কংগ্রেসে বিজেপি সাংসদ ও অভিনেতা শত্রুঘ্ন সিনহা!

নিউজগার্ডেন ডেস্ক, ৬ এপ্রিল ২০১৯ ইংরেজী, শনিবার: অনেকদিন ধরে চলা জল্পনার অবসান ঘটিয়ে রাহুল গান্ধীর জাতীয় কংগ্রেসে যোগ দিয়েছেন সাবেক বিজেপি সাংসদ ও অভিনেতা শত্রুঘ্ন সিনহা। দীর্ঘদিন ধরেই তার সাবেক দল বিজেপির বিরুদ্ধে বিদ্রোহী হয়ে উঠেছিলেন তিনি। তারপরই জল্পনা শুরু হয় যে তিনি কংগ্রেসে যোগ দিচ্ছেন। অবশেষে শনিবার আনুষ্ঠানিকভাবে কংগ্রেসে যোগ দিলেন শত্রুঘ্ন। কংগ্রেসে যোগ দেয়ার পর সংবাদ সম্মেলনে আগের দল বিজেপিকে ফের ‘ওয়ান ম্যান শো’ বলে উল্লেখ করেন শত্রুঘ্ন। মোদিকে কঠাক্ষ করে এর আগেও বিজেপিকে এই নামে ডেকেছেন তিনি। শত্রুঘ্ন বলেন, ‘আমার একটাই সমস্যা ছিল, আমি সত্য আর আদর্শে বিশ্বাসী ছিলাম।’ একইসঙ্গে আদবানী, যশবন্ত সিনহা বা মুরলী মনোহর যোশীর কথাও উল্লেখ করেছেন তিনি। ২০১৫ সালের বিহার নির্বাচনে বিজেপির ভরাডুবির পর থেকেই কেন্দ্রীয় নেতৃত্বের সমালোচনায় সরব হন শত্রুঘ্ন সিনহা। প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর বিরুদ্ধে একের পর এক মন্তব্য করেন তিনি। বিশেষ করে নোটবাতিল, জিএসটি বিল, কৃষকদের নানা সমস্যা, বেকারত্ব ও রাফায়েল চুক্তিতে দুর্নীতির অভিযোগে তিনি সরব হন। সম্প্রতি তিনি বলেন, অনেক দল থেকেই যোগদানের অফার ছিল। মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের তরফেও যোগদানের অফার দেওয়া হয়েছিল। অফার দিয়েছিলেন অখিলেশ যাদব, অরবিন্দ কেজরিওয়ালও। তবে শেষ পর্যন্ত রাহুলের সঙ্গে থাকাকে পছ্ন্দ করলেন তিনি। জানা গেছে, এবার রাজনীতিতে আসতে চলেছেন শত্রুঘ্ন স্ত্রী পুনম। ‘টাইমস নাউ’তে প্রকাশিত প্রতিবেদন অনুযায়ী, রাজনাথ সিংয়ের বিরুদ্ধে প্রার্থী হতে পারেন পুনম সিনহা। লখনউ থেকে সমাজবাদী পার্টির টিকিট পাওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে তার। উত্তরপ্রদেশে বিজেপির রথ রুখতে মায়াবতীর বিএসপির সঙ্গে জোট বেঁধেছে অখিলেশের সমাজবাদী পার্টি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*