কাজী রকিবউদ্দিন আহমেদের নেতৃত্বাধীন কমিশনের মতই হয়ে যাচ্ছে বর্তমান ইসি: বিএনপি

নিউজগার্ডেন ডেস্ক, ১৮ জুলাই ২০১৭, মঙ্গলবার: বর্তমান প্রধান নির্বাচন কমিশন সদ্য বিদায়ী কাজী রকিবউদ্দিন আহমেদের নেতৃত্বাধীন কমিশনের মতই হয়ে যাচ্ছে বলে অভিযোগ করেছে বিএনপি। দলের মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেছেন, ‘নির্বাচন কমিশন (ইসি) বাস্তবতা উপেক্ষা একাদশ সংসদ নির্বাচনের রোডম্যাপ ঘোষণা করেছে।’
মঙ্গলবার দুপুরে রাজধানীর নয়াপল্টনে দলীয় কার্যালয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে এ কথা বলেন ফখরুল। রবিবার নির্বাচন কমিশন ঘোষিত নির্বাচনের রোডম্যাপের বিষয়ে আনুষ্ঠানিক প্রতিক্রিয়া জানাতে এই সংবাদ সম্মেলনের ডাক দেয় বিএনপি। রোডম্যাপকে ষড়যন্ত্র হিসেবে উল্লেখ করে দলটির নেতারা বলছেন, এতে তারা হতাশ ও ক্ষুদ্ধ। সংবাদ সম্মেলনে মির্জা ফখরুল মূল বক্তব্য উপস্থাপন করলেও স্থায়ী কমিটির কয়েকজন সদস্য এ নিয়ে কথা বলেন।
সদ্য বিদায়ী নির্বাচন কমিশন নিয়ে বিএনপির ব্যাপক আপত্তি ছিল। তাদের দাবি, এই কমিশন বাংলাদেশের নির্বাচনী ব্যবস্থাকে ধ্বংস করেছে। ক্ষমতাসীন দলের প্রভাব অগ্রাহ্য করে সুষ্ঠু নির্বাচন অনুষ্ঠানে সাংবিধানিক বাধ্যবাধকতার বদলে তারা ক্ষমতাসীনদের জয় নিশ্চিত করতে কাজ করেছে।
কে এম নুরুল হুদার নেতৃত্বে বর্তমান নির্বাচন কমিশনকে দায়িত্ব দেয়ার পরও বিএনপি প্রায় একই ধরনের প্রতিক্রিয়া দিয়েছে। তবে বর্তমান কমিশনের অধীনে নির্বাচন নিয়ে এখন পর্যন্ত সুনির্দিষ্ট বড় ধরনের কোনো অভিযোগ করেনি তারা। তবে আজকের সংবাদ সম্মেলনে বিএনপি বলেছে, দুই কমিশনের মধ্যে কোনো পার্থক্য তাদের চোখে ধরা পড়ছে না।
দশম সংসদের প্রথম অধিবেশন শুরু হয় ২০১৪ সালের ২৯ জানুয়ারি। সংবিধান অনুযায়ী ২০১৯ সালের ২৮ জানুয়ারির আগের ৯০ দিনের মধ্যে একাদশ সংসদ নির্বাচনের সাংবিধানিক বাধ্যবাধকতা রয়েছে।
রবিবার রোডম্যাপ ঘোষণা করে প্রধান নির্বাচন কমিশনার (সিইসি)কে এম নূরুল হুদা বলেছেন, ‘এটি একটি সূচনা দলিল। নির্বাচনের পথে কাজের জন্য এ কর্মপরিকল্পনাই সব নয়। সংযোজন-পরিমার্জন করে সবার মতামত নিয়ে আমরা কাজ করে যাব।’
এই রোডম্যাপকে আওয়ামী লীগের ক্ষমতায় যাওয়ার নীল নকশা বাস্তবায়নের সূচনা বলছেন মির্জা ফখরুল। তিনি বলেন, ‘সরকার সুপরিকল্পিতভাবে একতরফা নির্বাচন করতে তাদের অনুগত নির্বাচন কমিশনকে ব্যবহার করছে।’
রোডম্যাপ ঘোষণার মাধ্যমে ইসি একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে লেভেল প্লেয়িং ফিল্ড নিশ্চিত করতে ব্যর্থ হয়েছে এমন দাবি করে বিএনপি মহাসচিব বলেন, ‘বর্তমান সরকারের অধীনে সুষ্ঠু নির্বাচন সম্ভব’ ইসির এমন বক্তব্য প্রধানমন্ত্রী ও এমপি-মন্ত্রীদের মতো হয়েছে। অথচ সবাই বিশ্বাস করে এই সরকারের অধীনে সুষ্ঠু নির্বাচন সম্ভব নয়।
বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য মওদুদ আহমদ বলেন, ‘রোডম্যাপের আগে নির্বাচনকালীন সরকার ব্যবস্থা নিয়ে বর্তমান রাজনৈতিক সংকট চলছে আগে এটার সমাধান করতে হবে। এক্ষেত্রে সাংবিধানিক দোহাই দেয়ার সুযোগ নেই।’

আর স্থায়ী কমিটির আরেক সদস্য খন্দকার মোশাররফ হোসেন বলেন, ‘নির্বাচনকালীন সহায়ক সরকার নিয়ে সমঝোতার আগে ইসির রোডম্যাপ একটা ষড়যন্ত্র।’
বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য খন্দকার মোশাররফ হোসেন, মির্জা আব্বাস, সদস্য গয়েশ্বর চন্দ্র রায়, সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী, যুগ্ম মহাসচিব হাবিব উন নবী খান সোহেল প্রমুখ সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন।

Leave a Reply

%d bloggers like this: