এবার ট্রাকে নারী শ্রমিককে ধর্ষণের অভিযোগ

নিউজগার্ডেন ডেস্ক : সারা দেশে যৌন নির্যাতন বিরোধী আন্দোলনের মধ্যেই এবার ট্রাকে এক পোশাক শ্রমিককে ধর্ষণের চেষ্টার অভিযোগ পাওয়া গেছে। এসময় ওই নারীর ওপর পাশবিক নির্যাতন চালানো হয় বলেও অভিযোগ পাওয়া গেছে। গুরুতর অসুস্থ ওই পোশাক trakশ্রমিককে শহীদ তাজউদ্দীন আহমদ মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। হাসপাতাল সূত্র জানায়, গাজীপুরের তেলিপাড়া এলাকায় ভাড়া বাসায় থেকে স্থানীয় এক পোশাক কারখানায় কাজ করতেন ওই নারী। শনিবার রাতে স্বামী ও স্ত্রী মিলে ঢাকার খিলগাঁও এলাকায় ডাক্তার দেখাতে যান। পরে তারা ট্রাকযোগে বাড়ি ফেরার সময় চালক তাদের কৌশলে কোমল পানীয়র সাথে নেশা জাতীয় বস্তু খাওয়ান। এতে উভয়ে অচেতন হয়ে পড়লে রাস্তার মধ্যে চালক ওই নারীকে অস্ত্রের মুখে জিম্মি করে ধর্ষণের চেষ্টা করে। এক পর্যায়ে ওই চালক অচেতন দম্পতিকে তেলিপাড়া এলাকায় ফেলে দিয়ে ট্রাক নিয়ে পালিয়ে যায়। স্থানীয়রা তাদের উদ্ধার করে হাসপাতালে ভর্তি করে। নির্যাতিতা ওই নারীর স্বামী আমিনুল ঢাকার মিরপুরে রিকশা চালায়। তাদের বাড়ি জামালুপরের দিঘীর পাড় এলাকায়। তবে ওই নারী শ্রমিক অভিযোগ করেন, নেশাজাতীয় দ্রব্য খাইয়ে তার স্বামীকে ট্রাকের ওপরে ওঠায় ট্রাকের চালক। পরে অভিযুক্ত ট্রাক চালক রাস্তায় অস্ত্রের ভয় দেখিয়ে তাকে ইচ্ছার বিরুদ্ধে ধর্ষণ করে তেলিাপাড়া এলাকায় তার স্বামীসহ তাকে ফেলে পালিয়ে যায়। এসময় তাদের সাথে থাকা টাকা পয়সা ও মোবাইল নিয়ে যায় অভিযুক্ত ওই চালক। নারী শ্রমিক ধর্ষণের ব্যাপারে শহীদ তাজউদ্দীন আহমদ মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালের আবাসিক চিকিৎসক আব্দুস সালাম সরকার জানান, প্রাথমিক পরীক্ষায় ওই নারীর ধর্ষণের প্রমাণ মেলেনি। তবে তাকে পাশবিক নির্যাতন করা হয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*