আজ থেকে শুরু জাতীয় দলের বিশ্বকাপ অনুশীলন

নিউজগার্ডেন স্পোটস ডেস্ক : আজ থেকে শুরু হলো জাতীয় দলের বিশ্বকাপ অনুশীলন। ২৪ জানুয়ারি ব্রিসবেনে কন্ডিশনিং ক্যাম্প করতে যাওয়ার আগে দেশে ৯দিনের অনুশীলন করবে দল। অনুশীলনের শুরুতে টিম মিটিং করেন হেড কোচ চন্ডিকা হাথুরু সিংহে। আদালত থেকে গতকাল জামিনে মুক্তি পাওয়া রুবেল হোসন অনুশীলনে যোগ দিয়েছেন। বিগ ব্যাশের জন্য সাকিব আল হাসান আর হাঁটুর অস্ত্রপচারের পর অস্ট্রেলিয়ায় পুনর্বাসন প্রক্রিয়ায় থাকা তামিম ইকবাল  যোগ দেন নি। 11তামিমের ফেরার কথা ১৪ জানুয়ারি। আজ থেকে শুরু হচ্ছে মাশরাফি ব্রিগেডের বিশ্বকাপের কন্ডিশনিং ক্যাম্প। কিন্তু গত বৃহস্পতিবার রুবেল কারাগারে যাওয়াতে ক্যাম্পের প্রথম দিনে তার উপস্থিতি নিয়ে জেগেছিল শঙ্কা। শেষ পর্যন্ত তারকা এই পেসার জামিনে মুক্তি পাওয়ায় পুরো স্কোয়াড নিয়েই প্রস্তুতি শুরু করতে পারছেন প্রধান কোচ চন্ডিকা হাথুরুসিংহে। এখন তাই স্বস্তির হাওয়া বিসিবিতে। ক্রীড়া প্রতিবেদক উঠতি চিত্রনায়িকা নাজনীন আক্তার হ্যাপির দায়ের করা নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনের মামলায় রোববার জামিনে মুক্ত হয়েছেন রুবেল হোসেন। ঢাকার মহানগর দায়রা জজ আদালতের ভারপ্রাপ্ত বিচারক ইমরুল কায়েস গতকাল শুনানি শেষে জাতীয় দলের ডানহাতি এই পেসারের জামিনের আবেদন মঞ্জুর করেছেন। আর তাতেই স্বস্তি প্রকাশ করেছে বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড (বিসিবি) এবং জাতীয় দলের নির্বাচকরা। কারণ, বিশ্বকাপের জন্য ঘোষিত ১৫ সদস্যের চূড়ান্ত স্কোয়াডে রয়েছেন তিনি। জামিনে মুক্ত হওয়ায় আজ থেকে পুরো স্কোয়াড নিয়েই বিশ্বকাপের প্রস্তুতি পর্ব শুরু করবে বাংলাদেশ। রুবেল জামিন পাওয়ায় তাই স্বস্তি প্রধান নির্বাচক ফারুক আহমেদের কণ্ঠে, ‘বিশ্বকাপের স্কোয়াডে থাকা জাতীয় দলের পেসার রুবেল হোসেন জামিন পাওয়ায় আমরা খুবই খুশি। সত্যি বলতে কি, তার জামিনে আমরা এখন বেশ নির্ভার। বোর্ডও স্বস্তিতে আছে। বিশ্বকাপের মাসখানেক আগে রুবেল হঠাৎ করে জেলে যাওয়ায় আমরা বেশ চিন্তার মধ্যে পড়ে গিয়েছিলাম।’ রুবেল প্রথম দিনের অনুশীলনে হাজির থাকবেন বলেও আশাবাদী ফারুক আহমেদ, ‘সে (রুবেল) সোমবার থেকেই জাতীয় দলের সঙ্গে বিশ্বকাপের অনুশীলন শুরু করবে।’ আগের দিন সন্ধ্যায় সিঙ্গাপুর থেকে দেশে ফিরে বিমানবন্দরে রুবেলের পাশে থাকার বিষয়টি নিশ্চিত করেছিলেন স্বয়ং বিসিবি সভাপতি নাজমুল হাসান পাপন। প্রয়োজনে রুবেলকে আইনি সহায়তা দেয়ার কথাও জানিয়েছিলেন তিনি। এর আগে সকালে ঢাকা কেন্দ্রীয় কারাগারে রুবেলের সঙ্গে দেখা করতে গিয়েছিলেন বিসিবির ক্রিকেট পরিচালনা বিভাগের প্রধান আকরাম খান। ওই সময় তিনি জানিয়েছিলেন, খুব শিগগিরই মাঠের প্রস্তুতিতে ফিরবে রুবেল। তারকা এই পেসারকে বিশ্বকাপের মিশনে ফিরে পাওয়ায় স্বস্তি এখন আকরামের কণ্ঠেও, ‘আসলে আমি অনেক খুশি। ব্যক্তিগতভাবে অনেক চিন্তায় ছিলাম।’ রুবেল সম্পর্কে আকরাম আরো বলেন, ‘আমাদের ৫০ ভাগ পেসার ইনজুরিতে থাকে। তার মধ্যে আমরা ফিট যদি কোনো পেস বোলারকে ধরি, তাহলে সেখানে হয়তো এক নাম্বারে থাকবে রুবেল। ওর পারফরম্যান্সও খুব ভালো। সে পাওয়ার প্লেতে ভালো বোলিং করে থাকে। অভিজ্ঞ বোলার। এজন্য আমি খুবই খুশি। একটা বিষয় নিয়ে ওর টেনশন হচ্ছিল, ওর জন্য একটা চিন্তার বিষয় হয়ে দাঁড়িয়েছিল। তবে আল্লাহর রহমতে সে আজ জামিন পেয়েছে। আমার মনে হয়, বাংলাদেশের ক্রিকেটের জন্য এটা সুখবর। বিশ্বকাপ পর্যন্ত ওর আর কোনো টেনশন থাকবে না। সেই সঙ্গে ও (রুবেল) দলকে শতভাগ দিতে পারবে।’ সাময়িক মুক্তি মিললেও অভিযোগ থেকে এখনো নিষ্কৃতি পাননি রুবেল। তাই বিষয়টি নিয়ে চিন্তা-ভাবনার আরো সুযোগ রয়েছে বলেই মনে করেন বোর্ডকর্তারা। তবে এ বিষয়টি নিয়ে বিশ্বকাপের মাঝে আর কোনো সমস্যা হবে না বলেই মনে করেন আকরাম, ‘আমি আইনজীবীর সঙ্গে কথা বলেছি। তিনি আমাকে বলেছেন, আগামী তিন মাস সে জামিনে থাকবে; এবং এই সময়ের মধ্যে তার কোনো সমস্যা হবে না। এমনকি সে ভালোভাবে বিশ্বকাপ খেলতে পারবে।’ দুই দিন ঢাকা কেন্দ্রীয় কারাগারে বন্দিজীবন পার করেছেন। এমনকি নারী নির্যাতনের এই মামলায় শঙ্কায় পড়ে গিয়েছিল রুবেলের বিশ্বকাপ-স্বপ্ন। গতকাল জামিনের আবেদনে মামলার অভিযোগ অস্বীকারের পাশাপাশি বিশ্বকাপের বিষয়টি অবহিত করে দেশ এবং জাতীয় স্বার্থের বিষয়টিও বিবেচনায় আনার অনুরোধ করা হয়। আবেদনে আরো বলা হয়, রুবেল হোসেন একজন পেসার। আসন্ন বিশ্বকাপ ক্রিকেটে তাকে প্রয়োজন। রুবেলের আইনজীবী ব্যারিস্টার মনিরুজ্জামান আসাদ মহানগর দায়রা জজ আদালতে জামিনের আবেদন করলে ওই আদালতের ভারপ্রাপ্ত বিচারক ইমরুল কায়েস শুনানি শেষে অভিযোগপত্র দাখিল না হওয়া পর্যন্ত জামিন মঞ্জুর করেন।

Leave a Reply

%d bloggers like this: