অভিবাসন আইনের খসড়া সংসদে উত্থাপন করেছে জার্মান সরকার

নিউজগার্ডেন ডেস্ক, ১১ মে ২০১৯, শনিবার: দীর্ঘদিন আলোচনায় থাকা অভিবাসন আইনের খসড়া সংসদে উত্থাপন করেছে জার্মান সরকার। এরপর থেকেই বিভিন্ন রাজনৈতিক দলের পক্ষ থেকে শুরু হয়েছে সমালোচনা। কেউ কেউ বলছেন, দক্ষ শ্রমিকদের আকৃষ্ট করতে আইনের যথেষ্ট সংস্কার হয়নি। বৃহস্পতিবার জার্মান পার্লামেন্ট বুন্ডেসটাগে দক্ষ শ্রমিকদের অভিবাসনে প্রস্তাবিত আইনের খসড়া উত্থাপনের পর তুমুল বিতর্ক হয়। ডয়চে ভেলে
নতুন প্রস্তাবে পাঁচ মাস আগেই মন্ত্রিসভার সায় পেয়েছিলেন চ্যান্সেলর আঙ্গেলা ম্যার্কেল। কয়েক বছর ধরেই জার্মানিতে তথ্য-প্রযুক্তি ও প্রকৌশল খাতে দক্ষ শ্রমিকের অভাবের কথা বলে যাচ্ছেন ব্যবসায়ীরা। অন্যান্য কারিগরি খাতেও রয়েছে যথেষ্ট জনবল সংকট। জার্মানিতে ধীরে ধীরে বাড়ছে বয়স্ক মানুষের সংখ্যা। তাঁদের জন্য সেবাখাতেও প্রয়োজন প্রচুর লোক।
রক্ষণশীল স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী হোর্স্ট সেহোফার বুন্ডেসটাগে খসড়া উপস্থাপন করেন। একে একটি ‘ঐতিহাসিক মুহূর্ত’ বলে উল্লেখ করেন তিনি। প্রস্তাবিত আইনে কারা, কী শর্তে জার্মানিতে কাজ করতে আসতে পারবে, তা স্পষ্ট করা হয়েছে বলেও জানান তিনি।
তবে খুব সতর্কতার সঙ্গে তিনি এটিও জানিয়ে দিয়েছেন, জার্মানিতে অভিবাসননীতি কিছুটা শিথিল করা হলেও চাকরির বাজারের অবস্থা পুনর্মূল্যায়ন করে তা যে-কোনো সময় পালটে ফেলা যাবে।
এই আইন পাস হলে কারিগরি দক্ষতা থাকা অভিবাসীদের জার্মানিতে আসা অনেক সহজ হয়ে যাবে৷ এখন পর্যন্ত কেবল প্রাতিষ্ঠানিক শিক্ষাগত যোগ্যতাকেই বেশি গুরুত্ব দিয়ে দেখা হতো।

Leave a Reply

%d bloggers like this: