও মন্তব্য করেন তিনি।
তিনি আরও বলেন, আমি পারফিউম সেন্টারের গুদামে রাখা বিপুল পরিমাণ ক্যামিক্যাল থাকলেও সেখানে নেই কোন ফায়ার এক্সটিংগুশার। গুদামের ভেতর ঝুঁকিপূর্ণ বিদ্যুতের তার এবং গুদামের পাশেই এক পরিবার বসত করে। এ অপরাধে আমির পারফিউম সেন্টারকে ৫ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়েছে এবং সর্তক করে দেওয়া হয়েছে।
অপরদিকে, অভিযানকালে সূচনা ক্যামিকেলসের টিন শেডেড গুদামে ৫৪০০ লিটার স্পিরিট সংরক্ষিত অবস্থায় পাওয়া যায়। অগ্নিনির্বাপক ছাড়াই গুদামের আশেপাশে অনেক দোকান ও বসতবাড়ি রয়েছে। স্পিরিট খুবই দাহ্য, এখানে কোন দুর্ঘটনা ঘটলে আশেপাশের দোকানসহ প্রায় ২০০ স্থাপনা ও জানমালের ক্ষতি হবে। এ অপরাধে সূচনা ক্যামিকেলসকে ৫ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়েছে এবং অন্য সব প্রতিষ্ঠানের মালিককে সর্তক করা হয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*